×

খবর

চাকরিতে প্রবেশে বয়সসীমা ৩৫ করার দাবিতে বিক্ষোভ

Icon

প্রকাশ: ১২ মে ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

চাকরিতে প্রবেশে বয়সসীমা ৩৫ করার দাবিতে বিক্ষোভ
ঢাবি প্রতিনিধি : পূর্বঘোষিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩৫ করার দাবিতে ‘চাকরির বয়স ৩৫ প্রত্যাশী সমন্বয় পরিষদ’ এর ব্যানারে বিক্ষোভ মিছিল ও পদযাত্রা করেছেন চাকরিপ্রত্যাশীরা। প্রথমে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যে সমাবেশ শেষ করে পদযাত্রা নিয়ে গণভবন অভিমুখে যাত্রা করলে শাহবাগে বাধা দেয় পুলিশ। পরে পুলিশের বাধা অতিক্রম করে শাহবাগ মোড় অবরোধ করে আন্দোলনকারীরা। এ সময় ১৩ শিক্ষার্থীকে পুলিশি হেফাজতে নেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন আন্দোলনকারীরা। গতকাল শনিবার বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে পুলিশের ব্যারিকেড ভেঙে শাহবাগ মোড় অবরোধ করেন তারা। এতে শাহবাগ এলাকায় যানজটের সৃষ্টি হয়। ভোগান্তিতে পড়েন যাত্রীরা। এর আগে বিকাল পৌনে ৩টার দিকে আন্দোলনকারীরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্য থেকে পদযাত্রা নিয়ে গণভবন অভিমুখে যাত্রা করলে বাধা দেয় পুলিশ। এদিকে ১৩ জন আন্দোলনকারীকে আটক ও পদযাত্রায় বাধা দেয়ার প্রতিবাদে সন্ধ্যায় রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে এক বিক্ষোভ সমাবেশ করেন আন্দোলনকারীরা। সন্ধ্যায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত আটক শিক্ষার্থীদের থানায় রাখা হয়। প্রেস ব্রিফিংয়ে আন্দোলনকারীরা বলেন, শাহবাগে শান্তিপূর্ণ আন্দোলন চলাকালীন নারী শিক্ষার্থীসহ আমাদের ১৩ জন আন্দোলনকারীকে পুলিশ আটক করেছে। সরকার যদি আমাদের প্রতি সদয় না হয়, তবে আমরা কঠোর কর্মসূচি পালন করতে বাধ্য হব। তার আগে দুপুর ১টা থেকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে ‘চাকরির বয়স ৩৫ প্রত্যাশী সমন্বয় পরিষদ’ এর ব্যানারে সমাবেশ শুরু করেন আন্দোলনরতরা। এ সময় তারা ‘পঁয়ত্রিশ আমার অধিকার’, ‘পদ্মা মেঘনা যমুনা, ৩৫ আমার ঠিকানা’, ‘৩০ এর শৃঙ্খল ভেঙে দাও’ ও ‘নির্বাচনী ইশতেহার পালন করতে হবে’সহ নানা সেøাগান দেন। সমাবেশে আন্দোলনকারীদের সংহতি জানিয়ে ডাকসুর সাবেক জিএস ও ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক গোলাম রব্বানী সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩৫ করার দাবি জানিয়ে বলেন, আজ বাংলাদেশ মধ্যম আয়ের দেশ থেকে উন্নত বিশ্বে যাওয়ার জন্য অপেক্ষা করছে। আমরা দক্ষ জনশক্তিতে যাদের রোল মডেল মনে করি সেই চীনসহ আমাদের সার্কভুক্ত দেশ পাকিস্তান ছাড়া সব দেশেই চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩৫ থেকে ৪৫ এর মধ্যে। ইন্ডিয়ান লিগ্যাল সিস্টেম, ইন্ডিয়ান অ্যাডমিনিস্ট্রেশন সিস্টেম আমরা সবসময় অনুসরণ করি। তাহলে চাকরিতে প্রবেশের ক্ষেত্রে কেন ভারতের মতো আমাদের দেশেও ৩৫ হবে না? তিনি আরো বলেন, সরকারের বাধা কোথায়, কষ্ট কোথায়, ক্ষতি কোথায় সেটা আমার মাথায় আসে না। অনেকে মনে করে চাকরিতে দেরি করে প্রবেশ করলে আবার নতুন করে অবসরে যাওয়ার বয়স বাড়াতে হবে। কিন্তু আমরা স্পষ্ট করতে চাই চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা বাড়ানো হলেও চাকরি থেকে অবসরের বয়সসীমা বাড়ানোর প্রয়োজন নেই। অন্তত আমাদের আশার প্রদীপটা জ¦ালিয়ে রাখতে দেন। মানুষের মধ্যে যতক্ষণ শ্বাস আছে ততক্ষণ আশা আছে। আমরা আশায় বাঁচতে চাই। আমরা কোনো অন্যায্য সুবিধা বা অন্যায্য দাবি জানাচ্ছি না। শিক্ষামন্ত্রী ও জনপ্রশাসনমন্ত্রীর কাছে আবেদন জানিয়ে তিনি আরো বলেন, আমি শিক্ষামন্ত্রী ও জনপ্রশাসনমন্ত্রীর কাছে অনুরোধ জানাব আপনারা ছাত্রদের এ দাবি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর কাছে যান। তাকে বোঝান ছাত্রসমাজ চায় চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩৫ করা হোক। কথায় কথায় আমরা যে সিঙ্গাপুর মালয়েশিয়ার উদাহরণ দিই, তাদের দেশে চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৪৫ বছর। সবচেয়ে ভালো হয় চাকরিতে বয়সের প্রবেশসীমা উন্মুক্ত রাখলে। তা না হলে অন্তত ৩৫ বছর করা হোক। উল্লেখ্য, সরকারি চাকরির বয়স ৩৫ করার দাবিতে দীর্ঘদিন ধরেই আন্দোলন করে আসছেন একদল চাকরিপ্রত্যাশী। সবশেষ শিক্ষামন্ত্রীকে স্মারকলিপি দেন তারা। পরে শিক্ষামন্ত্রী চাকরির বয়স ৩৫ করার দাবিতে জনপ্রশাসনমন্ত্রীকে সুপারিশ করেন।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App