সিলেটে বিএনপির সমাবেশ শুরু, নেতাকর্মীদের ঢল

আগের সংবাদ

সৌমিত্রহীন দুই বছর

পরের সংবাদ

বিশ্বকাপ উন্মাদনায় ঢালিউড

প্রকাশিত: নভেম্বর ১৯, ২০২২ , ১১:১৪ পূর্বাহ্ণ আপডেট: নভেম্বর ১৯, ২০২২ , ১১:১৭ পূর্বাহ্ণ

ফুটবল বিশ্বকাপ শুরু হতে যাচ্ছে কাল। এই খেলাকে কেন্দ্র করে বাংলাদেশেও বইছে উন্মাদনার ঝড়। এদেশের ফুটবলপ্রেমীদের ৮০ ভাগই আর্জেন্টিনা, ব্রাজিল, মেসি আর নেইমারের ভক্ত। এই বিশ্বকাপ উন্মাদনায় গা ভাসিয়েছেন আমাদের শোবিজ তারকারাও। ঢাকাই ইন্ডাস্ট্রির সেলিব্রিটিদের পছন্দের দল ও তাদের ভাবনা নিয়ে লিখেছেন নেমিয়ান লিও

জাহিদ হাসান
দুই পর্দার জনপ্রিয় এই অভিনেতা ছোটবেলা থেকেই সমর্থন করেন আর্জেন্টিনাকে। ফুটবল ভালোবাসেন। সময় পেলে খেলা দেখেন। বিশ্বকাপের খেলাগুলোও মিস করবেন না।

ওমর সানী-মৌসুমী
ঢালিউডের জনপ্রিয় এই তারকা দম্পতি দুজনেই পেলের দেশ ব্রাজিলের সমর্থক। ব্রাজিলের জার্সি পরে ছবি তুলে সামাজিক মাধ্যমে তা প্রকাশও করেন কোপা আমেরিকা এবং বিশ্বকাপ আসরের সময়। যদিও এবারের বিশ্বকাপ উপলক্ষে এখনো তারা কোনো ছবি পোস্ট করেননি।

তিশা-ফারুকী
এই তারকা দম্পতি আবার ভিন্ন ভিন্ন দলের সমর্থক। নির্মাতা মোস্তফা সরয়ার ফারুকী ব্রাজিল সমর্থন করেন। তবে তার স্ত্রী অভিনেত্রী নুসরাত ইমরোজ তিশা লিওনেল মেসির আর্জেন্টিনার একনিষ্ঠ ভক্ত। তবে সংসার জীবনে দুই তারকা এক ও অভিন্ন।

চঞ্চল চৌধুরী
অপু বিশ্বাসের মতো একই ঘটনা জনপ্রিয় অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী ও তার ছেলে শুদ্ধর ক্ষেত্রে। চঞ্চল চৌধুরী আর্জেন্টিনার সমর্থক। এর প্রভাব পড়েছে সন্তানের ওপর। বাবাকে দেখে ছেলেও আর্জেন্টিনা সমর্থন করা শুরু করেছে।

নিপুন আক্তার
ঢাকাই সিনেমার আলোচিত চিত্রনায়িকা নিপুন আর্জেন্টিনা দল সমর্থন করেন। দলটির সেরা তারকা ও ৭ বারের ব্যালন ডি’অর জয়ী লিওনেল মেসির ভক্ত তিনি। আর্জেন্টিনা সমর্থন কেন করেন- এই প্রশ্নের উত্তরে নিপুন বলেন, ‘ম্যারাডোনার কারণে। ছোটবেলা থেকেই ফুটবল মানে ম্যারাডোনাকেই দেখে আসছি। যে কারণে আর্জেন্টিনার ভক্ত আমি। সেখান থেকেই আর্জেন্টিনাকে ভালো লাগা। মেসি শিরোপা পাক বা না পাক আমি সব সময় আর্জেন্টিনা দল সাপোর্ট করে যাব। আসলে ছোটবেলা থেকেই আমি আর্জেন্টিনা সমর্থন করে আসছি। আমি মেসির ভক্ত।

