×

সারাদেশ

রামেকে রোগীর ছেলেকে নির্যাতন, ২ চিকিৎসক বরখাস্ত

Icon

কাগজ ডেস্ক

প্রকাশ: ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০৮:২৪ এএম

রামেকে রোগীর ছেলেকে নির্যাতন, ২ চিকিৎসক বরখাস্ত

রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রোগীর ছেলেকে শারীরিকভাবে নির্যাতনের ঘটনায় দুই ইন্টার্ন চিকিৎসককে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। এছাড়া ঘটনা তদন্তে পাঁচ সদস্যবিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি করেছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। তদন্ত কমিটিকে তিন কার্যদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে। সাময়িক বরখাস্ত হওয়া দুই ইন্টার্ন চিকিৎসক হলেন- ফরহাদ হাসান ও আলমগীর হোসেন। তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত তারা বরখাস্ত থাকবেন।

প্রসঙ্গত, বুধবার (৭ ফেব্রুয়ারি) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে হাসপাতালের ৪৯ নম্বর ওয়ার্ডের ইন্টার্ন চিকিৎসকদের কক্ষে রিপনকে মারধরের ঘটনা ঘটে। ভুক্তভোগী রিপনের বাড়ি রাজশাহী মহানগরীর বোসপাড়া মহল্লায়। রিপনের মা পিয়ারা বেগম (৬০) গত শুক্রবার থেকে ৪৯ নম্বর ওয়ার্ডের রোগী ছিলেন।

এর আগে ‘আর মাইরেন না স্যার, আর মাইরেন না। আমাকে বের করে দেন, আমাকে বের করে দেন স্যার। আমার আম্মু মরি যাবে স্যার।’ সুমন পারভেজ রিপনের (২৮) এমন আকুতির ১ মিনিট ৪৯ সেকেন্ডের একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়। 

এসময় চিকিৎসকদের রিপনকে অশ্লীল ভাষায় গালাগাল করতে শোনা যায়। এক পর্যায়ে একজন চিকিৎসক বলেন, “বল মাফ চাইছস। তখন রিপন বলেন, “হ মাফ চাইছি।” এরপরও রিপনকে মারধরের শব্দ শোনা যায়। তার মাথা ন্যাড়া করে দিতে চান। এছাড়া ‘চিকিৎসকদের মারতে চাওয়ায়’ রিপনের হাত কেটে নিতে চান। ওই ভিডিও ও মারধরের ব্যাপারে ইন্টার্ন চিকিৎসকদের বক্তব্য পাওয়া যায়নি। গত দুই বছর ধরে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ইন্টার্ন চিকিৎসকদের কোনো কমিটি নেই।

রামেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এএফএম শামীম আহম্মদ বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, এ ঘটনার পর তদন্ত কমিটি ইতোমধ্যে কাজ শুরু করেছে। তদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পরে এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়া হবে।

সাবস্ক্রাইব ও অনুসরণ করুন

সম্পাদক : শ্যামল দত্ত

প্রকাশক : সাবের হোসেন চৌধুরী

অনুসরণ করুন

BK Family App