×

খেলা

মেসি-সুয়ারেজদের পুনর্মিলনের রাতে মায়ামির জয়

Icon

কাগজ প্রতিবেদক

প্রকাশ: ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২:০৮ পিএম

মেসি-সুয়ারেজদের পুনর্মিলনের রাতে মায়ামির জয়

একসঙ্গে দীর্ঘদিন বার্সেলোনার হয়ে মাঠ মাতিয়েছেন মেসি, সুয়ারেজ, বুসকেটস ও জর্দি আলবারা। সেই ২০২০ সালের আগস্টে কাতালান ক্লাবটির হয়ে সর্বশেষ মাঠে নেমেছিলেন তারা। প্রায় চার বছরের মাথায় আবারও তাদের পুনর্মিলন হলো মেজর সকার লিগের ক্লাব ইন্টার মায়ামিতে।

গত মৌসুমে মেসির পর মায়ামিতে নাম লিখিয়েছিলেন বুসকেটস ও জর্দি আলবা। বৃহস্পতিবার (২২ ফেব্রুয়ারি) তাদের সঙ্গে পথচলা শুরু হলো আরেক তারকা সুয়ারেজের। চার তারকার পুনর্মিলনটা জয়ে রাঙাল মায়ামি।

মেসির সুবাদে ইন্টার মায়ামির ভক্তদের সংখ্যা এখন নেহায়েত কম না। লাইভ খেলা দেখার সুযোগ না থাকলেও অন্তত খোঁজ রাখতে ভুল করেন না অনেকেই। প্রাক-মৌসুমটা এমন সব ভক্তদের কেবল যন্ত্রণাই উপহার দিয়েছিলেন মেসি এন্ড কোং। হংকংয়ের বিপক্ষে ম্যাচ বাদে বাকি সব ম্যাচেই ড্র কিংবা হার দিয়েই শেষ করতে হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের ক্লাবটিকে। তবে হতাশা ভুলে এবার মেজর লিগ সকারে শুভসূচনা পেয়েছে ক্লাবটি।

বৃহস্পতিবার মৌসুমের প্রথম ম্যাচে সল্ট লেককে ২-০ গোলে হারিয়েছে ইন্টার মায়ামি। ঘরের মাঠ চেস স্টেডিয়ামে রবার্ট টেইলর প্রথমার্ধে দলকে এগিয়ে দেয়ার পর দ্বিতীয়ার্ধের শেষ দিকে গোল করেন ডিয়েগো গোমেজ। দুটি গোলেই অবদান ছিল মেসির। 

সল্ট লেকের বিপক্ষে মায়ামির শুরুর একাদশেই ছিলেন মেসি-সুয়ারেজ। বল দখলে শুরু থেকেই আধিপত্য ছিল মায়ামির। ম্যাচের ৩৯ মিনিটে প্রথম গোলের দেখা পায় স্বাগতিকরা। ডি-বক্সের কিছুটা বাইরে থেকে পাওয়া মেসির পাস আড়াআড়িভাবে শট নেন রবার্ট টেইলর। তার নিচু শট আটকাতে পারেননি সল্ট লেকের গোলরক্ষক। এক গোলের লিড নিয়ে বিরতিতে যায় মায়ামি।

দ্বিতীয় গোলটি আসে ম্যাচের ৮৩ তম মিনিটে। এবার মাঝমাঠ থেকে বল টেনে নিয়ে সুয়ারেজের পায়ে দেন মেসি, সেখানে সুয়ারেজ দেন গোমেজকে। প্যারাগুয়ের এই মিডফিল্ডার সহজ সুযোগ কাজে লাগিয়ে গোল করেন। তবে ম্যাচের ১৬ মিনিটে ফ্রি কিক থেকে আরেকটু হলেই গোল পেয়ে যেতেন মেসি। সল্ট লেক পোস্ট ঘেঁষে এক ডিফেন্ডারকে দাঁড় করানোয় রক্ষা। মেসির দুর্দান্ত বাঁকানো শট সেই ডিফেন্ডারের মাথায় লেগে লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়। শেষ পর্যন্ত গোলের জয় নিয়েই মৌসুমের শুরু করল ইন্টার মায়ামি।

এমএলএসে মায়ামির পরের ম্যাচ এলএ গ্যালাক্সির বিপক্ষে আগামী ২৬ ফেব্রুয়ারি।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App