×

খবর

জাবিতে মানববন্ধন

মাস্টারপ্ল্যান ছাড়া আর কোনো ভবন নয়

Icon

প্রকাশ: ৩০ মে ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

জাবি প্রতিনিধি : মাস্টারপ্ল্যান ছাড়া জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) আর একটি ভবনও করতে দেয়া হবে না বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন প্রগতিশীল শিক্ষার্থীরা। বায়োডাইভারসিটি ও ইকোলজিক্যাল সাইট ঠিক রেখে মাস্টারপ্ল্যান প্রণয়নের মাধ্যমে নির্ধারিত স্থানে ভবন নির্মাণের দাবি জানান তারা। গতকাল বুধবার বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ মিনার সংলগ্ন স্থানে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে এসব দাবি জানান তারা।

নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগের শিক্ষার্থী সোহাগী সামিহার সঞ্চালনায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন সংগঠনের নেতাকর্মীরা মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন। তারা বলেন, প্রাণ-প্রকৃতি ধ্বংস করে কোনো ভবন নির্মাণ হতে দেবেন না।

মাস্টারপ্ল্যান প্রণয়ন করে যেখানে পারমিট দেয়া হবে সেখানেই যেন অবকাঠামোগত উন্নয়ন হয়। এছাড়া যত্রতত্র গাছ কেটে ও জীববৈচিত্র ধ্বংস করে কোনো উন্নয়ন দরকার নেই।

তারা আরো বলেন, আমরা কোনো ভবন নির্মাণের বিরুদ্ধে নই, আমরাও চাই ভবন হোক। তবে সেটা যেন হয় পরিকল্পিতভাবে। পাখির ফ্লাইং জোনে, জীববৈচিত্র্যময় স্থানে ভবন না করে বিকল্প ব্যবস্থা যেন করা হয়। এদিকে দাবদাহের তীব্রতায় দেশ যেখানে মরুভূমিতে পরিণত হচ্ছে সেখানে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় গাছ কাটার জন্য ব্যাকুল হয়ে উঠেছে।

এ সময় ছাত্র ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক মো. ইমন, জাহাঙ্গীরনগর সাংস্কৃতিক জোটের সহসাধারণ সম্পাদক ওমর ফারুক, দপ্তর সম্পাদক আহসান লাবীব, আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের শিক্ষার্থী তৌহিদ মোহাম্মদ সিয়াম, বঙ্গবন্ধু তুলনামূলক সাহিত্য ও সংস্কৃতি ইনস্টিটিউটের শিক্ষার্থী মেহেরাব হোসেন সিফাত, ইংরেজি বিভাগের শিক্ষার্থী হামিদুল্লাহ সালমান প্রমুখ।

প্রসঙ্গত, বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) আল-বেরুনী হলের সম্প্রসারিত অংশসংলগ্ন লেকপাড়ে মাস্টারপ্ল্যান ছাড়া চারুকলা অনুষদের ছয়তলা ভবনের নির্মাণকাজ শুরু করে চারুকলা বিভাগ।

এছাড়া জীববিজ্ঞান অনুষদের সম্প্রসারিত ভবনের জন্য ওয়াজেদ মিয়া বিজ্ঞান গবেষণাগারের বিপরীতে এবং গাণিতিক ও পদার্থবিষয়ক অনুষদের সম্প্রসারিত ভবনের জন্য পদার্থবিজ্ঞান ভবনের পাশের জলাশয়ে টিনের ঘেরাও দিয়ে কাজ শুরু করে প্রশাসন। তবে এই জায়গাগুলোয় ভবন নির্মাণের জন্য প্রায় ৪শ গাছ কাটা হবে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা। পাশাপাশি চারুকলা ভবনের জন্য বরাদ্দ করা জায়গা অতিথি পাখির ‘ফ্লাইং জোন’ হিসেবে পরিচিত।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App