মাহমুদুর রহমান মান্না : খালেদা জিয়া এখন তিলে তিলে মৃত্যুর দিকে যাচ্ছেন

আগের সংবাদ

ওমিক্রন ঠেকাতে চার সুপারিশ

পরের সংবাদ

সৈয়দ আনোয়ার হোসেন : পুঁজিবাদী ধারার কারণে বাড়ছে বৈষম্য

প্রকাশিত: নভেম্বর ২৮, ২০২১ , ১২:০০ পূর্বাহ্ণ আপডেট: নভেম্বর ২৮, ২০২১ , ১২:০০ পূর্বাহ্ণ

সিলেট ব্যুরো : পুঁজিবাদী ধারায় চলার কারণে বাংলাদেশে অর্থনৈতিক বৈষম্য বাড়ছে বলে মন্তব্য করেছেন বিশিষ্ট ইতিহাসবিদ ও বাংলা একাডেমির সাবেক মহাপরিচালক অধ্যাপক ড. সৈয়দ আনোয়ার হোসেন। গতকাল শনিবার দুপুরে সিলেট জেলা প্রশাসন আয়োজিত ‘বঙ্গবন্ধুর উন্নয়ন চিন্তা ও ২০৪১ সালের বাংলাদেশ’ শীর্ষক সেমিনারে মুখ্য আলোচকের বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন। সিলেটের কবি নজরুল অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত এই সেমিনারে সভাপতিত্ব করেন জেলা প্রশাসক এম কাজী এমদাদুল ইসলাম।
অধ্যাপক ড. সৈয়দ আনোয়ার হোসেন তার বক্তব্যে বলেন, সমতাভিক্তিক প্রবৃদ্ধিই প্রকৃত উন্নয়ন কিন্তু বাংলাদেশে ধনবৈষম্য বাড়ছে। বিশেষ করে করোনা এ বৈষম্য আরো বাড়িয়ে দিয়েছে। বিত্তবানরা আরো বিত্তশালী হচ্ছেন। দরিদ্ররা হচ্ছেন আরো দরিদ্র। এভাবে উন্নয়ন হতে পারে না। তাই উন্নয়নের জন্যে বৈষম্য কমাতে হবে। বঙ্গবন্ধু বৈষম্য কমাতে চেয়েছিলেন। তিনি বলেন, দেশে বিচার ব্যবস্থার উন্নয়ন হয়নি। এ কারণেই সাগর-রুনি হত্যার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের তারিখ ৮৩ বার পিছিয়েছে।
জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে স্মরণ করতে গিয়ে এই ইতিহাসবিদ বলেন, হেনরি কিসিঞ্জার যখন বলেছিল, বাংলাদেশ হবে একটি তলাবিহীন ঝুড়ি তখন বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশের প্রবৃদ্ধি ৭ পর্যন্ত নিয়ে গিয়েছিলেন। তাই বঙ্গবন্ধুকে চিনতে হবে, জানতে হবে, বুঝতে হবে। তাহলেই কেবল উন্নয়নের সঠিকপথে হাঁটবে বাংলাদেশ। বঙ্গবন্ধু স্বাধীনতার পাশাপাশি অর্থনৈতিক মুক্তি চেয়েছিলেন। এলক্ষ্যেই তিনি সাময়িক সময়ের জন্যে প্রবর্তন করেছিলেন বাকশাল পদ্ধতি। এর পরপরই দেশে দ্রব্যমূল্য থেকে শুরু করে সবকিছু স্বাভাবিক হয়ে গিয়েছিল।
সৈয়দ আনোয়ার হোসেন আরো বলেন, বঙ্গবন্ধুর দৃষ্টি আর অন্তরজুড়ে ছিল এ দেশের মাটি ও মানুষ। তাই সংবিধানে তিনি জনগণকে রাষ্ট্রের মালিক বলে স্বীকৃতি দিয়েছিলেন, যা আর কোথাও নেই।
অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন- ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের সাবেক অধ্যাপক শওকত আরা হোসেন ও সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মাসুক উদ্দিন আহমদ।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়