×

খবর

বজ্রপাতে তিন জেলায় প্রাণ গেল ৫ জনের

Icon

প্রকাশ: ১২ মে ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

কাগজ ডেস্ক : বজ্রপাতে তিন জেলায় গতকাল শনিবার প্রাণ হারিয়েছেন ৫ জন। এর মধ্যে বাগেরহাটে দুই বালু শ্রমিক, চুয়াডাঙ্গায় কৃষক ও যুবক এবং কুমিল্লায় এক শিক্ষার্থী রয়েছেন। আমাদের প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর- বাগেরহাট : জেলার শরণখোলা উপজেলার চাল-রায়েন্দা গ্রামের বান্ধাঘাটা এলাকায় বজ্রপাতে দুই শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। এ সময় আহত হন আরো ছয়জন। সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বৃষ্টির মধ্যে নদীর ঘাটে থাকা কার্গো থেকে বালু তোলার সময় বজ্রপাতে তাদের মৃত্যু হয়। নিহতরা হলেন বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জ উপজেলার বদনিভাঙ্গা গ্রামের বাসিন্দা শেখ মিলন (৪০) ও পিরোজপুর সদরের বালিপাড়া গ্রামের বাসিন্দা মোস্তফা (৫৫)। শরণখোলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এএইচ এম কামরুজ্জামান দুর্ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। চুয়াডাঙ্গা : জেলার উপজেলায় বজ্রপাতে কৃষক ও যুবকের মৃত্যু হয়েছে। কৃষক আহম্মেদ মল্লিক (৭০) পাটাচোরা গ্রামের মল্লিকপাড়ার মৃত খেদের মল্লিকের ছেলে এবং রুবেল হোসেন (২৮) ঝাজরী গ্রামের আবদুল মালেকের ছেলে। সকাল ৯টার দিকে পৃথক দুটি স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে। দামুড়হুদা মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাহবুবুর রহমান জানান, পৌনে ৯টার দিকে খড়েরগাড়ী মাঠে ক্ষেতে যান আহম্মেদ মল্লিক। বৃষ্টি শুরু হলে তিনি বাড়ির দিকে ফিরছিলেন। এ সময় বজ্রপাতে তিনি ঘটনাস্থলেই মারা যান। অন্যদিকে দর্শনা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. শফিকুল ইসলাম জানান, ৯টার দিকে বৃষ্টি শুরু হয়। এ সময় ঝাজরী গ্রামের রুবেল হোসেন একটি দোকানের নিচে বসে ছিলেন। বজ্রপাতে ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান। মুরাদনগর (কুমিল্লা) : মুরাদনগরে ফুটবল খেলতে গিয়ে সিয়াম (১৪) নামের এক শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। সকাল সাড়ে নয়টার দিকে উত্তর ত্রিশ এলাকার বালুর মাঠে এই ঘটনা ঘটে। নিহত সিয়াম উপজেলার নবীপুর পশ্চিম ইউনিয়নের উত্তর ত্রিশ গ্রামের প্রবাসী হুমায়ুন কবিরের ছেলে। জানা যায়, সকালে সিয়াম বন্ধুদের সঙ্গে প্রীতি ফুটবল ম্যাচ খেলতে ত্রিশ গ্রামের বালুর মাঠে যায়। তাদের খেলা চলাকালীন সময়ে মাঠে বজ্রপাতের ঘটনা ঘটে। এতে সিয়াম মাঠেই জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করে। মুরাদনগর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. এনামুল হক বলেন, সিয়ামের শরীরে পুড়ে যাওয়ার মতো কোনো চিহ্ন পাওয়া যায়নি। ইসিজি করার পর তার মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত হয়েছি। নবীপুর পশ্চিম ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. জাকির হোসেন বলেন, সিয়াম কোম্পানীগঞ্জ বদিউল আলম উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্র। বজ্রপাতের শব্দে ঘটনাস্থলেই সে জ্ঞান হারায়।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App