ভারতীয় একাদশে আসতে পারে চমক

আগের সংবাদ

সবুজ কারখানার স্বীকৃতি পেল আরো ২ প্রতিষ্ঠান

পরের সংবাদ

চুরি দেখে ফেলায় খুন হন মা ও দুই সন্তান

প্রকাশিত: অক্টোবর ৩, ২০২২ , ৮:৩১ অপরাহ্ণ আপডেট: অক্টোবর ৩, ২০২২ , ১১:১৬ অপরাহ্ণ

সিরাজগঞ্জের বেলকুচি উপজেলায় টাকা চুরি দেখে ফেলায় মা ও তার দুই সন্তানকে হত্যা করে পালিয়ে যায় আইয়ুব আলী। এ ঘটনায় অভিযুক্ত আয়ুব আলীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার (৩ অক্টোবর) দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে সিরাজগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার আরিফুর রহমান মণ্ডল বিষয়টি জানিয়েছেন। এর আগে গত শনিবার (১ অক্টোবর) বেলকুচি উপজেলার ধুকুরিয়াবেড়া ইউনিয়নের মবুপুর গ্রাম থেকে মা ও দুই সন্তানের অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। প্রাথমিকভাবে এটি হত্যাকাণ্ড মনে হলেও কোন ক্লু ছিল না। পরবর্তীতে নানা প্রযুক্তি কাজে লাগিয়ে জেলার উল্লাপাড়া থেকে অভিযুক্ত আইয়ুব আলী ওরফে সাগরকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

সাগরের জবানবন্দীর বরাত দিয়ে পুলিশ সুপার আরিফুর রহমান আরও বলেন, ‘আইয়ুব আলী সাগর পেশায় একজন তাঁত শ্রমিক। ঋণগ্রস্ত হওয়ার কারণে তিনি হতাশাগ্রস্ত হয়ে পড়েন। ঋণের কিস্তির টাকা সংগ্রহের জন্য ২৬ সেপ্টেম্বর সৎ খালা রওশন আরার বাড়িতে যান। কিন্তু টাকা না পেয়ে ফেরত আসেন। পরবর্তীতে তিনি ঋণ পরিশোধ করার জন্য চুরির উদ্দেশ্যে ২৮ সেপ্টেম্বর খালার বাড়িতে আসেন এবং রাতে খাবার খেয়ে একসঙ্গে ঘুমিয়ে পড়েন।

রাত গভীর হলে খালার কাছ থেকে চাবি চুরি করে বাক্সের ভেতর থেকে টাকা ও সোনা খোঁজাখুঁজি করতে থাকেন। খালা রওশন আরা জেগে উঠলে শিল দিয়ে বুকে আঘাত করেন। পরে শ্বাসরোধ করে মৃত্যু নিশ্চিত করেন। এ সময় ছোট ছেলে মাহিন (৩) কান্নাকাটি করলে তারও গলা টিপে হত্যা করেন। পরে আরেক ছেলে সাজিদকে (১০) ঘুমের মধ্যে তাকে গলা টিপে হত্যা করেন। পরে সকাল হলে ঘরে তালা দিয়ে পালিয়ে যান। অভিযুক্ত আইয়ুব আলী সাগরকে আদালতে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান পুলিশ সুপার।

এমকে

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়