ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে ‘হটস্পট ম্যানেজমেন্ট’ জরুরি

আগের সংবাদ

তরুণদের পাশাপাশি শিশুরাও আক্রান্ত হচ্ছে হৃদরোগে

পরের সংবাদ

স্বপ্ন পূরণের জাদুকরের জন্মদিন উদযাপন

এবার লক্ষ্য স্মার্ট বাংলাদেশ

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২২ , ৮:৫২ পূর্বাহ্ণ আপডেট: সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২২ , ৮:৫২ পূর্বাহ্ণ

ঘাতকের বুলেটে পিতামাতা হারানো সংগ্রামী এক উপাখ্যানের নাম- শেখ হাসিনা। দেশের সীমানা পেরিয়ে বহির্বিশ্বে স্বীকৃতি পেয়েছেন সফল রাজনীতিক আর রাষ্ট্র নায়কের। রাজনীতির মাঠে এই ‘নিঃসঙ্গ শেরপা’ বাবা-মা, ভাইসহ পরিবারের সবাইকে হারিয়েও গেল ১৩ বছরে পাল্টে দিয়েছেন বাংলাদেশের চেহারা। যখন মাথা উঁচু করে দাঁড়ায় গর্বের পদ্মা সেতু, ঠিক তখনই মহাশূন্যে ওড়ে লাল-সবুজ পতাকা খচিত ‘বঙ্গবন্ধু-১’। মেট্রোরেল নিয়ে যখন স্বপ্ন পূরণের দ্বারপ্রান্তে ঢাকাবাসী, তখন চট্টগ্রামে স্বপ্ন ছোঁয়ার অপেক্ষায় বঙ্গবন্ধু ট্যানেল। দেশকে তিনি নিয়ে গেছেন এক অনন্য উচ্চতায়। শত প্রতিবন্ধকতা আর অস্থির বিশ্ব পরিস্থিতিতেও অবিচল থেকে সচল রেখেছেন দেশের অর্থনীতির চাকা। গতকাল বুধবার ৭৫ বছর পেরিয়ে ৭৬ এ পা রাখলেন বাংলাদেশের স্বপ্ন পূরণের জাদুকর আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ৭৫ বছরের যে শুভ্র কেশ বাংলাদেশের সাহসের বাতিঘরের রূপালি আলো। ডিজিটাল বাংলাদেশকে স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ার দৃঢ় প্রত্যয়ে কাজ করে চলেছেন তিনি।

গতকাল রাজধানী ঢাকাসহ দেশে-বিদেশে নানা আয়োজনে উদযাপিত হয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিন। ‘অগ্নিস্নানে শুচি হয়ে বারবার আসো তুমি ভূমিকন্যা, তোমারই হোক জয়’ শিরোনামে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আলোচনা সভার আয়োজন করে আওয়ামী লীগ। আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মতিয়া চৌধুরীর সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য রাখেন- সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য শাহজাহান খান, আব্দুর রাজ্জাক, জাহাঙ্গীর কবির নানক, মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া, সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফ, দীপু মনি, হাছান মাহমুদ, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ বজলুর রহমান, দক্ষিণের সভাপতি আবু আহমেদ মন্নাফী প্রমুখ।

সভায় সাধারণ ওবায়দুল কাদের বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সজিব ওয়াজেদ জয়কে নিয়ে ডিজিটাল বাংলাদেশ বাস্তবায়ন করেছেন। এবার শেখ হাসিনার লক্ষ্য স্মার্ট বাংলাদেশ গড়া। এবারে স্মার্ট বাংলাদেশের লক্ষ্য তুলে ধরেছেন আমাদের ক্রাইসিস ম্যানেজার শেখ হাসিনা।

তিনি বলেন, যত বাধাই আসুক, প্রতিবন্ধকতা আসুক নির্বিঘ্নচিত্তে এগিয়ে যাবেন। তিনি কারো হুমকির পরোয়া করেন না, কাউকে ভয় পান না। আপনারা আজকে শেখ হাসিনাকে হটাতে ষড়যন্ত্র করছেন। আপনারা ভোটে শেখ হাসিনাকে কোনোদিনও হটাতে পারবেন না। আপনারা ভোটে পারবেন না বলেই বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করেছিলেন। আগামী নির্বাচনে যত বাধাই আসুক, তিনি এগিয়ে যাবেন।

