×

খেলা

আয়ারল্যান্ডকে হতভম্ব করে কানাডার স্মরণীয় জয়

Icon

স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশ: ০৮ জুন ২০২৪, ১২:০০ এএম

আয়ারল্যান্ডকে হতভম্ব করে কানাডার স্মরণীয় জয়

আয়ারল্যান্ডকে হারিয়ে চলতি বিশ্বকাপে কানাডার প্রথম জয়। ছবি : ক্রিকইনফো

আয়ারল্যান্ডকে হারিয়ে চলতি বিশ্বকাপে প্রথম জয় তুলে নিল কানাডা। নাসাউ কাউন্টি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে বড় সংগ্রহ পায়নি দলটি। ব্যাটিংয়ে নেমে পাওয়ার প্লে’তে ২ উইকেট হারিয়ে স্কোরবোর্ডে রান জমা করতে করে মাত্র ৩৭। আর ১০ ওভার শেষে ৪ উইকেট হারিয়ে তারা তোলে ৬৩ রান। সেখান থেকে নিকোলাস কির্টন ও শ্রেয়াস মোভার ব্যাটে ভর করে এগোতে থাকে কানাডা।

কির্টন ৩৫ বলে ৩ চার ও ২ ছক্কায় ৪৯ রান করে আউট হন। আর মোভা ৩ চারে করেন ৩৭ রান। পঞ্চম উইকেট জুটিতে তারা দুজন দলীয় সংগ্রহে যোগ করেন ৭৫ রান। তাতে ৪ উইকেটে ৫৩ থেকে কানাডার রান ৫ উইকেটে হয় ১২৮। শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ২০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে তারা ১৩৭ রান পর্যন্ত যেতে পারে। জবাবে ব্যাট করতে নেমে দেখেশুনে শুরু করে আয়ারল্যান্ডের দুই ওপেনার অ্যান্ড্রু বালবির্নি ও পল স্টার্লিং। তবে একের পর এক উইকেট হারাতে থাকে আইরিশরা। শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ২০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১২৫ রান তুলে আইরিশরা। ফলে ১২ রানে জয় পায় কানাডা। 

আরো পড়ুন: সাত দেশের ক্রিকেটাররা খেলছেন আমেরিকায় হয়ে

লক্ষ্য তাড়ায় ব্যাট করতে নেমে দেখেশুনে খেলতে থাকেন দুই ওপেনার অ্যান্ড্রু বালবির্নি ও পল স্টার্লিং। দুজনে মিলে ওপেনিং জুটিতে স্কোরবোর্ডে জমা করেন ২৬ রান। ১৭ বলে ৯ রান করা পল স্টার্লিং জেরেমি গর্ডনের বলে শ্রেয়াস মোভার হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন। স্কোরবোর্ডে আর ৬ রান যোগ হতেই দ্বিতীয় উইকেট হারায় আয়ারল্যান্ড। অ্যান্ড্রু বালবির্নিকে আউট করেন জুনায়েদ সিদ্দিকী। ১৯ বলে ১৭ রান করেন এই ব্যাটার। হ্যারি টেক্টর আউট হন ৫ বলে ৭ রান করে। সাদ বিন জাফরের বলে বোল্ড আউট হন এই ব্যাটার। ১৫ বলে ১০ রান করা লরকান টুকার কাটা পড়েন রানআউটে।

কার্টিস ক্যাম্ফারও টিকতে পারেননি বেশিক্ষণ। আউট হওয়ার আগে তার ব্যাট আসে ৭ বলে ৪ রান। ৭ বলে ৩ রান করে আউট হন গ্যারেথ ডেলানি। এরপর মার্ক অ্যাডায়ারকে নিয়ে এগোতে থাকেন জর্জ ডকরেল। শেষ ওভারে মার্ক অ্যাডায়ারকে জেরেমি গরডন। ফেরার আগে ২৪ বলে ৩৪ রান করেন এই ব্যাটার। আয়ারল্যান্ডের হয়ে ডিলন হেইলিগার জেরেমি গরডন দুটি করে উইকেট নেন। জুনায়েদ সিদ্দিকী ও সাদ বিন জাফর ১ টি করে উইকেট নেন। 

আগে ব্যাটিংয়ে নেমে দলীয় ১২ রানেই আউট হন নাভনিত ধালিয়াল। আউট হওয়ার আগে ১০ বলে ৬ রান আসে তার ব্যাট থেকে। অ্যারন জনসনও লম্বা করতে পারেননি তার ইনিংস। ১৩ বলে ১৪ রান করে ক্রেইগ ইয়ং-এর বলে কার্টিস ক্যাম্ফারের হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন এই ওপেনার। পারগাত সিং আউট হন ১৪ বলে ১৮ রান করে। ক্রেইগ ইয়ং এর বলে জোশুয়া লিটলের ক্যাচ হয়ে ফেরেন এই ব্যাটার। দিলপ্রীত বাজওয়া দুই অঙ্গে পৌঁছানোর আগে তাকে সাজঘরে পাঠান ডেলানি।

১ রানের জন্য হাফ-সেঞ্চুরি করতে পারেননি নিকোলাস কির্টন। ৩৫ বলে ৪৯ রান করে ব্যারি ম্যাকার্থির বলে বালবির্নির হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন এই ব্যাটার। ডিলন হেইলিগার অবশ্য ২ বলের বেশি টিকতে পারেননি। শূন্য রানেই আউট হন এই ব্যাটার। শ্রেয়াস মোভা আউট হন ৩৬ বলে ৩৭ রান করে। শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৩৭ রানের লড়াকু পুঁজি পায় কানাডা।  বল হাতে আয়ারল্যান্ডের ক্রেইগ ইয়াং ও ব্যারি ম্যাককার্থি ২টি করে উইকেট নেন। ১টি করে উইকেট নেন মার্ক অ্যাডায়ার ও গ্যারেথ ডিলানি।

টাইমলাইন: টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ২০২৪

আরো পড়ুন

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App