×

শেষের পাতা

হাইকমিশনার

সিঙ্গাপুরে সবজি ফলমূল মাছ রপ্তানির সম্ভাবনা

Icon

প্রকাশ: ০৫ মে ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

 সিঙ্গাপুরে সবজি ফলমূল মাছ  রপ্তানির সম্ভাবনা
চট্টগ্রাম অফিস : সিঙ্গাপুর ও বাংলাদেশের ব্যবসায়ীরা একে অপরের দেশে বিনিয়োগ করে উভয়েই লাভবান হতে পারেন বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত সিঙ্গাপুরের হাইকমিশনার ডেরেক লো। গতকাল শনিবার আগ্রাবাদে ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারে চেম্বার কার্যালয়ে চিটাগাং চেম্বার নেতাদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় এ কথা বলেন তিনি। এ সময় চেম্বার নেতারাও একই অভিমত ব্যক্ত করেন। চিটাগাং চেম্বারের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। মতবিনিময় সভায় সিঙ্গাপুরের হাইকমিশনার ডেরেক লো বলেন, ভৌগোলিক অবস্থানের কারণে সিঙ্গাপুরের জন্য বাংলাদেশ বিশেষ করে চট্টগ্রাম খুবই গুরুত্বপূর্ণ। চট্টগ্রামের বে-টার্মিনালে সিঙ্গাপুরের শিপিং কোম্পানি পিএসএ বিনিয়োগ করছে; যার মাধ্যমে চট্টগ্রামে বে-টার্মিনাল ট্রান্সফরমেশনের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক বৃহৎ বন্দরে উপনীত হবে। এর মাধ্যমে দুদেশের মধ্যে ব্যবসা-বাণিজ্য বৃদ্ধি পাবে। হাইকমিশনার বাংলাদেশের অ্যাগ্রো এবং ফিশিং সেক্টরের সম্ভাবনার কথা উল্লেখ করে বলেন, সিঙ্গাপুর ছোট দেশ হওয়ায় সবজি, ফলমূল এবং মিঠা পানির মাছ বিভিন্ন দেশ বিশেষ করে অস্ট্রেলিয়া ও আমেরিকা থেকে আমদানি করে। দূরত্ব বিবেচনায় বাংলাদেশ সিঙ্গাপুরের কাছাকাছি হওয়ায় বাংলাদেশ থেকে এসব পণ্য রপ্তানির উজ্জ্বল সম্ভাবনা রয়েছে। তিনি আরো বলেন, লজিস্টিক্স সেক্টরে বিশ্বে উন্নত সিঙ্গাপুর। বাংলাদেশেও লজিস্টিক্স সেক্টরে অফুরন্ত সম্ভাবনা রয়েছে। এ সম্ভাবনা কাজে লাগাতে বাংলাদেশের ব্যবসায়ীরা সিঙ্গাপুরের লজিস্টিক্স সেক্টর সম্পর্কে সম্যক ধারণা লাভ করতে পারেন। তিনি বাংলাদেশে বিনিয়োগ সম্ভাবনা সিঙ্গাপুরের বিনিয়োগকারীদের কাছে তুলে ধরতে চট্টগ্রামের ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদের সিঙ্গাপুর সফরের আমন্ত্রণ জানান। মতবিনিময় সভায় চেম্বার সভাপতি ওমর হাজ্জাজ, সহসভাপতি রাইসা মাহবুব, পরিচালক অঞ্জন শেখর দাশ, মো. রকিবুর রহমান (টুটুল), মাহফুজুল হক শাহ, বেনাজির চৌধুরী নিশান, আখতার উদ্দিন মাহমুদ, মোহাম্মদ সাজ্জাদ উন নেওয়াজ, ওমর মুক্তাদির, এন্টারপ্রাইজ সিঙ্গাপুরের দক্ষিণ এশিয়ার ডেভেলপমেন্ট পার্টনার ক্লারেন্স চং, সিঙ্গাপুরের শিপিং কোম্পানি পিএসএর লিম উই চিয়াং, বাংলাদেশ প্রতিনিধি মোহাম্মদ আবদুল্লাহ জহির বক্তব্য রাখেন। এ সময় বাংলাদেশে সিঙ্গাপুর হাইকমিশনের চার্জ দ্য এফেয়ার্স শীলা পিল্লাই, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ডেপুটি ডিরেক্টর মিশেল লি ও কর্মকর্তা এস্টার লি প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। চেম্বার নেতারা বলেন, উভয় দেশই নবায়নযোগ্য জ¦ালানি, লজিস্টিক্স এবং ট্রেড ফ্যাসিলিটেশনের জন্য একসঙ্গে কাজ করতে দ্বিপক্ষীয় সহযোগিতামূলক চুক্তি করেছে। এছাড়া উভয় দেশের মধ্যে ডাবল ট্যাক্সেশন এবং দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্যিক চুক্তিও রয়েছে। তারা চট্টগ্রামের ভৌগোলিক অবস্থান বিবেচনা করে এশিয়ার বৃহত্তম বিশেষায়িত অর্থনৈতিক অঞ্চল বঙ্গবন্ধু শিল্প নগরে বিনিয়োগসহ বাংলাদেশের ব্যবসাবান্ধব পরিবেশ, সুলভ মূল্যের শ্রমিক সুবিধা কাজে লাগিয়ে চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য, পর্যটন, পাটজাত পণ্য, হিমায়িত মাছ, লজিস্টিক্স ও অ্যাগ্রো প্রসেসিং সেক্টরে বিনিয়োগের আহ্বান জানান। একই সঙ্গে সিঙ্গাপুরের বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগ সংক্রান্ত বিভিন্ন সেবা প্রদানে চিটাগাং চেম্বারের পক্ষ থেকে সর্বাত্মক সহযোগিতার আশ্বাস দেন চেম্বার নেতারা।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App