নতুন গাড়িতে ঘুরতে গিয়ে প্রাণ গেল পাঁচ বন্ধুর : সবাই গোপালগঞ্জ ছাত্র ও যুবলীগ নেতা

মঙ্গলবার, ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি : বন্ধুর নতুন কেনা প্রাইভেটকারে করে ঘুরতে গিয়ে ট্রাকের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৫ জনই গোপালগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগ ও সদর থানা যুবলীগের নেতা। একসঙ্গে এই ৫ নেতার মৃত্যুর ঘটনায় গোপালগঞ্জ শহরজুড়ে নেমে এসেছে শোকের ছায়া। নিহতদের বাড়িতে চলছে আহাজারি ও শোকের মাতম। সকাল থেকেই নিহতদের বাড়িতে ভিড় করেন স্বজন ও প্রতিবেশীরা। গতকাল সোমবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে খুলনা থেকে নিহতদের লাশ গোপালগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে আনা হয়। তাদের লাশ গোপালগঞ্জ আনার খবরে ভোর থেকেই হাসপাতাল এলাকায় ভিড় জমান নিহতদের স্বজন, রাজনৈতিক নেতাকর্মী, বন্ধু ও সহপাঠীসহ সব শ্রেণি-পেশার মানুষ। সকাল সাড়ে ৭টার পর একে একে নিহতদের লাশ অ্যাম্বুলেন্সে করে পাঠানো হয়। এ সময় স্বজন, সহপাঠী ও প্রতিবেশীদের কান্নায় পরিবেশ ভারী হয়ে ওঠে। নিহতরা হলেন- গোপালগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও শহরের সবুজবাগ এলাকার এডভোকেট আব্দুল ওয়াদুদ মিয়ার ছেলে মাহবুব হাসান বাবু, একই এলাকার মৃত আলাউদ্দিন সিকদারের ছেলে ও গোপালগঞ্জ সদর থানা যুবলীগের সহসভাপতি মো. সাদিকুল আলম সাদিক, শহরের চাঁদমারী এলাকার অহিদ গাজীর ছেলে গোপালগঞ্জ সদর উপজেলা সদর ছাত্রলীগের স্বাস্থ্যবিষয়ক সম্পাদক অনিমুল গাজী, শহরের থানারপাড়ার গাজী মিজানুর রহমান হিটুর একমাত্র ছেলে ও প্রধানমন্ত্রীর অ্যাসাইনমেন্ট অফিসার গাজী হাফিজুর রহমান লিকুর ভাতিজা জেলা ছাত্রলীগের উপছাত্রবৃত্তিবিষয়ক সম্পাদক অলিদ মাহমুদ উৎস ও শহরের গেটপাড়ার আলমগীর হোসেনের ছেলে এবং জেলা ছাত্রলীগের সহসম্পাদক সাজু আহমেদ। নিহত ৪ ছাত্রলীগ নেতা গোপালগঞ্জ সরকারি বঙ্গবন্ধু কলেজের ছাত্র ছিলেন। নিহত ছাত্রলীগ নেতা মাহমুদ হাসান বাবু গোপালগঞ্জে ‘মাদককে না বলুন’ নামে একটি মাদকবিরোধী সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ছিলেন।

পরে বাদ জোহর গোপালগঞ্জ জেলা শহরের শেখ ফজলুল হক মণি স্টেডিয়াম মাঠে ছাত্রলীগ ও যুবলীগের ৫ নেতার জানাজা শেষে গোপালগঞ্জ শহরের নবীনবাগের পৌর করবস্থানে মাহবুব হাসান বাবু ও মো. সাদিকুল আলম সাদিক, শহরের গেটপাড়া পৌর কবরস্থানে জেলা অলিদ মাহমুদ উৎস, গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার ডুমদিয়া কবরস্থানে অনিমুল গাজী এবং ফকিরকান্দি কবরস্থানে সাজু আহমেদকে দাফন করা হয়।

প্রসঙ্গত, গত রবিবার বন্ধু সাদিকের নতুন কেনা প্রাইভেটকারে করে খুলনায় ঘুরতে যান ৫ বন্ধু। রাত পৌনে ১২টার দিকে খুলনা থেকে গোপালগঞ্জের উদ্দেশে ফেরার পথে রূপসা ব্রিজের কাছে লবণচরা এলাকায় পৌঁছলে মানসিক ভারসাম্যহীন এক ব্যক্তি গাড়ির সামনে এসে পড়েন। এ সময় তাকে বাঁচাতে গিয়ে মোংলা থেকে আসা সিমেন্টবোঝাই একটি ট্রাকের সঙ্গে প্রাইভেটকারটির মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই নিহত হন ওই ৫ বন্ধু।

শেষ পাতা'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj