×
Icon এইমাত্র
কমপ্লিট শাটডাউন কর্মসূচি চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছে কোটা আন্দোলনকারীরা বাংলাদেশ টেলিভিশনের মূল ভবনে আগুন দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। বিটিভির সম্প্রচার বন্ধ। কোটা সংস্কার আন্দোলনে সারা দেশে এখন পর্যন্ত ১৯ জন নিহত কোটা ইস্যুতে আপিল বিভাগে শুনানি রবিবার: চেম্বার আদালতের আদেশ ছাত্রলীগের ওয়েবসাইট হ্যাক ‘লাশ-রক্ত মাড়িয়ে’ সংলাপে বসতে রাজি নন আন্দোলনকারীরা

জাতীয়

অভ্যন্তরীণ নৌপথে লঞ্চ-ফেরিসহ সব ধরনের নৌযান চলাচল শুরু

Icon

কাগজ প্রতিবেদক

প্রকাশ: ২৮ মে ২০২৪, ০৬:৪২ পিএম

অভ্যন্তরীণ নৌপথে লঞ্চ-ফেরিসহ সব ধরনের নৌযান চলাচল শুরু

ছবি: সংগৃহীত

ঘূর্ণিঝড় রেমালের প্রভাব কেটে যাওয়ায় নৌযান মালিক-শ্রমিক ও যাত্রীদের মধ্যে স্বস্তি ফিরেছে। আভ্যন্তরীণ নৌপথ এখন পুরোপুরি স্বাভাবিক। অভ্যন্তরীণ নৌপথে লঞ্চসহ সব ধরনের যান চলাচল শুরু হয়েছে। মঙ্গলবার (২৮ মে) দুপুর ১২টা থেকে নৌযান চলাচল শুরু হয়। একইসঙ্গে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া, চাঁদপুর-শরীয়তপুর সহ অন্য রুটেও ফেরি চলাচলও শুরু হয়েছে।  

বিআইডব্লিউটিএ এর জনসংযোগ কর্মকর্তা এহতেশামুল পারভেজ জানিয়েছেন, বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় রেমালের বিরূপ প্রভাবের কারণে গত ২৫ মে রাত ১০টা থেকে অভ্যন্তরীণ নৌপথের লঞ্চ চলাচল বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছিল। এরপর থেকে কোনো লঞ্চ চলাচল করেনি। আবহাওয়া সংকেত অনুসরণ করে মঙ্গলবার দুপুর ১২টা থেকে ঢাকা নদী বন্দর থেকে অভ্যন্তরীণ নৌপথের লঞ্চগুলো পুনরায় চলাচল শুরুর অনুমতি দেয়া হয়। 

জানা গেছে, যাত্রী কম থাকলেও দুপুর পৌনে ১টা থেকেই সদরঘাট লঞ্চ টার্মিনাল থেকে লঞ্চ চলাচল শুরু হয়। ঢাকা থেকে চাঁদপুর, মুন্সীগঞ্জগামী লঞ্চগুলো যাত্রী তুলতে হাঁকডাক শুরু করে। দুপুর ১টা থেকে বিভিন্ন রুটের লঞ্চগুলো ছাড়তে শুরু করে। 

 অপরদিকে চাঁদপুর থেকেও বিভিন্ন রুটে লঞ্চ ও ফেরি চলাচল শুরু হয়। চাঁদপুর বন্দর ও পরিবহন কর্মকর্তা মোহাম্মদ নাহিদ হোসেন বলেন, ঘূর্ণিঝড় রেমালের কারণে বিআইডব্লিউটিএ এর নির্দেশে শনিবার রাত ১২টা থেকে  সব ধরনের নৌযান চলাচল বন্ধ রাখা হয়। মঙ্গলবার দুপুরে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়া হয় এবং দুপুর ১টা থেকে চাঁদপুর-ঢাকা ও চাঁদপুর-নারায়ণগঞ্জসহ সব রুটে লঞ্চ চলাচল শুরু হয়েছে।

একইসঙ্গে চাঁদপুর হরিণা ফেরিঘাট থেকে ফেরি চলাচল পুনরায় শুরু হয়েছে। বিআইডাব্লিউটিসি চাঁদপুর হরিণা ফেরিঘাটের ম্যানেজার (বাণিজ্য) ফয়সাল আলম চৌধুরী জানিয়েছেন, ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাব কেটে যাওয়ায় পর ফেরিঘাটের ক্ষতিগ্রস্ত পন্টুনগুলো মেরামত করে দুপুর ১টায় চাঁদপুর-শরীয়তপুর নৌরুটে ফেরি চলাচল শুরু হয়। 

নৌরুটে নৌযান চলাচলে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়ার পর বরিশাল, পটুয়াখালী, ভোলা থেকেও লঞ্চ চলাচল শুরু হয়েছে। যদিও বরিশাল নদী বন্দরের জন্য দুই নম্বর সতর্কতা সংকেত রয়েছে। তারপরও সার্বিক আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় রাতে এসব নৌবন্দর থেকে লঞ্চ ছেড়েছে। বরিশাল-ভোলা নৌরুটেও দুপুরের পর লঞ্চ ও স্পীডবোট চলাচল শুরু হয়েছে। 

দৌলদিয়া-পাটুরিয়া ও দৌলতদিয়া-কাজিরহাট নৌরুটেও ফেরি চলাচল শুরু হয়েছে। ঘূর্ণিঝড় রেমেলের প্রভাব পুরোপুরি কেটে যাওয়ায় চট্টগ্রাম বন্দরের জেটিতে জাহাজ ভিড়েছে। বহির্নোঙরে থাকা ১১টি জাহাজ মঙ্গলবার আবার বন্দরের জিসিবি, সিসিটি ও এনসিটি জেটিতে ভিড়েছে। এই জাহাজগুলো বন্দরের জেটিতে ভেড়ার পর জেটিতে আবার কর্মচাঞ্চল্য শুরু হয়েছে। জাহাজ থেকে মালামাল খালাশ শুরু হয়েছে। 

ঘূর্ণিঝড় রেমালের খবর পাওয়ার পর এই জাহাজগুলোকে বন্দর থেকে বহিনোঙরে পাঠিয়ে দেয়া হয়। এর ফলে রবিবার ও সোমবার বন্দরের জেটি জাহাজশুন্য ছিলো। বন্দরের বিপদসংকেত উঠিয়ে নেয়ার পর মঙ্গলবার কর্ণফুলী নদীর হাইটাইডে বন্দরের নিজস্ব ও অভিজ্ঞ পাইলটের তত্ত্বাবধানে শক্তিশালী টাগ বোটের সাহায্যে এসব জাহাজ আবার বন্দরে ফিরিয়ে আনা হয়। মংলা বন্দরের জিটিতেও জাহাজ ভিড়েছে এবং পণ্য খালাস শুরু হয়েছে। 

টাইমলাইন: ঘূর্ণিঝড় রেমাল

আরো পড়ুন

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App