×

শিক্ষা

জালিয়াতির অভিযোগে বাংলাদেশ বোটানিক্যাল সোসাইটির নির্বাচন প্রত্যাখ্যান

Icon

ঢাবি প্রতিনিধি

প্রকাশ: ০১ জুন ২০২৪, ১০:২৫ পিএম

জালিয়াতির অভিযোগে বাংলাদেশ বোটানিক্যাল সোসাইটির নির্বাচন প্রত্যাখ্যান

ছবি: ভোরের কাগজ

বাংলাদেশ বোটানিক্যাল সোসাইটির কার্যকরী পরিষদের গত নির্বাচনে অনিয়ম, কারচুপি ও জালিয়াতির অভিযোগ এনে নির্বাচনকে প্রত্যাখ্যান করে সোসাইটির সাধারণ সভায় অধ্যাপক ড. রাখহরি সরকারকে প্রধান করে ৫১ সদস্যের একটি আহ্বায়ক কমিটি গঠন করা হয়েছে। এতে সদস্য সচিব করা হয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ জাবেদ হোসেনকে। 

শনিবার (১ জুন) ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উদ্ভিদবিজ্ঞান বিভাগের কেন্দ্রীয় গ্যালারিতে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ বোটানিক্যাল সোসাইটির সাধারণ সভায় এই কমিটি গঠন করা হয়।

উক্ত সাধারণ সভায় চরম অনিয়ম, জালিয়াতি ও কারচুপিপূর্ণ বাংলাদেশ বোটানিক্যাল সোসাইটি নির্বাচন ২০২৩ এর ফলাফল অগ্রহণযোগ্য ও বাতিল বলে ঘোষণা করা হয়। একই সঙ্গে গত ১১ মে অনলাইনে অনুষ্ঠিত অসাংবিধানিক এজিএমের মাধ্যমে এজেন্ডা বহির্ভূতভাবে ঘোষিত কার্যকরী কমিটি অবৈধ ঘোষণা করে সাধারণ সভায় উপস্থিত সব সম্মানিত সদস্যরা। 

সাধারণ সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এই আহ্বায়ক কমিটি বোটানিক্যাল সোসাইটির কার্যালয়, স্থাবর বা অস্থাবর সম্পদ, ব্যবস্থাপনা, সোসাইটির জার্নাল ও উদ্ভিদ বার্তা প্রকাশসহ নিয়মিত কমিটির অনুরূপ সব দায়িত্ব পালন করবে।

আরো পড়ুন: বাংলাদেশী শিক্ষার্থীদের জন্য বিনামূল্যে লেখাপড়ার সুযোগ দিচ্ছে চীন

আহ্বায়ক কমিটির বাকি সদস্যরা হলেন- সাবেক শিক্ষা সচিব এন আই খান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মনিরুজ্জামান খন্দকার, অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ আজমল হোসেন ভূঁইয়া, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. অনিমেষ বিশ্বাস। রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. শহিদুল আলম, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক কোষাধ্যক্ষ ও হামদর্দ বিশ্ববিদ্যালয়ের বর্তমান কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. আবুল খায়ের, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মনিরুজ্জামান খন্দকার প্রমুখ। 

ছবি: ভোরের কাগজ

এছাড়া সভায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়, বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়, বঙ্গবন্ধু বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, গোপালগঞ্জ, বাংলাদেশ আণবিক  শক্তি কমিশন, বিসিএসআইআর, বিভিন্ন কলেজ, গবেষণা প্রতিষ্ঠানের বিপুল সংখ্যক সদস্য উপস্থিত ছিলেন। 

এর আগে গত ফেব্রুয়ারিতে বাংলাদেশ বোটানিক্যাল সোসাইটির কার্যকরী পরিষদের নির্বাচনে অনিয়ম, কারচুপি ও জালিয়াতির অভিযোগ তুলে ভোট বর্জন করেছে সোসাইটির বেশীরভাগ সদস্যের সমর্থনপুষ্ঠ অধ্যাপক রাখ হরি সরকার ও অধ্যাপক জাবেদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন পক্ষটি।

তারা নির্বাচনের ফল বাতিল ও নতুন নির্বাচনের দাবিতে প্রধান নির্বাচন কমিশনারের কাছে লিখিত অভিযোগ এবং লিগ্যাল নোটিশ পাঠিয়েছিলেন। 

প্রধান নির্বাচন কমিশনার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উদ্ভিদবিজ্ঞান বিভাগের প্রাক্তন অধ্যাপক মমতাজ বেগম, নির্বাচন কমিশনার ড. শাহাদাত মোর্শেদ ও তাহমিনা আউয়াল এবং বোটানিক্যাল সোসাইটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে নোটিশের মাধ্যমে নির্বাচনে জালিয়াতির সুস্পষ্ট তদন্ত ও দোষীদের শনাক্ত করে শাস্তির আওতায় আনার অনুরোধ জানান। 

প্রসঙ্গত, উদ্ভিদবিজ্ঞান বিষয়ে পড়াশোনা করেছেন এমন পেশাজীবীদের সংগঠন বোটানিক্যাল সোসাইটি। ১৯৭২ সালে দেশের প্রথিতযশা উদ্ভিদবিজ্ঞানীদের নিয়ে সংগঠনটির যাত্রা শুরু হয়েছিলো।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App