বিজয় : আসাদ বিন হাফিজ

রাজপথে যেই নামলাম বিজয় উল্লাসে হীরালাল কয় চেঁচিয়ে জোরে সোল্লাসে দাদা, তুমি কই যাও একটু দাঁড়াও, এই নাও সবাই জয়ের মিষ্টি খাও দাও জোরে দাও, ধ্বনি দাও সবাই মিলে কোরাস গাও ওই... বিস্তারিত

ঋতুবৈচিত্র্য :

লালন দেবা গ্রীষ্ম আসে খরতাপ নিয়ে মাঠ ফেটে চৌচির হয়, নদীনালা যায় শুকিয়ে তপ্ত বাতাস বয়। বর্ষা আসে বৃষ্টি নিয়ে আকাশে কাজল মেঘ, অঝোর ধারায় নামে বৃষ্টি প্রচণ্ড তার বেগ। শরৎ আসে... বিস্তারিত

অতিথি বন্ধু : সাইফুল্লাহ মনসুর ইসহাক

মাত্র ভোর হলো। পূর্ব আকাশে সকালের লাল সূর্যটা উঁকি মেরেছে। ভোর হলেই যে আমার প্রতিদিনের একটা কাজ করতে হয়। আর তা হলো সকাল সকাল বিলে গিয়ে শাপলা তোলা। এখন শীতকাল। প্রচুর অতিথি... বিস্তারিত

বিজয় মানে : নূর আলম গন্ধী

বিজয় মানে সদ্য ফোটা পবিত্র এক ফুল স্বচ্ছ জলের স্বচ্ছ ধারা জীবন নদীর ক‚ল। বিজয় মানে রক্তে আঁকা লাল সবুজের নিশান কোটি প্রাণের স্বপ্ন আশায় ভালোবাসা মিশান। বিজয় মানে স্বাধীনতার চেতনা ও... বিস্তারিত

শীতের মজা : শশধর চন্দ্র রায়

শীতের মজা ভারি মজা পিঠা-পুলির উৎসব, মজার পিঠা খেতে মিঠা আনন্দ-কলরব। শীতের মজা ভারি মজা রসের পিঠা খাওয়া, মচমচে ওই মুড়ির সাথে খেজুর রসও পাওয়া। শীতের মজা ভারি মজা নানান মজার পিঠা,... বিস্তারিত

বিজয় : গোলাম নবী পান্না

দেশটা স্বাধীন হলো বিজয় ফিরে এল, দেশের বুকে মানচিত্র জাতি খুঁজে পেল। একাত্তরে লড়লো জাতি স্বাধীনতা চেয়ে, খুশির জোয়ার বইছে আবার বিজয়টাকে পেয়ে। আত্মত্যাগের বিনিময়ে মহান বিজয় আঁকা, এই বিজয়ের পতাকাটা আঁকড়ে... বিস্তারিত

বিজয়ের দিনে : পবিত্র মহন্ত জীবন

আজ বিজয়ে লাটাই ঘুড়ি ঘুরছে ঐ উড়ছে উল্লাসে তাই দুয়ার খুলে বিজয়ের গান গাইছে। স্বাধীনদেশে বইছে হাওয়া বাউল ধরে গান আজ বিজয়ের শুভক্ষণে উল্লাসিত মন। আনন্দে আজ বিজয় নিশান বাঙালির অন্তর, বছর... বিস্তারিত

শীতের সকালে : রমজান আলী রনি

শিশির ভেজা শীতের সকালে ঘাস ফুলেরা দুলে, খোকা-খুকু পড়তে বসে বইয়ের পাতা খোলে। খেজুর গাছে-গাছি উঠে কোমরে বেঁধে দড়ি, রসের হাঁড়িতে গা ডুবিয়ে পিঠা-পায়েস মুড়ি। ধরণী আজ কুয়াশা পরী সর্ষে ক্ষেতের মাঝে,... বিস্তারিত

শীতের ছোঁয়া : নূর মোহাম্মদ দীন

শহর নগর পাড়া গাঁয়ে লাগছে শীতের ছোঁয়া গাছ-গাছালি তরুলতা শিশির জলে ধোয়া। দূর্বাঘাসে পাতা ফুলে শীতের পরশ আঁকা ভোর-সকালে চারদিকে রোজ রয় কুয়াশায় ঢাকা। লেপ কাঁথা বা চাদর গায়েও যায় না শীতে... বিস্তারিত

নদী : পীযূষ কান্তি বড়ুয়া

আমার গাঁয়ের নদী কর্ণফুলী শৈশবে সখা তারে কেমনে ভুলি! পিপাসায় ফেটে নদী কত জল খায়! শেষমেশ জলভারে সাগরেই যায়। নুন ছাড়া খেয়ে জল মিটে না পিয়াস লবণের খোঁজে তাই ছোটে বারো মাস।... বিস্তারিত