শাকিব খান
আগ্রহ তৈরি হয়েছে মূলত শাকিব খানের আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিলের জার্সি পরিহিত দুটি ছবির কারণে। একটি ছবিতে দেখা যায় তিনি আর্জেন্টিনার জার্সি পরে আছেন আবার অন্যটিতে ব্রাজিলের জার্সি পরেছেন। বিষয়টি নিয়ে শাকিব খান বলেন, শাকিবিয়ানদের পছন্দকে আমি সবসময় প্রায়োরিটি দিই। শাকিবিয়ানরা যাদের পছন্দ করে, আমিও তাদের সমর্থন করি। এর আগে ২০১৪ সালে শাকিব খান বলেছিলেন, ব্রাজিলের সমর্থন করেন তিনি। ছোটবেলা থেকেই ব্রাজিলের সমর্থক। ২০১৮ সালের বক্তব্যে আর্জেন্টিনা। ২০২২ সালের বক্তব্য কী? সবশেষ তিনি একটি কোম্পানির অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে বুঝিয়ে দিয়ে যান এবারের বিশ্বকাপে তিনি ব্রাজিলের সাপোর্টার।

অপু বিশ্বাস
জনপ্রিয় এই নায়িকা ছোটবেলা থেকেই ব্রাজিলের সমর্থক। একসময় না বুঝে ব্রাজিল সাপোর্ট করতেন। এখন তিনি সাপোর্ট করেন খেলা বুঝে। এ কথা সম্প্রতি তিনি নিজেই জানান। তবে ছেলে আব্রাম খান জয়কেও আর্জেন্টিনার জার্সি পরিয়ে বানিয়েছেন দলটির সমর্থক।

আসিফ আকবর
আমরা যারা বনেদী ব্রাজিল সমর্থক আছি, ব্রাজিলীয় ঐতিহ্যের সাম্বা ফুটবলকেই ভালোবাসি। বিশ্বকাপ দরজায়, একজন ব্রাজিলিয়ান সাপোর্টার হিসেবে সব সময়ের মতো আমার প্রথম সিদ্ধান্ত কোনো আর্জেন্টাইন সাপোর্টারের সঙ্গে তর্ক করব না। এমনিতেও মিনিমাম কাছাকাছি যোগ্যতাসম্পন্ন না হলে কারও সঙ্গে তর্কও করি না। ব্রাজিল দ্য অ্যা টিম হিসেবে খেলে, যে কোনো ব্যক্তিগত ক্যারিশমা এই দলের একটা হালকা উপলক্ষ মাত্র।
সঠিকভাবে খেললে দল হিসেবে আর্জেন্টিনা শক্তিশালী এবং বিশ্বকাপের দাবিদার, এ রকমভাবে বাকি দলগুলোও জেতার জন্য খেলতে আসে। আমার এ

মন্তব্যে খুশি হয়ে থাকলে কোনো আর্জেন্টাইন সাপোর্টার আমাকে ব্রাজিল দল সাপোর্ট করা নিয়ে বেমক্কা মতামত দিয়ে বিব্রত করবেন না প্লিজ।

জয়া আহসান
আমি বরাবরই ব্রাজিল সমর্থন করি। তাদের খেলা আমার ভালো লাগে। ব্রাজিলের খেলা যে সময়ই হোক কষ্ট করে হলেও দেখার চেষ্টা করি। এবারও তার ব্যত্যয় হবে না। আমি চাই প্রিয় দল ব্রাজিল এবার বিশ্বকে তাক লাগিয়ে বিশ্বকাপ বিজয়ী হোক।

আরিফিন শুভ
ছোটবেলা থেকেই আমি আর্জেন্টিনার সাপোর্টার। আমার পছন্দের খেলোয়াড় মেসি। প্রতিবারই আমি বিশ্বকাপের খেলাগুলো দেখার চেষ্টা করি। আর্জেন্টিনা ও মেসির শৈল্পিক খেলাগুলো মিস করতে চাই না। এবারও মিস করব না। প্রিয় টিম আর্জেন্টিনার জন্য শুভ কামনা।

