কম দামে সার আমদানি করছে সরকার

আগের সংবাদ

সঠিক সন্ধান পেলে টুইটার বিক্রি করবেন ইলন মাস্ক

পরের সংবাদ

মির্জা ফখরুলের মন্তব্য

সারের মূল্যবৃদ্ধি মরার ওপর খাঁড়ার ঘা

প্রকাশিত: এপ্রিল ১২, ২০২৩ , ১০:৪২ অপরাহ্ণ আপডেট: এপ্রিল ১৩, ২০২৩ , ৪:২৬ পূর্বাহ্ণ

আন্তর্জাতিক বাজারে সারের মূল্যবৃদ্ধির ‘অসত্য তথ্য’ দিয়ে আবারো সারের দাম বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত কৃষক ও জনস্বার্থবিরোধী বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, বিশ্ব বাজারে ইউরিয়া সারের দাম ৬২ শতাংশ, ডিএপির ২৪ শতাংশ ও টিএসপির ২৫ শতাংশ দাম কমলেও সারের দাম বৃদ্ধি কৃষকের সঙ্গে প্রতারণার শামিল। নিজেদের ব্যর্থতা আড়াল করতে আবার সারের মূল্যবৃদ্ধি মরার ওপর খাঁড়ার ঘাঁ।

এ সময় অবিলম্বে জনস্বার্থবিরোধী কর্মকাণ্ড থেকে সরে আসাসহ সারের বর্ধিত মূল্য প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব। ইউরিয়া, টিএসপি, ডিএপি ও এমওপি সারের দাম কেজিতে ৫ টাকা বাড়ানোর সরকারি সিদ্ধান্তর প্রতিবাদ জানিয়ে বুধবার (১২ এপ্রিল) এক বিবৃতিতে এসব কথা বলেন তিনি।

মির্জা ফখরুল বলেন, এমনিতে সরকারের দুর্নীতি, লুটপাট, ভ্রান্তনীতি, অপরিণামদর্শী সিদ্ধান্ত, অব্যবস্থাপনা, সমন্বয়হীনতায় নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্যের লাগামহীন ঊর্ধ্বগতি, অর্থনৈতিক সঙ্কট, ব্যবসা-বাণিজ্যে মন্দা, কাজ হারানোর ফলে মানুষ বিপর্যস্ত। এখন আবার নতুন করে সারের দাম বৃদ্ধিতে কৃষকসহ জনসাধারণ দিশেহারা। সরকারের সারের মূল্যবৃদ্ধির গণবিরোধী সিদ্ধান্তের ফলে কৃষক ও জনসাধারণ তীব্র সংকটে পড়বে।

তিনি আরো বলেন, অর্থনীতিতে সরকারের ভ্রান্তনীতির কারণে দেশের অর্থনীতি ধ্বংসপ্রায়। এখন ধ্বংসের মুখোমুখি অর্থনীতিকে জোড়াতালি দিতে জনগণের ওপর ছুরি চালাচ্ছে ভোটারবিহীন সরকার। তথাকথিত উন্নয়নের ভেলকিবাজীতে দেশের মানুষ এখন দিশেহারা হয়ে পড়েছে। জনগণের পকেট কাটতে নানা ফন্দি-ফিকির চালিয়ে একের পর এক গণবিরোধী সিদ্ধান্ত নিচ্ছে অবৈধ সরকার। দেশের শতকরা ৮০ ভাগ জনগোষ্ঠী কৃষির ওপর নির্ভরশীল। কৃষকরা লোকসানে পড়ে কৃষি উৎপাদনে উৎসাহ হারিয়ে ফেলছে। কৃষকরা কৃষি উৎপাদন থেকে মুখ ফিরিয়ে নিলে দুর্ভিক্ষ সৃষ্টি হবে। সেটি হবে দেশের সব জনগোষ্ঠীর জন্য বিরাট অশনি সংকেত।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, বৈশ্বিক মন্দা ও আন্তর্জাতিক বাজারের দোহাই দিয়ে একের পর এক জনস্বার্থবিরোধী কর্মকাণ্ড করছে নিশিরাতের ভোটের সরকার। জনগণের ভোটে নির্বাচিত নয় বলেই জনগণের নিকট তাদের কোনো জবাবদিহিতা নেই ও তারা জনস্বার্থের কথা চিন্তাও করে না।

অপর এক বিবৃতিতে মির্জা ফখরুল ইসলাম ‘মিথ্যা ও রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত’ মামলায় জামিনে মুক্তিলাভের পরও ঢাকা মহানগর উত্তর স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক আজিজুর রহমান মুসাব্বিরকে কেরানীগঞ্জ জেলগেট থেকে গ্রেপ্তার করার ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন। জামিনে মুক্তিলাভের পরও প্রতিনিয়ত দেশব্যাপী বিএনপি নেতাকর্মীদেরকে জেলগেট থেকে গ্রেপ্তার বন্ধ এবং অবিচার-অনাচার বন্ধের আহ‌বান জানিয়ে তিনি বলেন, বর্তমান অবৈধ সরকারের ভয়াবহ দুঃশাসন ও অনাচারের করাল গ্রাস থেকে দেশকে এখনই মুক্ত করতে না পারলে জাতি হিসেবে অস্তিত্ব বিলীন হয়ে যাবে।

ডি- এইচএ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়