×

অর্থ শিল্প বাণিজ্য

বিশ্বব্যাংকের পূর্বাভাস

২০২৫ সাল পর্যন্ত নি¤œমুখী থাকবে বৈশ্বিক পণ্যবাজার

Icon

প্রকাশ: ১৪ মে ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

কাগজ ডেস্ক : চলতি ও আগামী বছর বিশ্বব্যাপী পণ্যের দাম প্রান্তিকভাবে কমতে পারে। পণ্যবাজার সম্পর্কিত সর্বশেষ আউটলুকে এ পূর্বাভাস দিয়েছে বিশ্বব্যাংক। তবে চলতি ও আগামী বছর পণ্যের দাম কমলেও করোনা মহামারির আগের সময়ের তুলনায় ৩৮ শতাংশ বাড়বে বলে জানিয়েছে সংস্থাটি। খবর দ্য হিন্দু বিজনেস লাইন ২০২৪ ও ২০২৫ সালে কৃষিপণ্যের দাম কমার পূর্বাভাস দিয়েছে বিশ্বব্যাংক। সরবরাহ বৃদ্ধি ও এল নিনো অবস্থা থেকে উত্তরণের কারণে কৃষিপণ্যের দাম কমতে পারে বলে জানিয়েছে সংস্থাটি। আরো জানিয়েছে, চলতি বছর খাদ্যদ্রব্যের দাম ৬ শতাংশ ও আগামী বছর ৪ শতাংশ হ্রাস পাবে। তবে খাদ্যদ্রব্যের দাম কমলেও কৃষি কাঁচামালের দাম স্থিতিশীল থাকবে বলে আশা করা হচ্ছে। আউটলুকে বিশ্বব্যাংক স্বর্ণের দাম কমার আভাস দিলেও করোনা মহামারির আগের সময় থেকে তা ৬২ শতাংশ বেশি থাকবে। এছাড়া বিশ্বব্যাংক জ্বালানি মূল্যসূচক হ্রাসের পূর্বাভাস দিয়েছে। সংস্থাটির হিসাব অনুযায়ী, বার্ষিক ভিত্তিতে জ্বালানি মূল্যসূচক ২০২৪ সালে ৩ শতাংশ ও ২০২৫ সালে আরো ৪ শতাংশ হ্রাস পাবে। ফলে কমতে পারে কয়লা ও প্রাকৃতিক গ্যাসের দাম। তবে অন্যান্য পণ্যের দাম কমলেও চলতি বছর অপরিশোধিত তেলের দাম ২ শতাংশ বাড়বে। এছাড়া চলতি বছর স্বর্ণ ও তামার দাম যথাক্রমে ৮ শতাংশ ও ৫ শতাংশ করে বৃদ্ধি পেতে পারে বলে আউটলুকে উল্লেখ করেছে তারা। মধ্যপ্রাচ্যের যুদ্ধ পরিস্থিতি প্রধান কিছু পণ্য বিশেষ করে তেল ও স্বর্ণের দামের ওপর ঊর্ধ্বমুখী চাপ সৃষ্টি করায় এসব পণ্যের মূল্য বৃদ্ধি পেতে পারে বলে জানিয়েছে বিশ্বব্যাংক। উৎপাদন ও সরবরাহ সংকটে এরই মধ্যে ধাতবপণ্য তামার দাম দুই বছরের শীর্ষে পৌঁছেছে। বিশ্বব্যাংক জানায়, বিশ্বব্যাপী জিডিপি প্রবৃদ্ধি কম হওয়া সত্ত্বেও করোনা মহামারির আগের সময়ের তুলনায় পণ্যের দাম বেড়েছে। দাম বাড়ার পেছনে অন্যতম প্রভাবক হিসেবে কাজ করেছে ভূরাজনৈতিক উত্তেজনা। অন্যদিকে ক্লিন এনার্জি সম্পর্কিত বিনিয়োগের কারণেও বিভিন্ন ধাতুর চাহিদা বাড়ায় এসব পণ্যের মূল্য বেড়েছে। তবে বিশ্বব্যাপী চলমান সংঘাত আর না বাড়লেও চলতি বছর অপরিশোধিত তেলের দাম বাড়বে বলে পূর্বাভাস দিয়েছে বিশ্বব্যাংক। এরই মধ্যে ২০২৪ সালে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের আন্তর্জাতিক বাজার আদর্শ ব্রেন্ট ক্রুডের মূল্য ব্যারেলপ্রতি ৮৪ ডলার হয়েছে, গত বছর যা ছিল ৮৩ ডলার। অন্যদিকে বেস মেটালের দাম ২০২৪ ও ২০২৫ সালে বাড়লেও আকরিক লোহার দাম চলতি ও আগামী বছর কমে যেতে পারে।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App