×

আন্তর্জাতিক

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে চ্যালেঞ্জ জানালেন অমিত শাহ

Icon

কাগজ ডেস্ক

প্রকাশ: ১৪ মে ২০২৪, ০৭:৫৭ পিএম

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে চ্যালেঞ্জ জানালেন অমিত শাহ

ছবি: সংগৃহীত

পঞ্চম দফার ভোটের প্রচারে মঙ্গলবার (১৪ মে) পশ্চিমবঙ্গে এসেছেন ভারতের কেন্দ্র সরকারের মুখ্যমন্ত্রী অমিত শাহ। একই দিনে দুটি জনসভার যোগ দেয়ার কথা রয়েছে তার। প্রথমটি অনুষ্ঠিত হচ্ছে বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্রে। সেখানে বিজেপি প্রার্থী শান্তনু ঠাকুরের সমর্থনে সভার আয়োজন করা হয়েছে।

সভায় অমিত শাহ বলেন- ‘এই অনুব্রত মণ্ডল, কুণাল ঘোষ, তাপস পাল এরা সবাই কোটিপতি হয়েছেন। কেউ চাকরি দেয়ার কথা বলে টাকা নিয়েছে, কেউ আবার করেছে গরু পাচার, কেউ কয়লা পাচার মামলায় জেলে গেছেন। 

শাহ বলেন- ‘আমাকে বলুন, আপনারা কেউ জীবনে একসঙ্গে ৫০ কোটি টাকা দেখেছেন? এদের এক মন্ত্রীর কাছ থেকে ৫০ কোটি টাকা বেরোয়। আমি মমতাদিদিকে বলছি, এই ৫০ কোটি টাকা কার? ওই মন্ত্রীকে জেলে ঢোকানো উচিত নয় কি? মমতাদিদি, এই তো শুরু।’

মোদির হাতে দেশ সুরক্ষিত রয়েছে মন্তব্য করে অমিত শাহ বনগাঁওয়ে ভোটারদের কাছে শান্তনু ঠাকুরের সমর্থনে ভোট প্রার্থনা করেন। তিনি বলেন- ‘আপনারা শান্তনু ঠাকুরকে জেতাবেন তো? 

অমিত শাহ আরো বলেন- ‘মমতাদিদি যদি বাংলার জন্য কিছু করে থাকেন, সেটা হল অনুপ্রবেশকারী এবং দুর্নীতিকারীদের মদদ দেয়া। এখন মমতাদিদি ইভিএম গড়বড়ের অভিযোগ করছেন। মমতাদিদি, আপনি যখন জিতেছিলেন, তখন এই  ইভিএম-ই ছিল।’

অনুব্রত মণ্ডলের নাম নিয়ে কটাক্ষ করেছেন অমিত শাহ। তার কথায়- ‘এঁদের জেলে ভরা উচিত কি না? মমতাদিদি বলছেন, কেন জেলে ভরলেন। আমি বলি, মমতাদিদি এই তো শুরু। নিয়োগ দুর্নীতি, কয়লা দুর্নীতি, গরু পাচার দুর্নীতিতে জড়িত কাউকে ছাড়া হবে না। সবাইকে জেলে যাওয়ার জন্য তৈরি হতে হবে।’

অমিত শাহ বললেন, দেশে এমন কোন শক্তি নেই যে সিএএকে আটকাবে। নাম করে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে আক্রমণ করেন। কটাক্ষ করেন কংগ্রেসকে। পাশাপাশি, রামমন্দির তৈরি নিয়ে শাহ বলেন, নিমন্ত্রণ করা সত্ত্বেও রামমন্দির উদ্বোধনে যাননি রাহুল গান্ধী এবং মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কারণ, তাদের ভোটব্যাঙ্কের কারণে। তাদের ভোটব্যাঙ্ক অনুপ্রবেশকারীরা, আপনারা নন।

সিএএ নিয়ে  মানুষকে বিভ্রান্ত করছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এমনই অভিযোগ করলেন অমিত শাহ। বললেন- মমতাদিদি আপনার সময় সমাপ্ত হয়ে এসেছে। মতুয়ারা নাগরিকত্ব পাবেনই। কেউ আটকাতে পারবেন না। এ পর্যন্ত ৩৮০টি লোকসভা আসনে ভোট হয়েছে। অমিত শাহের দাবি, ইতিমধ্যে ২৭০ আসনে জয়ী মোদী। বাংলা থেকে ৩০টি আসনে জয়ী করার কথাও বলেন।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App