উইকেট না হারিয়ে ২০০ রান তাড়া করে রেকর্ড জয়

আগের সংবাদ

ছোট ভাইয়ের হাসুয়ার কোপে বড় ভাই খুন

পরের সংবাদ

রূপপুর প্রকল্পে শিশুদের জন্য ডে-কেয়ার সেন্টার চালু

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২৩, ২০২২ , ৮:২৩ পূর্বাহ্ণ আপডেট: সেপ্টেম্বর ২৩, ২০২২ , ৮:২৩ পূর্বাহ্ণ

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মানে নিয়োজিত এমপ্লয়ীদের সন্তানদের জন্য সম্প্রতি একটি ডে-কেয়ার সেন্টারের উদ্বোধন করা হয়েছে। সেন্টারটির নামকরণ করা হয়েছে ‘চাইল্ডহুড টেরিটোরি’। তিন বছর বা তদুর্ধ্ব প্রি-স্কুল শিশুরা এবং গ্রেড-১ থেকে ৯ পর্যন্ত অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীরা এই ডে-কেয়ার সেন্টারের সুবধা পাবে।

এতমস্ত্রয় এক্সপোর্টের ভাইস-প্রেসিডেন্ট এবং রূপপুর এনপিপি নির্মাণ প্রকল্পের পরিচালক আলেক্সি দেইরী এ প্রসঙ্গে বলেন, প্রকল্পে শিশুদের জন্য একটি ডে-কেয়ার সেন্টার চালুর দাবি বহুদিনের। পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্প বাস্তবায়ন একটি দীর্ঘ প্রক্রিয়া এবং এর সঙ্গে যুক্ত কর্মকর্তাদের নিজস্ব পরিবার ও ঘনিষ্ট আত্মীয়-স্বজনদের থেকে দূরে থাকতে হয়। আমরা এমন সুযোগ সৃষ্টি করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি যাতে আমাদের এমপ্লয়ীরা পরিবারসহ বাংলাদেশে বসবাস করতে পারেন। এর ফলে রূপপুর প্রকল্পে কাজ করার জন্য আগ্রহ বাড়বে এবং আমাদের সহকর্মীরা কাজের ব্যাপারে আরো বেশি অনুপ্রেরণা পাবেন।

প্রাথমিকভাবে এই সেন্টারে বর্তমানে ১৫টি শিশু রয়েছে এবং খুব শিগগিরই ৩টি শিশু যোগ দেবে। সেন্টারে মোট ১০জন স্টাফকে নিয়োগ দেয়া হয়েছে যারা শিশুদের দেখাশোনার পাশাপাশি এবং তাদের জন্য খেলাধুলা, শিক্ষা ও বিনোদনমূলক বিভিন্ন কার্যক্রমের ব্যবস্থা করবেন। স্কুল শিক্ষার্থীদের জন্য মস্কোর ইন্টারন্যাশনাল স্কুল থেকে অনলাইনে শিক্ষা গ্রহণের সুযোগ রয়েছে। ডে-কেয়ার সেন্টারটির নিজস্ব খেলার মাঠ ছাড়াও রয়েছে ফিটনেস এরিয়া, নাচ এবং গানের ক্লাস রুম। আর্ট এবং মিডিয়ার ওপর দুটি ওয়ার্কশপও তৈরী করা হয়েছে। শিশুদের জন্য রয়েছে আলাদা মেডিক্যাল রুম যেখানে একজন শিশু বিশেষজ্ঞকে নিয়োগ দেয়া হয়েছে।

নির্মাণাধীন রূপপুর পারমানবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পে দুটি ইউনিট স্থাপিত হচ্ছে, প্রতিটির উৎপাদন ক্ষমতা ১,২০০ মেগা-ওয়াট। প্রতিটি ইউনিটে থাকবে একটি করে ৩+ প্রজন্মের রুশ ভিভিইআর-১২০০ রিয়্যাক্টর। ২০১৫ সালের ২৫শে ডিসেম্বর এক চুক্তির অধীনে প্রকল্প বাস্তবায়নের জন্য জেনারেল কন্ট্রাকটরের দায়িত্ব লাভ করে রাশিয়ার রাষ্ট্রীয় পরমানু শক্তি কর্পোরেশন রসাটমের প্রকৌশল শাখা।

এমকে

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়