×

খেলা

লঙ্কাকে হারিয়ে শুভ সূচনা প্রোটিয়াদের

Icon

কাগজ ডেস্ক

প্রকাশ: ০৪ জুন ২০২৪, ১২:৩৭ এএম

লঙ্কাকে হারিয়ে শুভ সূচনা প্রোটিয়াদের

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম ম্যাচ খেলতে নেমে আগুন ঝরালেন দক্ষিণ আফ্রিকার পেসাররা। ছবি সংগৃহীত

নিউ ইয়র্কের নাসাউ কাউন্টি ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সোমবার এবারের আসরে নিজেদের প্রথম ম্যাচ খেলতে নেমে আগুন ঝরালেন দক্ষিণ আফ্রিকার পেসাররা। বিশেষ করে আনরিখ নরকিয়া। এই ডানহাতি পেসারের সামনে চোখে সর্ষে ফুল দেখেছে শ্রীলঙ্কান ব্যাটাররা। তাসের ঘরের মতো ভেঙে যাওয়া ব্যাটিং অর্ডারে দুই অঙ্ক ছুঁতে পেরেছেন কেবল কুশল মেন্ডিস (১৯), কামিন্দু মেন্ডিস (১১) ও অ্যাজ্ঞেলো ম্যাথুস (১৬)। ফলে তিন অঙ্কের ঘরে পা দেবার আগেই অলআউট সিংহলিজরা।

টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত সম্পর্কে লঙ্কান অধিনায়ক জানিয়েছিলেন, ব্যাটিং উইকেট। যে কারণে প্রথমে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিলে ভালো হবে। কিন্তু লঙ্কান অধিনায়কের ধারণাকে সম্পূর্ণ ভুল প্রমাণ করেছেন দক্ষিণ আফ্রিকার বোলাররা। কিংবা শ্রীলঙ্কান ব্যাটারদের ব্যর্থতার অধিনায়কের সিদ্ধান্তকে ভুল প্রমাণ করছে। সে যাই হোক, প্রোটিয়া বোলারদের বোলিং তোপে ১৯.১ ওভারে মাত্র ৭৭ রানেই গুটিয়ে যায় লঙ্কার ইনিংস। 

২০১৬ সালে ভারতের বিপক্ষে ৮৬ রানে গুটিয়ে গিয়েছিল শ্রীলঙ্কা। ৮ বছর ধরে এটাই টি-টোয়েন্টিতে সর্বনিম্ন সংগ্রহ ছিল তাদের। সেই রেকর্ড  সোমবার ভাঙল দক্ষিণ আফ্রিকার হাত ধরে। প্রোটিয়া পেসার আনরিখ নরকিয়া ছিলেন সবচেয়ে বিধ্বংসী। ৪ ওভারে ৭ রান দিয়ে তিনি নেন ৪ উইকেট। ২টি করে উইকেট নেন কাগিসো রাবাদা এবং কেশব মহারাজ। ১টি নেন ওটনিয়েল বার্টম্যান। মাত্র ৭ রান দিয়ে ৪ উইকেট তুলে নিয়ে ম্যাচসেরার পুরস্কার জিতেছেন প্রোটিয়া পেসার আনরিখ নরকিয়া।

শ্রীলঙ্কার মামুলি ৭৭ রানের জবাবে খেলতে নেমে ১৬.২ ওভারে ৮০ রান তুলে ৬ উইকেটের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে প্রোটিয়ারা। পাল্টা জবাব দিতে নেমে শুরুটা ভাল হয়নি দক্ষিণ আফ্রিকার। দলীয় ১০ রানের মাথায় ওপেনার রেজা হেনড্রিকসের উইকেট হারায় প্রোটিয়ারা। সঙ্গী হারিয়ে বেশি ক্ষণ টিকতে পারেননি অপর ওপেনার এইডেন মার্করাম। ১৪ বলে ১২ রান করে দাসুন শানাকার বলে সাজঘরে ফিরেন তিনি।

কুইন্টন ডি কক তৃতীয় উইকেটে  ট্রিস্টান  স্টাবসের সঙ্গে বড় পার্টনারশিপ গড়ে তোলার চেষ্টা করেন। ২৮ রান যোগ করার পর এ জুটিতে ফাটল ধরান ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গা। ২৭ বলে ২০ বলে সাজঘরে ফিরেন ডি কক। এর পর  ট্রিস্টন ও হেনরিখ ক্লাসেন চেষ্টা চালিয়ে যান। ট্রিস্টান  স্টাবস  ২৮ বলে ১৩ রান করে বিদায় নিলে ক্লাসেন  ডেভিড মিলারকে নিয়ে অবশিষ্ট পথটুকু পাড়ি দেন। ক্লাসেন ২২ বলে ১৯ রানে এবং ডেভিড মিলার ৬ বলে ৬ রানে অপরাজিত থাকেন।

এর আগে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকেই প্রোটিয়া বোলারদের তেপের মুখে পড়ে লঙ্কান ব্যাটাররা। মাত্র ৩ রান করে আউট হন পাথুম নিশাঙ্কা। কুশল মেন্ডিস করেন সর্বোচ্চ ১৯ রান। কামিন্দু মেন্ডিসের ব্যাট থেকে আসে ১১ রান।

ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গা এবং সাদিরা সামারাবিক্রমা রানের খাতাই খুলতে পারেননি। ৬ রান করে বিদায় নেন চারিথ আশালঙ্কা। ১৬ রান করেন অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুস। দাসুন শানাকা আউট হন ৯ রান করে। ৭ রান আসে মহেশ থিকসানার ব্যাট থেকে। তিনি ছিলেন অপরাজিত। মাথিসা পাথিরানা, নুয়ান থুসারা আউট হন কোনো রান না করেই।

টাইমলাইন: টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ২০২৪

আরো পড়ুন

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App