সেন্ট লুসিয়ায় ধীরে এগুগোচ্ছে উইন্ডিজ

আগের সংবাদ

বিধ্বস্ত শহরে ভূতুড়ে নিস্তব্ধতা : আদালতের নিয়মিত বিচারকাজ বন্ধ > অফিসপাড়া নিথর > বন্ধ হাসন রাজা মিউজিয়াম > পথে পথে ক্ষতচিহ্ন

পরের সংবাদ

স্থানীয় সরকারমন্ত্রী : ২৪ ঘণ্টার মধ্যে কুরবানির পশুর বর্জ্য অপসারণ হবে

প্রকাশিত: জুন ২৭, ২০২২ , ১২:০০ পূর্বাহ্ণ আপডেট: জুন ২৭, ২০২২ , ১২:০০ পূর্বাহ্ণ

কাগজ প্রতিবেদক : আসন্ন ঈদুল আজহায় কুরবানির পশুর বর্জ্য ২৪ ঘণ্টার মধ্যে অপসারণ করার নির্দেশ দিয়েছেন স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায়মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম। এ জন্য দেশের সব সিটি করপোরেশনকে নির্দেশ দেন তিনি। সেই সঙ্গে করোনার সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক দূরত্ব মেনে পশুর হাট বসানোর নির্দেশনা দেন মন্ত্রী।
গতকাল ঈদুল আজহা উপলক্ষে অনলাইনে আয়োজিত পশুর হাট ব্যবস্থাপনা, নির্দিষ্ট স্থানে পশু কুরবানি ও পশুর বর্জ্য ব্যবস্থাপনার সার্বিক প্রস্তুতি পর্যালোচনার লক্ষ্যে আন্তঃমন্ত্রণালয় সভায় এসব নির্দেশনা দেন তিনি। অনলাইন আলোচনায় অংশ নেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস, উত্তর সিটির মেয়র আতিকুল ইসলাম, নারায়ণগঞ্জ সিটির মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী, খুলনা সিটির মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক, সিলেটের মেয়র আরিফুল ইসলামসহ বিভিন্ন সিটি করপোরেশনের মেয়র, বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের সচিব, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তাসহ স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা।
স্থানীয় সরকারমন্ত্রী বলেন, সড়ক-মহাসড়কের পাশে যেখানে যান চলাচল বিঘœ হতে পারে সেখানে কোনোভাবেই পশুর হাট বসানো যাবে না। এ নির্দেশ অমান্যকারীর বিরুদ্ধে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে যথাযথ আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। তিনি বলেন, জেলা পরিষদের প্রশাসক পৌর মেয়র, উপজেলা পরিষদ ও ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানদের নিয়ে সভা করে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। জনপ্রতিনিধিরা মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা মেনে কাজ করবেন।
তাজুল ইসলাম জানান, করোনার মহাসংকটেও স্বাস্থ্যবিধি মেনে গত ঈদে পশুর হাট বসানো হয়েছিল। এ বছরের শুরুতে করোনা সংক্রমণের হার কম থাকলেও গত কয়েকদিন ধরে সংক্রমের হার বেড়েছে। তাই স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করে এবারের পশুর হাট বসাতে হবে। এ ব্যাপারে সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। স্বাস্থ্যবিধি মেনে কুরবানির হাট বসানোর পাশাপাশি এ বছরও অনলাইনে পশু কেনাবেচার বিষয়টি গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে। পশুর হাট বাজার ব্যবস্থাপনা, দ্রুততম সময়ে কুরবানির বর্জ্য অপসারণের জন্য জনপ্রতিনিধিদের সক্রিয় অংশগ্রহণের পাশাপাশি জনসাধারণ এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তিনি। স্থানীয় সরকারমন্ত্রী জানান, কুরবানির পশুর হাটে নিরাপত্তা বিধানে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেবে জননিরাপত্তা বিভাগ। এ বিষয়ে জেলা-উপজেলা পর্যায়ে সুনির্দিষ্ট নির্দেশনা দেয়া হবে।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়