টি-টোয়েন্টি সিরিজে পাক-ভারতের হার

আগের সংবাদ

ছয় দিনের দুবাই মিশনে টাইগাররা

পরের সংবাদ

ইকুয়েডরই খেলবে কাতার বিশ্বকাপে

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২২, ২০২২ , ১১:২০ পূর্বাহ্ণ আপডেট: সেপ্টেম্বর ২২, ২০২২ , ১১:২০ পূর্বাহ্ণ

বিশ্ব ফুটবলের সবচেয়ে মর্যাদাপূর্ণ আসর বিশ্বকাপ ফুটবল। আর মাত্র ৫৮ দিন পর মধ্যপ্রাচ্যের দেশ কাতারে পর্দা উঠবে বিশ্বকাপ ফুটবলের ২২তম আসরের। বাছাইপর্বের মাধ্যমে চূড়ান্ত হয়েছে বিশ্বকাপে অংশগ্রহণকারী ৩২ দল।

বাছাইপর্ব খেলে কাতার বিশ্বকাপের টিকেট পায় ইকুয়েডর। কিন্তু বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে নিয়ম ভেঙে অযোগ্য খেলোয়াড় মাঠে নামিয়েছে ইকুয়েডর- ফিফার কাছে এই অভিযোগ করেছিল চিলি। দেশটি দাবি করে, কাস্তিলোর জন্ম কলম্বিয়ার তুমাকোয়। তার মা-বাবার বিয়ে হয়েছে তুমাকোয়। সেখানেই কাস্তিলোর জন্ম হয়েছে। ১৯৯৮ সালে তার জন্ম, কিন্তু নথিভুক্ত করা হয় ২০১২ সালে। এ কারণে কাস্তিলোকে ইকুয়েডরের হয়ে খেলার অযোগ্য হিসেবে দাবি করে দেশটি। তবে গত জুনে কাস্তিলোকে ইকুয়েডরের নাগরিক তথা খেলোয়াড় হিসেবে স্বীকৃতি দেয় ফিফা। যার ফলে চিলির আবেদন হয়ে পড়ে ভিত্তিহীন ও বিশ্বকাপ খেলতে ইকুয়েডরের আর কোনো বাধা থাকে না। কিছুদিন আগে কাস্তিলোর নাগরিকত্ব নিয়ে দেখা দেয়া সংশয় পুনরায় মাথাচাড়া দিয়ে উঠলে নতুন করে তদন্তে নামে ফিফা। তদন্ত শেষে ফিফার রায়, চিলির অভিযোগ সত্য নয়। ফলে ইকুয়েডরই থাকছে কাতার বিশ্বকাপে।

অভিযোগের শুরু ইকুয়েডরের ডিফেন্ডার বাইরন কাস্তিলোকে ঘিরে। বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে ইকুয়েডরের হয়ে আটটি ম্যাচ খেলেছেন তিনি। দক্ষিণ আমেরিকা অঞ্চলের বিশ্বকাপ বাছাইয়ে চতুর্থ দল হিসেবে সরাসরি বিশ্বকাপে জায়গা করে নিয়েছিল ইকুয়েডর। কিন্তু কাস্তিলো ভুয়া জন্মসনদ দেখিয়ে বাছাইপর্ব খেলেছে দাবি জানিয়ে গত মে মাসে ফিফার কাছে চিলি ফুটবল ফেডারেশন আবেদন করে। কিন্তু এক বিবৃতিতে ফিফা জানিয়েছে সব ধরনের তথ্য যাচাই করে নিশ্চিত হওয়া গেছে, কাস্তিলো স্থায়ীভাবেই ইকুয়েডরের নাগরিক।

কাস্তিলো ভুয়া সনদের বিষয়টি প্রমাণিত হলে বাছাইপর্বে ইকুয়েডরের হয়ে তার অংশগ্রহণ করা আটটি ম্যাচেরই পয়েন্ট কাটা যাওয়ার কথা ছিল। আর যেসব ম্যাচে কাস্তিলো খেলেছেন ওই ম্যাচগুলোর পূর্ণ পয়েন্ট পেত প্রতিপক্ষ দলগুলো। এতে ইকুয়েডরের হয়ে এ ডিফেন্ডার সব ম্যাচ খেলায় তাদের পয়েন্ট শূন্য হয়ে যেত। পক্ষান্তরে টেবিলের চারে উঠে আসত চিলি। আর পাঁচে চলে যেত পেরু। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্লে-অফে খেলে তাদের মূল পর্ব নিশ্চিত করতে হতো। প্লে-অফে হেরে গিয়ে পেরুর আর বিশ্বকাপে যাওয়া হয়নি। কিন্তু ফিফার সিদ্ধান্তে সব ঝামেলা থেকে মুক্ত হলো ইকুয়েডর।

২০২২ বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব উতরে কাতার বিশ্বকাপের মূল পর্বে জায়গা করে নিয়েছে দক্ষিণ আমেরিকার এই দেশ। লাতিন আমেরিকা অঞ্চল থেকে বাছাইপর্বে চতুর্থ স্থান লাভ করে দেশটি। বিশ্বকাপের এ গ্রুপে ইকুয়েডরের প্রতিপক্ষ কাতার, সেনেগাল ও নেদারল্যান্ডস।

২০ নভেম্বর কাতার-ইকুয়েডর ম্যাচ দিয়ে শুরু হবে বিশ্বকাপ।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়