এর বাইরে আরও অনেক তারকা আছেন, ফুটবল বিশ্বকাপ নিয়ে যাদের উন্মাদনার শেষ নেই। যদিও সেভাবে এখনো তেমন কেউ তাদের পছন্দের দলের কথা সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার করেননি। ফুটবল বিশ্বকাপ শুরু হলে হয়তো সবাই এক এক করে নিজেদের ভালো লাগার কথা জানাবেন।

জিয়াউল ফারুক অপূর্ব
ছোটপর্দার জনপ্রিয় জিয়াউল ফারুক অপূর্ব সমর্থন করেন ব্রাজিলকে। হলুদ জার্সি পরে টিভি স্ক্রিনের সামনে থাকবেন প্রতীক্ষিত ফুটবল বিশ্বকাপ দেখতে। ফুটবল নিয়ে অপূর্বর বিশেষ উন্মাদনা দেখা গিয়েছিল গত কোপা আমেরিকার আসরেও।

বিদ্যা সিনহা মিম
সময়ের আলোচিত নায়িকা ২০০৬ সাল থেকে নিয়মিত খেলা দেখে অভ্যস্ত অভিনেত্রী বিদ্যা সিনহা মিম। তার পছন্দের দল ব্রাজিল। বিশ্বকাপের একটি খেলাও দেখা মিস করবেন না তিনি।

মাহিয়া মাহি
বর্তমান সময়ের আলোচিত এক নাম। তিনি পছন্দ করেন আর্জেন্টিনা। মেসির এই ভক্ত জানালেন সব মিস হলেও পছন্দের খেলা একদমই মিস হবে না। দেখা যাবে কে জিতে আর কে হারে। আমি মাঠের খেলায় বিশ্বাসী।

পরীমনি
আলোচিত এই নায়িকাও আর্জেন্টিনার সমর্থক। তবে তিনি ব্রাজিলিয়ান স্ট্রাইকার নেইমারকে পছন্দ করেন। এ নিয়ে তার নিজস্ব দর্শন রয়েছে। তিনি বলেন, ‘আমি ফুটবল খেলাটাকে ভালোবাসি। কোনো দলাদলি বা তর্কে যাইনি কখনো। সাপোর্টার তো হতেই পারি, তাই বলে অন্য দল নিয়ে তর্কাতর্কির মধ্যে নেই।’

পূজা চেরি
এক কথায় আর্জেন্টিনা সাপোর্ট করি। আমার একটাই দল- আর্জেন্টিনা। আর কোনো দলকে সমর্থন করব না। যদি আর্জেন্টিনা হেরে যায় টিভি বন্ধ করে দেব। খেলা দেখব না। কথা শেষ। আর্জেন্টিনার বাইরে আর কোনো দল নাই।

যখন থেকে খেলা বুঝি তখন থেকেই আর্জেন্টিনাকে সমর্থন জানাচ্ছি। বিশেষ করে লিওনেল মেসির ভক্ত আমি। আর আমার মায়ের কাছে শুনেছি ম্যারাডোনার কথা। তখন খেলা দেখেছি। তারও ভক্ত আমি। মার্কো রহো আর ডি মারিয়ার খেলা দেখেও নিজেকে তরতাজা লাগে। তাই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কে কী বলল তা নিয়ে মাথা ঘামাই না। খেলা তো খেলাই। অনেকে মজা নিতে চাইবে। তাদের নিতে দিন। যা হওয়ার ম্যাচে হবে।

কিন্তু দল কিন্তু আমার একটাই। সেটা হচ্ছে আর্জেন্টিনা। এ নিয়ে আর কোনো কথা হবে না। অনেকেই অনেক কথা বলে কিন্তু মাঠের খেলাটাই হচ্ছে আসল। তাই খেলার আগে পছন্দ থাকবেই কিন্তু এ নিয়ে বেশি তর্ক করা যাবে না। মাঠে বল গড়ালেই বোঝা যায় কে বেশি ভালো খেলে। জিতুক কিংবা হেরে যাক আমি আর্জেন্টিনাকেই সাপোর্ট করি।

এমকেএইচ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়