×

এই জনপদ

ঈশ্বরদী

চেয়ারম্যান প্রার্থীর বিরুদ্ধে আচরণবিধি ভঙ্গের অভিযোগ

Icon

প্রকাশ: ১৮ মে ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

পাবনা প্রতিনিধি : পাবনার ঈশ্বরদী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে হিন্দু স¤প্রদায়ের ধর্মীয় অনুষ্ঠানে গিয়ে নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণা চালিয়েছেন চেয়ারম্যান প্রার্থী আবুল কালাম আজাদ মিন্টু, যা নির্বাচনী আচরণবিধির সুস্পষ্ট লঙ্ঘন বলে অভিযোগ করেছেন আরেক চেয়ারম্যান প্রার্থী এমদাদুল হক রানা সরদার। এছাড়াও ভোট না দিলে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের হুমকি দেয়ার অভিযোগ উঠেছে মিন্টুর বিরুদ্ধে। গতকাল শুক্রবার দুপুরে অভিযোগের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন সংশ্লিষ্ট উপজেলা নির্বাচনের দায়িত্বপ্রাপ্ত রিটার্নিং কর্মকর্তা ও পাবনার অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আব্দুল্লাহ আল মামুন। গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় রিটার্নিং কর্মকর্তা বরাবর লিখিত অভিযোগ দেন আনারস প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী এমদাদুল হক রানা সরদার। অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার ঈশ্বরদী পৌর এলাকার কাছারীপাড়া রেনেসা ক্লাবের পাশে শ্রী শ্রী হরে কৃষ্ণ মন্দিরে শ্রী শ্রী মহাপ্রভুর ভোগ অনুষ্ঠান চলছিল। বেলা ২টার দিকে ভোগ চলাকালে সেখানে উপস্থিত হয়ে মোটরসাইকেল প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী আবুল কালাম আজাদ মিন্টু নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণা চালান এবং সবার কাছে ভোট প্রার্থনা করেন, যা উপজেলা পরিষদ নির্বাচন আচরণ বিধিমালা-২০১৬ এর ২০ ধারার পরিপন্থি। উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মিন্টু তাকে মোটরসাইকেল প্রতীকে ভোট না দিলে নেতাকর্মীদের দল থেকে বহিষ্কার করার হুমকিও দিচ্ছেন বলে অভিযোগ উঠেছে, যা আচরণবিধির ১৮ এর ‘ক’ ও ‘ঘ’ ধারার সুস্পষ্ট লঙ্ঘন। বিষয়টি নিয়ে অভিযোগকারী চেয়ারম্যান প্রার্থী এমদাদুল হক রানা সরদার বলেন, আমি প্রমাণসহ নির্বাচন অফিসে অভিযোগ করেছি। এছাড়াও আবুল কালাম আজাদ মিন্টুর পক্ষে যেসব চেয়ারম্যান প্রচারণা করছেন তারা সরকারের ভাতাভোগী সাধারণ ভোটারদের হুমকি দিচ্ছেন। বলছেন, মোটরসাইকেল প্রতীকে ভোট না দিলে ভাতা কার্ড বাতিল করে দেয়া হবে। আবুল কালাম আজাদ মিন্টু বলেন, মন্দিরের পাশেই আমার একটি ক্লাব আছে, সেখানেই ছিলাম। ক্লাব সংলগ্ন হওয়ায় সেখানে গিয়েছিলাম। কিন্তু কোনো ভোট চাইনি। আমার বিরুদ্ধে সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে মিথ্যা ও বানোয়াট অভিযোগ করা হচ্ছে। রিটার্নিং কর্মকর্তা ও পাবনার অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App