হতাশ করলেন সাব্বির : প্রস্তুতি ম্যাচে হারল বিসিবি একাদশ

বৃহস্পতিবার, ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯

খেলা প্রতিবেদক : জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে একমাত্র টি-টোয়েন্টি প্রস্তুতি ম্যাচের জন্য শুরুতে ঘোষিত দলে নাম ছিল না উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিমের। এরপরও রোডেশিয়ানদের বিপক্ষে গতকাল অনুষ্ঠিত প্রস্তুতি ম্যাচটিতে বিসিবি একাদশের হয়ে খেলেছেন তিনি। মূলত আফগানিস্তানের বিপক্ষে টেস্ট ম্যাচের উভয় ইনিংসেই ব্যাট হাতে বড় ইনিংস খেলতে না পারা মুশফিকের ছন্দে ফেরার প্রচেষ্টা এটি। অবশ্য এই প্রচেষ্টাই খুব একটা সফল হননি তিনি। মুশফিক ছাড়াও ম্যাচটিতে খেলেছেন আগামী ১৩ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হতে যাওয়া ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের জন্য ঘোষিত বাংলাদেশ দলের স্কোয়াডে থাকা আরো চারজন ক্রিকেটার। তারা হলেন- সাব্বির রহমান, আফিফ হোসেন, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন ও ইয়াসিন আরাফাত। তবে প্রত্যাশা অনুযায়ী পারফরমেন্স করতে পারেননি এদের মধ্যে কেউই। আর তাই তো ম্যাচটি হারতে হয়েছে বিসিবি একাদশকে। নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার খান সাহেব ওসমান আলী স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচটি হ্যামিল্টন মাসাকাদজার দল জিতেছে ৭ উইকেটের বড় ব্যবধানে। এই ম্যাচটিতে মূল সিরিজের স্কোয়াডে থাকা ক্রিকেটারদের হতাশাজনক পারফরমেন্স বেশ দুশ্চিতায় ফেলে দিয়েছে টাইগার সমর্থকদের। প্রশ্ন জাগছে তাহলে কি চট্টগ্রাম টেস্টের মতো আসন্ন ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজেও ভরাডুবি হতে যাচ্ছে সাকিব-মুশফিকদের। বিশ্বকাপের পর দুই মাস আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে দূরে থাকা সাইফ উদ্দিন গতকাল জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচে বিসিবি একাদশের হয়ে মাঠে নামলেও নিজের নামের প্রতি সুবিচার করতে পারেনি। ব্যাটিংয়ে ৭ বলে ৭ রান নিয়ে অপরাজিত থাকেন। আর বল হাতে ৩ ওভারে ২০ রান দিয়ে কোনো উইকেট পাননি তিনি।

বিশ^কাপে আস্থার প্রতিদান দিতে না পারা মারকুটে ব্যাটসম্যান সাব্বির রহমান আছেন ত্রিদেশীয় সিরিজের দলে। তিনিও গতকাল জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচে বিসিবি একাদশের হয়ে খেলেছেন। এ দিন ব্যাট হাতে ৩০ রান করলেও নিজের স্বভাবসুলভ ঢঙে ব্যাট চালাতে দেখা যায়নি সাব্বিরকে। ৩০ রান করতে তিনি খেলেছেন ৩১ বল, যা মোটেই সাব্বিরসুলভ নয়। জাতীয় দলের হয়ে এ পর্যন্ত ১টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলার অভিজ্ঞতা আছে আফিফ হোসেনের। ওই ম্যাচে তিনি আউট হন রানের খাতা খোলার আগেই। তবুও আফিফকে আসন্ন ত্রিদেশীয় সিরিজের দলে রেখেছে বাংলাদেশ টিম ম্যানেজমেন্ট। গতকাল বিসিবি একাদশের হয়ে প্রস্তুতি ম্যাচেও খেলেন তিনি। তবে দিতে পারেননি আস্থার প্রতিদান। আউট হন মাত্র ১০ রানে। তরুণদের মতো হতাশ করেছেন অভিজ্ঞ মুশফিকুর রহিমও। তার ব্যাট থেকে আসে ২৬ বলে ২৬ রান। জিম্বাবুয়ে ও আফগানিস্তানের বিপক্ষে আসন্ন ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের জন্য ঘোষিত ১৩ সদস্যের বাংলাদেশ দলে পেসার ইয়াসিন আরাফাতের অন্তর্ভুক্তি অবাক করেছে সবাইকে। তরুণ এই পেসার মূল লড়াইয়ের জন্য নিজেকে তৈরি করে নিতে গতকালের প্রস্তুতি ম্যাচে খেলতে নামেন। তবে বল হাতে ব্যর্থই বলা যায় তাকে। ২ ওভারে ২২ রান দিয়ে কোনো উইকেট পাননি।

ম্যাচটিতে বিসিবি একাদশকে নেতৃত্ব দেন ওপেনার সাইফ হাসান। টস জিতে আগে ব্যাটিং করতে নামে স্বাগতিকরা। অধিনায়ক সাইফের ২১, ওপেনার মোহাম্মদ নাইমের ২৩, সাব্বিরের ৩০ ও মুশফিকের ২৬ রানে ভর করে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৭ উইকেটে ১৪২ রান সংগ্রহ করে বিসিবি একাদশ। বিপরীতে ব্রেন্ডন টেইলরের অপরাজিত ৫৭, অধিনায়ক হ্যামিল্টন মাসাকাদজার ৩১ ও টিমিসেন মারুমার অপরাজিত ৪৬ রানের সুবাদে ৭ উইকেট ও ১২ বল হাতে রেখেই জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় জিম্বাবুয়ে।

রোডেশিয়ানদের বিপক্ষে একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচে টাইগার ভক্তদের নজর ছিল মূলত মুশফিক, সাব্বির, সাইফউদ্দিন, আফিফ ও ইয়াসিনের পারফরমেন্সের দিকে। কিন্তু তারা কেউই ভালো করতে পারেননি। যা মূল সিরিজের আগে টাইগারদের জন্য বিপদসংকেতই বটে।

খেলা-ধূলা'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj