আ. লীগ মাঠে নামলে বিএনপি কর্পূরের মতো উড়ে যাবে : কাদের

আগের সংবাদ

‘শিল্পের আলোয় শ্রদ্ধাঞ্জলি: সুকান্ত ও বঙ্গবন্ধু’

পরের সংবাদ

ভোরের কাগজে সংবাদ প্রকাশ

ফেনীতে বিস্ফোরণে মৃত্যুর ঘটনা সিআইডিকে তদন্তের নির্দেশ

প্রকাশিত: আগস্ট ১১, ২০২২ , ৮:০৯ অপরাহ্ণ আপডেট: আগস্ট ১১, ২০২২ , ৮:১০ অপরাহ্ণ

ফেনীতে সেপটিক ট্যাংক বিস্ফোরণে তিন ভাইয়ের মৃত্যুর ঘটনায় অবশেষে আদালত আবেদন আমলে নিয়ে সিআইডিকে তদন্তের নির্দেশ নিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) দুপুরে ফেনী সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ আশিকুর রহমান এ আদেশ দেন।

নির্মাণাধীন রুহুল আমিন ভবনের নিচতলা সেপটিক ট্যাংক বিস্ফোরণের ঘটনায় মামলা না হওয়ার বিষয়ে বাংলাদেশ মানবাধিকার সম্মিলন-বামাস’র চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর আলম নান্টু হত্যাকাণ্ডের বিষয়টি আদালতের নজরে আনেন।

আদালত দীর্ঘ শুনানি শেষে আদেশের জন্য অপেক্ষমাণ রেখেছিলেন।
বৃহস্পতিবার পুনরায় শুনানি শেষে এ হতাহতের বিষয়ে সিআইডিকে তদন্তের আদেশ দেন।

এ ঘটনায় ভবন মালিক জামাত নেতা রুহুল আমিন ও তার ছেলে নাজমুস শাহাদাত সোহাগকে আসামি করা হয়েছে।

আবেদনকারী অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর আলম বলেন, সেপটিক ট্যাংক বিস্ফোরণে তিন ভাই নিহতের ঘটনায় ভবন মালিক রফাদফা করে পার পেয়ে যাচ্ছেন।

তিনি আরও বলেন, এ ঘটনা নিয়ে ২৯ জুলাই ভোরের কাগজে প্রকাশিত সংবাদ আমার দৃষ্টিগোচর হলে বামাসের পক্ষ থেকে মামলা দেয়ার সিদ্ধান্ত নিই। বিল্ডিং কোড ও পৌরসভার শর্ত অমান্য করায় দণ্ডবিধি অনুযায়ী এটি একটি হত্যাকাণ্ড। তাই এর বিচার চেয়ে এবং ভবন মালিক রুহুল আমিন ও তার ছেলে নাজমুস শাহাদাত সোহাগকে আইনের আওতায় আনতে মামলা করা হয়েছে। আশা করি আদালতে ন্যায়বিচার পাবে নিহতের পরিবার।

ফেনী শহরের নাজির রোডের বাসিন্দা রুহুল আমিনের নির্মাণাধীন একটি ভবনে গত ২৬ জুলাই সকাল সাড়ে ১১টার দিকে ভবনের নিচ তলায় একটি সেপটিক ট্যাংক বিস্ফোরিত হয়। এতে বাগের হাটের মোড়েলগঞ্জের ফুলহাতা গ্রামের ছৈয়দ আলী মুন্সির ছেলে নুরুল ইসলাম মুন্সী (৫২), মো. আবদুর রহমান মুন্সী (৪৯) ও মো. মুনীরুজ্জামান মুন্সীর (৪২) শরীর ক্ষতবিক্ষত হয়ে মর্মান্তিক মৃত্যু হয়।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়