×

এই জনপদ

নেতাকে ছাড়িয়ে নিতে থানা ঘেরাও

শৈলকুপায় পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে আহত ৩০

Icon

প্রকাশ: ১০ জুন ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

মনিরুজ্জামান সুমন, শৈলকুপা (ঝিনাইদহ) থেকে : নেতাকে ছাড়িয়ে নিতে ও ওসি প্রত্যাহারের দাবিতে শৈলকুপা থানা ঘেরাও করেছে বিক্ষুব্ধ জনতা। গতকাল রবিবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে। এ সময় ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে জনতা। পরে তাদের ছত্রভঙ্গ পুলিশ শতাধিক রাউন্ড গুলি ছোড়ে।

এ সময় পুলিশের গুলিতে আহত হন অন্তত ৩০ জন। জনতার ইটের আঘাতে থানার ওসি (তদন্ত) রিয়াজুল ইসলামসহ বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্য আহত হন। আহতদের ঝিনাইদহ ও কুষ্টিয়া সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

জানা যায়, উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের পরদিন বন্দেখালী গ্রামে বাড়িঘর ভাঙচুর ও মারামারির ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ২৩ মে মামলা দায়ের করা হয়। সেই মামলায় সাবেক ছাত্রনেতা ও ধলহরাচন্দ্র ইউনিয়নের ধাওড়া গ্রামের আওয়ামী লীগ নেতা মোস্তাক শিকদারকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তাকে ছাড়িয়ে নিতে শতশত মানুষ থানায় এসে জড়ো হয়।

এ সময় নিরীহ মানুষকে ধরে হয়রানি করা ও টাকার বিনিময়ে অপরাধীদের ছেড়ে দেয়া এবং নানা ঘুষ দুর্নীতির অভিযোগ এনে ওসি শফিকুল ইসলাম চৌধুরীকে প্রত্যাহারের দাবিতে একটি মিছিল বের করে উপস্থিত বিক্ষুব্ধ জনতা।

ওসি প্রত্যাহারের সেøাগান দিয়ে মিছিলটি এসে থানা ঘেরাও করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করতে থাকে। এ সময় তাদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ শতাধিক রাউন্ড গুলি নিক্ষেপ করে।

পুলিশের গুলিতে ধাওড়া গ্রামের ফিরোজ শিকদার, আলী আকবর, আজগর মন্ডল, তুহিন জোয়ারদার, নাফিজ, সালামত, সুইম, জান্নাত, আসাদুজ্জামান, সাইফুদ্দিন, সাত্তার শিকদার, ইমন শিকদার, আব্দুল ওহাব, ফারুক, জালালসহ অন্তত ৩০ জন আহত হন। এছাড়া ইটপাটকেলের আঘাতে শৈলকুপা থানার ওসি (তদন্ত) রিয়াজুল হাসানসহ বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্য আহত হন। গুরুতর আহতদের ঝিনাইদহ ও কুষ্টিয়া সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

শৈলকুপা থানার ওসি শফিকুল ইসলাম চৌধুরী জানান, ধাওড়া গ্রামের লোকজন থানা ঘেরাও করে আসামি মোস্তাক শিকদারকে ছিনতাইয়ে চেষ্টা করে। এ সময় তারা পুলিশকে লক্ষ্য করে থানায় ইটপাটকেল ছোড়ে।

এতে ওসি (তদন্ত) রিয়াজুলসহ বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্য আহত হন। হামলাকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ রাবার বুলেট নিক্ষেপ করলে বেশ কিছু লোকজন আহত হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ বাদী মামলা হবে বলে জানান তিনি। পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে জেলা থেকে অতিরিক্ত পুলিশ আনা হয়েছে বলে জানা গেছে।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App