×
Icon এইমাত্র
কমপ্লিট শাটডাউন কর্মসূচি চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছে কোটা আন্দোলনকারীরা বাংলাদেশ টেলিভিশনের মূল ভবনে আগুন দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। বিটিভির সম্প্রচার বন্ধ। কোটা সংস্কার আন্দোলনে সারা দেশে এখন পর্যন্ত ১৯ জন নিহত কোটা ইস্যুতে আপিল বিভাগে শুনানি রবিবার: চেম্বার আদালতের আদেশ ছাত্রলীগের ওয়েবসাইট হ্যাক ‘লাশ-রক্ত মাড়িয়ে’ সংলাপে বসতে রাজি নন আন্দোলনকারীরা

সারাদেশ

শীর্ষ করদাতা কাউছ মিয়া মারা গেছেন

Icon

প্রকাশ: ২৬ জুন ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

কাগজ প্রতিবেদক, চাঁদপুর : দেশের শীর্ষ করদাতা, প্রবীণ ব্যবসায়ী, হাকিমপুরী জর্দার মালিক ও চাঁদপুরের কৃতি সন্তান হাজি মোহাম্মদ কাউছ মিয়া মারা গেছেন। ৯৪ বছর বয়সে গত সোমবার রাত ১২টা ৪০ মিনিটে রাজধানীর আজগর আলী হাসপাতালের চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। তিনি বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছিলেন।

কাউছ মিয়ার ছেলে জাহাঙ্গীর মিয়া এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। হাজি কাউছ মিয়া দেশের সুপরিচিত হাকিমপুরী জর্দার মালিক ছিলেন। তিনি স্ত্রী, ৮ ছেলে ও ৮ মেয়ে রেখে গেছেন।

গতকাল মঙ্গলবার বাদ জোহর রাজধানীর আরমানিটোলা মাঠে মরহুমের জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। পরে তাকে আজিমপুর কবরস্থানে দাফন করা হয়। জাহাঙ্গীর মিয়া বলেন, বাবা বার্ধক্যের কারণে অসুস্থ হয়ে পড়েন। সম্প্রতি সিঙ্গাপুর মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে চিকিৎসার পর দেশে আনা হয়। পুরান ঢাকার বাসভবনে শয্যাশায়ী ছিলেন তিনি। শনিবার বিকালে শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে আজগর আলী হাসপাতালে নেয়া হয়। দুদিন চিকিৎসাধীন থাকার পর দুনিয়া থেকে চিরবিদায় নেন।

হাজি কাউছ মিয়া চাঁদপুর সদর উপজেলার রাজরাজেশ্বর ইউনিয়নের সম্ভ্রান্ত এক মুসলিম পরিবারে জন্ম নেন। তিনি দীর্ঘদিন চাঁদপুর জেলা শহরের পুরান বাজারে ব্যবসা করেন। পরে হাজীগঞ্জে, সেখান থেকে নারায়ণগঞ্জ এবং পুরান ঢাকার আরমানিটোলায় ব্যবসা করেন। হাকিমপুরী জর্দার ব্যবসার পাশাপাশি তার বিভিন্ন ধরনের ব্যবসা ছিল। ২২ বছর বয়স থেকে ব্যবসা শুরু করেন এবং টানা ৭১ বছর এককভাবে ব্যবসা পরিচালনা করেন।

চাঁদপুরের একাধিক ব্যবসায়ী জানান, হাকিমপুরী জর্দার মালিক, দেশের শীর্ষ করদাতা ও একজন দানশীল মানুষ হিসেবে হাজী কাউছ মিয়ার সুনাম ছিল দেশজুড়ে।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App