×

এই জনপদ

পরিবেশ অধিদপ্তরে এলাকাবাসীর অভিযোগ

গাবতলীর অবৈধ ইটভাটা উচ্ছেদের দাবি

Icon

প্রকাশ: ১৬ মে ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

গাবতলী (বগুড়া) প্রতিনিধি : স্বাস্থ্যঝুঁকি থেকে রক্ষা পেতে গাবতলীর রামেশ্বরপুরের উত্তরপাড়ায় আরএসএম ইটভাটা উচ্ছেদ করার জন্য বগুড়ায় পরিবেশ অধিদপ্তর রাজশাহী বিভাগীয় কার্যালয়ে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন আশাফুদ্দৌলা সরকার পাপুল। গত সোমবার পাপুল ছাড়াও এলাকার আরো প্রায় শত মানুষ পৃথকভাবে আরেকটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন ওই দপ্তরে। পরিবেশ অধিদপ্তর রাজশাহী বিভাগীয় কার্যালয়ের পরিচালক (উপসচিব) আহসান হাবিব পৃথক দুটি লিখিত অভিযোগ পাওয়ার বিষয় স্বীকার করে বলেছেন, বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে খতিয়ে দেখে দ্রুত যথাযথভাবে ব্যবস্থা নেয়া হবে। পৃথক দুটি অভিযোগে উল্লেখ রয়েছে, উপজেলার রামেশ্বরপুর ইউনিয়নের অন্তর্গত উত্তরপাড়া এলাকায় বেশ কয়েক বছর আগে প্রভাবশালী মহলের ছত্রছায়ায় পোল্ট্রি ফার্ম, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, মসজিদসংলগ্ন স্থানে ফসলি জমি বিনষ্ট করে সংশ্লিষ্ট দপ্তরের অনুমতি ছাড়াই আরএসএম ইটভাটা স্থাপন করা হয়। এই অবৈধ ইটভাটার কারণে পরিবেশ দূষণ হওয়ায় ওই এলাকায় শিশুসহ ৪ জন মারা যান। এছাড়া অনেকে জন্ডিস, ক্যানসার, চর্মরোগ, সাইনো সাইটিস, থাইরয়েড, অ্যাজমা, শ্বাসকষ্টসহ নানা স্বাস্থ্য সমস্যায় ভুগছেন। পাশের সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কোমলমতি শিশু শিক্ষার্থীরাও চরম স্বাস্থ্যঝুঁকিতে রয়েছে। অভিযোগের সঙ্গে শিশুসহ ৩ জনের অস্বাভাবিকভাবে মারা যাওয়ার মৃত্যুর সনদ সংযুক্ত করা হয়েছে। এছাড়া আরো তথ্য দেয়া হয়েছে ওই সংযুক্তিতে। ফলে আরএসএম ইটভাটাটি জরুরিভাবে উচ্ছেদ করতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দ্রুত পদক্ষেপ গ্রহণ করতে এলাকাবাসী জোর দাবি করেছেন। এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার নুসরাত জাহান বন্যার বলেন, ওই ইটভাটা এবং শিশুসহ মৃত্যুর কোনো তথ্য বা অভিযোগ নেই আমাদের কাছে। তারপরও সার্বিক বিষয়টি খতিয়ে দেখা হবে। আরএসএম ইটভাটা মালিক পক্ষের বাবলা প্রামাণিকের সঙ্গে কথা বললে তিনি তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, অন্যরা যেভাবে ভাটা পরিচালনা করে আসছেন আমরাও ঠিক যথাযথ নিয়ম অনুযায়ী ইটভাটা পরিচালনা করছি।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App