×

এই জনপদ

পার্বতীপুর

গভীর নলকূপের সেচনালা ভেঙে পুকুর খনন

Icon

প্রকাশ: ২৯ জুন ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

মোস্তাফিজুর রহমান বকুল, পার্বতীপুর (দিনাজপুর) থেকে : পার্বতীপুরে বিএডিসির আওতাধীন কালুপাড়া কৃষক সমবায় সমিতি পরিচালিত গভীর নলকূপের সেচনালা ভেঙে পুকুর খননের কাজ শুরু করায় সেচ মৌসুমে এলাকার শতাধিক কৃষকের ইরি-বোরো চাষ অনিশ্চিত হয়ে পড়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। এদিকে পুকুর খননকাজ বন্ধে ওই সমিতির সহসভাপতি রাজু আহম্মেদ গত বুধবার বিকালে পার্বতীপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে লিখিত অভিযোগ করেছেন।

লিখিত অভিযোগে রাজু আহম্মেদ জানান, বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন করপোরেশনের উদ্যোগে ১৯৮৪-৮৫ অর্থবছরে কালুপাড়া গ্রামে একটি গভীর নলকূপ স্থাপন করা হয়। কৃষক সমবায় সমিতির মাধ্যমে প্রতি বছর বোরো মৌসুমে এলাকার শতাধিক কৃষকের প্রায় ৬০ একর জমিতে সাশ্রয়ী মূল্যে সেচ সুবিধা প্রদান করা হয়। গত মঙ্গলবার সকালে হঠাৎ কালুপাড়া কৃষক সমবায় সমিতির সভাপতি ও গ্রামের প্রভাবশালী কৃষক আইয়ুব আলী, সদস্য মিজানুর রহমানসহ তাদের সমর্থকরা গভীর নলকূপের সেচনালা ভেঙে দেয় এবং নলকূপের ঘরঘেঁষে পুকুর খননের কাজ শুরু করে। এতে ঘরটি পুকুরে ধসে পড়ার উপক্রম হয়েছে।

গভীর নলকূপের সেচ সুবিধাভোগী নাম প্রকাশ্যে অনিচ্ছুক কয়েকজন কৃষক দাবি করেন, গভীর নলকূপ বন্ধ করে এলাকায় ব্যক্তিগত সেচ যন্ত্রের বাণিজ্যিক ব্যবহার নিশ্চিত করতেই প্রভাবশালীরা গভীর নলকূপ বন্ধের চেষ্টা করছে। কালুপাড়া কৃষক সমবায় সমিতির সভাপতি আইয়ুব আলী জানান, আমি কোনো সেচ নালা ভাঙিনি, এমনকি সেচ যন্ত্র স্থাপনের জন্য কোনো আবেদনও করিনি। আমার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ সত্য নয়।

উপজেলা সেচ কমিটির সভাপতি ও পার্বতীপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফাতেমা খাতুন জানান, তদন্ত সাপেক্ষে দোষীদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App