কুয়াশা : হাবিবুল্লাহ

আজ সকালে, পাড়া গাঁয়ে ঘটল দেখো কি? হঠাৎ করে, কেন জানি দেয় না সূর্য উঁকি। বুড়ো বুড়ি, ছেলে খুড়ো শীত কাপড়ে মোড়া উঠোন ভরা, জটলা করে তাপছে আগুন তারা। হাঁড়ি ভরা, ঠাণ্ডা... বিস্তারিত

লাল-সবুজের জয় : মাহমুদুল হক জালীস

পাকদের নিপীড়ন চুপ করে সয়ে অসহায় এ জাতির দিন কাটে ভয়ে। নিষেধের বেড়াজাল ছিল পায়ে পায়ে নাগরিক অধিকার ছিল না তো হায়! ধীরে ধীরে বুকে জমে ক্রোধ আর ক্ষোভ স্বাধীনতা ফিরে পেতে... বিস্তারিত

শীতের পিঠা : স্বপন শর্মা

শীতের পিঠা খেতে মজা এসব গাঁয়ে পাই- হরেক রকম স্বাদের পিঠা খাবে এসো ভাই। ভাপা, পুলি, পাটিসাপটা চিতুই পিঠা মিলে, মজা হবে মুড়ির সাথে রসের পায়েস নিলে। নকশি, ম্যারা, তেলের পিঠা এবং... বিস্তারিত

অচেনা শহর : মো. শামীম মিয়া

বাবা ঢাকা শহরে গেছেন, আসবেন সাতদিন পর তা- ছোট্ট ইতি জানে। তবুও মাকে বারবার জিজ্ঞাসা করে, ‘মা, বাবা ঢাকা থেকে কখন আসবে?’ মা ইতির মনের অবস্থা বুঝতে পারে, ইতির মনটা বেশ খারাপ।... বিস্তারিত

আমার দেশ : মৃধা আলাউদ্দিন

সবখানে আজ হলুদ-সবুজ দারুণ পরিবেশ ঘাসের লতায় ফুল বিছানো এই তো আমার দেশ। চারদিকে রোদ, কৃষ্ণচূড়ায় লাল হয়েছে বেশ পথের ধারে গাছের ছায়ায় এই তো আমার দেশ। আষাঢ় মাসে টাপুর-টুপুর আহা কি... বিস্তারিত

সোনার দেশ : সুজন ইসলাম

নন্দিত এই দেশটা আমার সোনার বাংলাদেশ, বাংলা আমার রঙ-বাহারি স্বচ্ছ পরিবেশ। গ্রীষ্মকালে গরম ভীষণ শরীর ভেজে ঘামে, আবার দারুণ গন্ধ ছড়ায় আম কাঁঠাল আর জামে। বর্ষাকালে বৃষ্টি আসে ভরতে নদী নালা, বর্ষাটাকে... বিস্তারিত

হেমন্তেরই দোলা : গোলাম নবী পান্না

কার্তিক ও অগ্রহায়ণ এ মাস দুটি এলে হেমন্তেরই দোলা নিয়ে বাউরি বাতাস খেলে। তাতেই খুশির ঢেউ লেগে যায় কিষাণ বধূর মুখে গোলাভরা স্বপ্ন আর ধান ভানারই সুখে। ম-ম গন্ধে মন ভরে যায়... বিস্তারিত

হেমন্তের রূপ : সৈয়দ মাশহুদুল হক

হেমন্তের রূপ দেখতে যদি তোমরা কেহ চাও আর দেরি নয় জলদি করে গাঁয়ের বাড়ি যাও। দেখবে সেথায় মাঠে মাঠে কাটছে কৃষাণ ধান মনের সুখে পাখপাখালি করছে কলতান। ভোরের রোদে দেখতে পাবে শিশির... বিস্তারিত

পরীক্ষা : মো. ইউনুছ আলী

পরীক্ষা যে সামনে এখন পড়ালেখার অন্ত নেই, এখন আমার ছড়া লেখার একটুখানি মন তো নেই। পড়ব এখন দিনেরাতে সাজেশনটা ঠিক করে, বাবা বলেন ছেলে আমার পড়ার কাজটা নিক করে। সবাই আমায় উৎসাহ... বিস্তারিত

নবান্ন : আবু সাইদ

কার্তিক শেষে অগ্রহায়ণ মাসের প্রথম দিন, পড়ল সাড়া কৃষক পাড়া বাজল খুশির বীণ। বুকের ভিতর ঢেঁকি বাজে ধাপুর ধুপুর ধুপ, আলপনাতে ভরছে উঠান থাকছে না কেউ চুপ। কুটুম দিয়ে ভরছে বাড়ি শুনবে... বিস্তারিত

Bhorerkagoj