×

রাজধানী

স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে জনপ্রতিনিধি ও সরকারি কর্মচারীদের সম্মিলিতভাবে কাজ করতে হবে

Icon

কাগজ প্রতিবেদক

প্রকাশ: ২৯ জুন ২০২৪, ০৬:০১ পিএম

স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে জনপ্রতিনিধি ও সরকারি কর্মচারীদের সম্মিলিতভাবে কাজ করতে হবে

ছবি: ভোরের কাগজ

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম বলেছেন, স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে জনপ্রতিনিধি এবং সরকারি কর্মচারীদের সম্মিলিতভাবে কাজ করতে হবে৷ যৌথ প্রচেষ্টার পাশাপাশি উভয়ের মধ্যে থাকতে হবে পারষ্পরিক শ্রদ্ধাবোধ।

শনিবার (২৯ জুন) সকালে জেলা প্রশাসন, ঢাকা আয়োজিত ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে জেলার ইউনিয়ন পরিষদগুলোর ক্যাশলেস স্মার্ট সেবা কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন৷ 

তাজুল ইসলাম বলেন, জনপ্রতিনিধি ও সরকারি কর্মচারী এদেশের নাগরিক৷ সবাই মিলে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ হয়ে কাজ করলে কোনো বাধায় সামনে দাঁড়াতে পারবে না। জনগণের ভাগ্য উন্নয়নের জন্য উভয়কেই অঙ্গীকারবদ্ধ হতে হবে। 

স্থানীয় সরকার মন্ত্রী বলেন, ঢাকা জেলার ইউনিয়ন পরিষদগুলোর ক্যাশলেস সেবা কার্যক্রম স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মার্ণের আরেকটি মাইলফলক। ক্যাশলেস করার কারণে রাজস্ব সংগ্রহ বহুগুণ বৃদ্ধি পাবে। এই সেবা শুধু ঢাকায় নয়, সারাদেশে ছড়িয়ে দিতে হবে৷ দেশের সব ইউনিয়ন পরিষদে ক্যাশলেস স্মার্ট সেবা কার্যক্রম চালু করতে হবে।

তিনি বলেন, শুধু রাজস্ব আহরণ বৃদ্ধি নয়, স্মার্ট ক্যাশলেস সেবা কার্যক্রমের মাধ্যমে জনগণের ভোগান্তিও কমবে৷ পূর্বে আমরা দেখেছি, দীর্ঘসময় লাইনে দাঁড়িয়ে থাকার কারণে রাজস্ব প্রদানসহ যেকোনো ইউটিলিটি বিল পরিশোধে অনীহা দেখা যেতো। কিন্তু ক্যাশলেস স্মার্ট সেবার মাধ্যমে জনগণ খুব সহজেই  বিকাশ অ্যাপের মাধ্যমে হোল্ডিং ট্যাক্স পরিশোধ করতে পারবেন।

ঢাকা জেলা প্রশাসক ও জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আনিসুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ উপদেষ্টা সালমান ফজলুর রহমান, ঢাকা-২০ আসনের সংসদ সদস্য বেনজির আহমদ, জাতীয় সংসদ সদস্য শেখ আনার কলি পুতুল, স্থানীয় সরকার বিভাগের সচিব আবু হেনা মোরশেদ জামান, ঢাকার বিভাগীয় কমিশনার মো. সাবিরুল ইসলামসহ প্রমুখ৷

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App