×

প্রথম পাতা

সেরাটা দিতে হবে টাইগারদের

Icon

প্রকাশ: ০৮ জুন ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে আজ চারটি ম্যাচ রয়েছে। ডালাসে সকাল সাড়ে ৬টায় বাংলাদেশের মোকাবিলা করবে শ্রীলঙ্কা। গায়ানায় ভোর সাড়ে ৫টায় আফগানিস্তানের মুখোমুখি হবে নিউজিল্যান্ড। রাত সাড়ে ৮টায় দক্ষিণ আফ্রিকা খেলবে নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে। বার্বাডোজে রাত ১১টায় অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে লড়বে ইংল্যান্ড। এ চারটি ম্যাচেই ভালো ফাইট হবে।

সুপার এইটের স্বপ্ন বাঁচিয়ে রাখতে হলে আজ শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে জিততে হবে লাল-সবুজের প্রতিনিধিদের। লঙ্কানদের হারাতে পারলে পরের ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে শান্তবাহিনী হারলেও নেদারল্যান্ডস ও নেপালের বিপক্ষে জিতলে সুপার এইট নিশ্চিত। তাই আজ সেরাটা দিতে হবে টাইগারদের। সেরা টিম মাঠে নামাতে হবে। টস জিতলে ফিল্ডিং নেয়া উচিত। শ্রীলঙ্কাকে ১৪০ রানের নিচে আটকে রাখতে হবে।

পরিকল্পনামাফিক খেলতে পারলে এ ম্যাচে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে পারবে সাকিব-রিয়াদরা। তাসকিন যদি সুস্থ থাকে তাহলে তিনজন পেসার নিয়ে মাঠে নামতে হবে। তানজিম হাসান সাকিব, মোস্তাফিজুর রহমান ও তাসকিনের সঙ্গে তিন স্পিনার সাকিব আল হাসান, শেখ মেহেদী ও রিশাদ হোসেনকে খেলানো যেতে পারে। ডানহাতি-বাঁহাতি কম্বিনেশন সাজালে ওপেনিংয়ে যাবে তানজিদ হাসান তামিম ও লিটন দাস। আর যদি দুজন বাঁহাতি ব্যাটার দিয়ে ইনিংস ওপেন করানো হয় সেক্ষেত্রে তামিমের সঙ্গে সৌম্য সরকারকে নেয়া যেতে পারে। ডানহাতি-বাঁহাতি কম্বিনেশন সাজালে ওয়ানডাউনে খেলবে নাজমুল হাসান শান্ত তারপর তাওহিদ হৃদয়, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, সাকিব আল হাসান, শেখ মেহেদী, রিশাদ হোসেন, তানজিম সাকিব, তাসকিন আহমেদ ও মোস্তাফিজুর রহমান। এভাবে একাদশ সাজানো যেতে পারে।

বাংলাদেশ দলে বেশ কয়েকজন জেনুইন ব্যাটার রয়েছে। আগে ব্যাট করলে সেক্ষেত্রে টাইগারদের ১৭০ প্লাস রান করতে হবে। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে হেরে চাপে রয়েছে লঙ্কানরা। টাইগাররা ফেয়ারনেস ক্রিকেট খেলতে পারলে জয় শতভাগ নিশ্চিত। আজ গায়ানায় ভোর সাড়ে ৫টায় আফগানিস্তানের মুখোমুখি হবে নিউজিল্যান্ড। এ ম্যাচে দুদলের জয়ের সম্ভাবনা ফিফটি ফিফটি। আফগানিস্তান তাদের প্রথম ম্যাচে উগান্ডাকে ১২৫ রানের বিশাল ব্যবধানে হারিয়েছে। এ ম্যাচের মধ্য দিয়ে আফগানরা তাদের বোলিং-ব্যাটিংয়ের ভালোই অনুশীলন করেছে। নিউজিল্যান্ড এবারের বিশ্বকাপে আজই প্রথম মাঠে নামছে। শক্তির বিচারে কিউইরা এগিয়ে। নিউজিল্যান্ড পেস আক্রমণে এগিয়ে থাকলেও স্পিনে আফগানরা এগিয়ে। ব্ল্যাক ক্যাপসদের ব্যাটিংয়ে গভীরতা থাকলে আফগান টপঅর্ডারের ব্যাটাররা রান পেলে ম্যাচে ফাইট হবে। গত বছর ভারতে অনুষ্ঠিত ওয়ানডে বিশ্বকাপে নবি-রশিদরা দুর্দান্ত ক্রিকেট খেলেছে। এবার তারা গ্রুপ পর্বের বাধা পেরিয়ে সুপার এইটে যেতে সক্ষম হবে তারা।

নিউইয়র্কে রাত সাড়ে ৮টায় দক্ষিণ আফ্রিকা খেলবে নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে। উভয় দলেরই এটি দ্বিতীয় ম্যাচ। দক্ষিণ আফ্রিকা তাদের প্রথম ম্যাচে শ্রীলঙ্কা হারিয়েছে। অন্য দিকে ডাচরা তাদের প্রথম ম্যাচে নেপালকে হারিয়েছে ৬ উইকেটে। শক্তির বিচারে প্রোটিয়ারা এগিয়ে থাকলেও নেদারল্যান্ডসকে হাল্কাভাবে নেয়ার সুযোগ নেই। টি-টোয়েন্টিতে ছোট দলকে দুর্বল ভাবার কোনো সুযোগ নেই। নিজেদের দিনে ছোটদলগুলো সেরাটা দিতে পারলে ম্যাচ বের করে নিতে পারে। সহজ করে বললে বলতে হয় যারা ভুল কম করবে, ক্যাচ মিস করবে না, ভালো বোলিং ও ব্যাটিং করবে তারাই জয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে সক্ষম হবে। ডাচরা আনরিখ নরকিয়া, কাগিসো রাবাদা ও কেশব মহারাজকে আজ কীভাবে সামলায় তা-ই দেখার বিষয়। আগের ম্যাচে লঙ্কান ব্যাটাররা প্রোটিয়া বোলারদের সামনে কোমর সোজা করে দাঁড়াতে পারেনি।

বার্বাডোজে রাত ১১টায় অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে লড়বে ইংল্যান্ড। এ ম্যাচটি ফাইনালের মতো হবে। শক্তির বিচারে দুদলই সমানে সমান। কাউকে খাটো করে দেখার সুযোগ নেই। অস্ট্রেলিয়া এবং ইংল্যান্ড দুটি দলই সেরা দল। পেস আক্রমণ-স্পিন আক্রমণ সব দিক দিয়ে দুদলই সমানে সমান। ব্যাটিং আক্রমণে কারো থেকে কেউ কম নয়। তাই বলা যায় হাইভোল্টেজ ম্যাচ হবে।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App