×

সারাদেশ

সড়কের দুই পাশে শতাধিক মরা গাছ, দুর্ঘটনার শঙ্কা

Icon

প্রকাশ: ০৬ জুন ২০২৪, ১২:০০ এএম

প্রিন্ট সংস্করণ

মুহাম্মদ দৌলত, ফটিকছড়ি (চট্টগ্রাম) থেকে : ফটিকছড়ির নাজিরহাট-কাজিরহাট জিসি সড়কের হারুয়ালছড়ি ইউনিয়নে সড়কে পাশে দাঁড়িয়ে আছে সারি সারি মরা গাছ। গাছগুলো এমনভাবে শুকিয়ে গেছে, হালকা বাতাসেও সড়কের উপর ভেঙে পড়ছে গাছের ডালপালা। মরা গাছগুলো দ্রুত কাটার ব্যবস্থা না করা হলে যে কোনো মুহূর্র্তে বড় ধরনের দুর্ঘটনার আশঙ্কা করছেন স্থানীয়রা।

গতকাল মঙ্গলবার সরজমিন গিয়ে দেখা যায়, হারুয়ালছড়ি ইউনিয়নের নয়াহাট বাজার থেকে কোম্পানি টিলা পর্যন্ত সড়কের দুই পাশে শতাধিক আকাশমণি ও বাবলা গাছ মরে গেছে। পাশাপাশি সড়কের সুয়াবিল ও নাজিরহাট পৌরসভা অংশে একাধিক গাছ মরে গেছে। ওই সড়কে বিগত এক মাসে মরা গাছের ডাল ভেঙে পড়ে বেশ কয়েকজন আহত হয়েছে। এ অবস্থায় প্রতিনিয়ত আতঙ্ক নিয়ে ব্যস্ততম এই সড়ক দিয়ে যাতায়াত করতে হচ্ছে পথচারীদের।

স্থানীয়দের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, প্রায় দুই দশক পূর্বে সড়কটি সংস্কারের সময় উভয় পাশে সামাজিক বনায়ন কর্মসূচির আওতায় কয়েক হাজার বিভিন্ন প্রজাতির গাছের চারা রোপণ করে উপজেলা এলজিইডি বিভাগ। তবে বিগত কয়েক বছর ধরে রোপিত গাছগুলো অজানা কারণে মরে যাচ্ছে।

জানতে চাইলে হারুয়ালছড়ি ইউপি চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন চৌধুরী বলেন, মরা গাছগুলো কাটার ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে একাধিকবার জানিয়েছি। কিন্তু আইনি জটিলতায় গাছগুলো কাটা সম্ভব হয়নি।

উপজেলা এলজিইডি প্রকৌশলী তন্ময় নাথ বলেন, নাজিরহাট-কাজিরহাট জিসি সড়কের দুই পাশে অনেক গাছ মরে গেছে। বিষয়টি ঊর্ধ্বতন মহলকে জানিয়েছি। শিগগির নিলাম কমিটির মাধ্যমে বনবিভাগের সহায়তায় মরা গাছগুলো কেটে সরানো হবে।

ক্যাপশন-

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App