×

শেষের পাতা

উদীচীর নতুন নাটক বিদ্যাভুতুমের প্রথম মঞ্চায়ন আজ

Icon

প্রকাশ: ০৬ জুন ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

উদীচীর নতুন নাটক বিদ্যাভুতুমের প্রথম মঞ্চায়ন আজ

কাগজ প্রতিবেদক : দীর্ঘদিন পর নতুন নাটকমঞ্চে নিয়ে আসছে বাংলাদেশ উদীচী শিল্পীগোষ্ঠী। উদীচীর নতুন নাটক ‘বিদ্যাভুতুম’। বিদ্রোহী কবি কাজী নজরুল ইসলাম রচিত লেটো আঙ্গিকের এ নাটকটির নবনাট্যায়ন, গীত রচনা এবং নির্দেশনা দিয়েছেন উদীচীর সাবেক সহসভাপতি অধ্যাপক ড. রতন সিদ্দিকী।

আজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টায় রাজধানীর বেইলি রোডের মহিলা সমিতি মিলনায়তনে বাঁশরী আয়োজিত ‘নজরুল নাট্য সমারোহ’ উৎসবে ‘বিদ্যাভুতুম’-এর প্রথম মঞ্চায়ন হবে।

সুপরিচিত অল্পবিদ্যা ভয়ংকরী প্রবাদটির আলোকে রচিত হয়েছে লেটো নাট্য ‘বিদ্যাভুতুম’। এর কাহিনীতে দেখা যায়, গলা ফুলে যাওয়ায় শয্যাশায়ী রাজহাতির মুমূর্ষু অবস্থা। বিচলিত রাজা, বৈদ্যকে ডেকে আনলে তিনি দেখেন, হাতির গলায় খাবার আটকে আছে। বৈদ্য, শিষ্যসহযোগে মুগুর দিয়ে হাতির গলায় আঘাত করেন। খাবার বেরিয়ে গেলে হাতি সুস্থ হয়। রাজবৈদ্য শিষ্যকে বিদ্যাভুতুম উপাধি দেন। এরপর একদিন বিদ্যাভুতুমের কাছে এক বুড়ি আসে গলাফোলা রোগ নিয়ে। বিদ্যাভুতুম বুড়ির গলায় মুগুর দিয়ে আঘাত করলে বুড়ির মৃত্যু হয়। এ ঘটনা শুনে রাজা বিদ্যাভুতুমকে শাস্তি দেন।

অধ্যাপক ড. রতন সিদ্দিকী জানান, ১৯১০ থেকে ১৯১২ সালের কোনো এক সময় কাজী নজরুল ইসলাম, আপন চাচা কাজী বজলে করিমের লেটোর দলে যোগ দেন। তখন তার বয়স ১১ থেকে ১২ বছর। এরপর তিনি যোগ দেন ওস্তাদ শেখ চকোর গোদার দলে। এ সময় তিনি লেটো নাট্য ‘বিদ্যাভুতুম’ রচনা

করেন। তিনি আরো জানান, ‘বিদ্যাভুতুম’ খুব সংক্ষিপ্ত একটি নাট্য। লেটো পরিবেশনাকালের আবহ তৈরি করার জন্য এর সঙ্গে প্রতিযোগিতামূলক বন্দনা গীত ও তর্যা সংযোজন করা হয়েছে। পরিবেশনাকালের সামাজিক ও রাজনৈতিক অবস্থা তুলে ধরা হয়েছে। লেটো দলের সদস্যদের পরিবেশনাকালের আচার, আচরণকেও তুলে আনা হয়েছে। উদীচী চেষ্টা করেছে, ১৯১০ থেকে ১৯১২ সালের শেখ চকোর দলের পরিবেশনা উপস্থাপন করতে।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App