শেখ হাসিনার জন্যই আঁধারেও বোধের দ্বীপশিখা জাজ্বল্যমান: রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে শেখ রাসেল জাতীয় শিশু কিশোর পরিষদের আলোচনা সভায় আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, শেখ হাসিনার জন্ম বলেই বাঙালি আঁধারেও বোধের দ্বীপশিখাকে জাজ¦ল্যমান প্রদীপ রূপে লালন করার সাহস পায়। যাকে মোট ১৯ বার হত্যার চেষ্টা করেছে হন্তারক গোষ্ঠী। আর শেখ হাসিনা উন্নয়নের সোপান বেয়ে বাংলার মানুষের ভাগ্যোন্নয়নের স্বপ্নের সিঁড়ির দিকে দোর্দণ্ড প্রতাপে ধাবিত হন। তিনি আরো বলেন, বঙ্গবন্ধুর রাষ্ট্রীয় মৌলনীতিকে বাস্তবায়ন, দেশে উন্নয়ন অগ্রযাত্রা সাধন, জঙ্গিবাদ উৎখাতে অকুতোভয় দুঃসাহসী অভিযাত্রিক হিসেবে যিনি বিশ্ব বুকে নন্দিত হয়েছেন অপরাজেয় লৌহমানবী হয়ে।

সংগঠনের মহাসচিব কে এম শহিদ উল্যার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন- আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম। অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার শুভ জন্মদিন উপলক্ষে কেক কাটা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, শিশুদের মধ্যে ক্রীড়া উপকরণ বিতরণ করা হয়।

শেখ হাসিনার জন্য আমরা ভাগ্যবান: খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার বলেন, শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্বের কারণেই বাংলাদেশ আজ বিশ্বে উন্নয়নের রোল মডেল। আমাদের একজন শেখ হাসিনা আছেন, তাই আমরা ভাগ্যবান। খাদ্য মন্ত্রণালয়ে নিজ অফিসকক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে মন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী তার জীবনে কখনো অন্যায়ের সঙ্গে আপস করেননি। নিজের সুখের কথা চিন্তা করে রাজনীতি করেননি। তিনি দেশের মানুষকে ভালোবেসে সততা আর নিষ্ঠার সঙ্গে সমৃদ্ধশালী দেশ গড়ার কাজে ব্রতী হয়েছেন। আমাদের উচিত প্রধানমন্ত্রীকে তার লক্ষ্য অর্জনে সর্বাত্মক সাহায্য করা।

অনুষ্ঠানে খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. ইসমাইল হোসেন, খাদ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মো. শাখাওয়াত হোসেন এবং ফুড প্রকিউরিং ও মনিটরিং ইউনিটের মহাপরিচালক মো. সহিদুজ্জামান ফারুকী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। পরে প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন উপলক্ষে কেক কাটেন মন্ত্রী।

বাংলাদেশের স্বপ্ন শেখ হাসিনাকে ঘিরেই : জাতীয় প্রেস ক্লাবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্মদিন ও বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে এক আলোচনা সভায় নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, শেখ হাসিনা ১৬ কোটি বাঙালির আশা-ভরসার একমাত্র স্থল। বাংলাদেশের আগামী স্বপ্ন তাকে ঘিরেই।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জীবন থেকে শিক্ষা নিতে দলীয় নেতাকর্মীদের আহ্বান জানিয়ে প্রতিমন্ত্রী বলেন, তিনি একজন রাজনীতিবিদের সন্তান হিসেবে রাজনীতিতে এসেছেন। অনেক কঠিন সময় মোকাবিলা করেছেন। বারবার মৃত্যুকে আলিঙ্গন করেছেন, কিন্তু বাংলার মানুষের অধিকারের প্রশ্নে কখনো আপস করেননি।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়