নিউজ ফ্ল্যাশ

আগের সংবাদ

অবস্থা বুঝে সরকারি অফিসের সময় কমানোর ব্যবস্থা: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

পরের সংবাদ

ভারতের নতুন রাষ্ট্রপতি দ্রৌপদী মুর্মু

প্রকাশিত: জুলাই ২১, ২০২২ , ৮:৫৪ অপরাহ্ণ আপডেট: জুলাই ২১, ২০২২ , ৯:৫০ অপরাহ্ণ

ভারতের ১৫তম রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হলেন দ্রৌপদী মুর্মু। তিনি দেশটির প্রথম আদিবাসী রাষ্ট্রপতি।

বৃহস্পতিবার (২১ জুলাই) তিন দফায় গণনা শেষে ৫০ শতাংশের বেশি ভোট পেয়ে রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হন তিনি। খবর এনডিটিভি।

দ্রৌপদীর জয়ের জন্য প্রয়োজন ছিল ৫,৪০,৯৯৬ ভোটমূল্য। দ্রৌপদী ইতিমধ্যেই ভোটমূল্য পেয়ে গিয়েছেন ৫,৭৭,৭৭৭।

তার জয়ে দিল্লিতে বিজেপির সদর দফতরের সামনে উৎসবের মেজাজ চলছে। বাজছে তাসা, চলছে মিষ্টিমুখের পালা। মুর্মুর জয়ের ঘোষণা আসার পর নয়াদিল্লিতে বিজেপির প্রধান কার্যালয় থেকে শোভাযাত্রা বের করে বিজেপির দিল্লি শাখা। ওডিশায় দ্রৌপদী মুর্মুর নিজের শহর রায় রংপুরেও মিষ্টি বিতরণের মাধ্যমে বিজয় উদ্‌যাপনের প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া ক্ষুদ্র জাতিগোষ্ঠী সাঁওতালদের ঐতিহ্যবাহী নৃত্য ও বিজয় উদ্‌যাপন অনুষ্ঠান আয়োজনেরও পরিকল্পনা রাখা হয়।

ভারতের রাষ্ট্রপ্রতি নির্বাচিত হওয়ার পর দ্রৌপদী মুর্মুকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ছবি: এএনআই

‘ইতিহাস রচনা করল ভারত।’ রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে দ্রৌপদী মুর্মুর জয়ের পর এভাবেই উচ্ছ্বাস প্রকাশ করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। নয়াদিল্লির ‘তিন মূর্তি মার্গে’ দ্রৌপদী মুর্মুর অস্থায়ী বাসভবনে গিয়ে তাঁকে অভিনন্দন জানান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে দ্রৌপদীর জয় নিশ্চিত হওয়ার পরেই টুইটারে মোদী বলেন, ‘ইতিহাস তৈরি করল ভারত। যখন দেশের ১.৩ বিলিয়ন মানুষ যখন আজাদি কা অমৃত মহোৎসব পালন করছেন, তখন পূর্ব ভারতের প্রত্যন্ত এলাকায় আদিবাসী পরিবারের এক মেয়ে আমাদের রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হলেন। এই নজিরের জন্য দ্রৌপদী মুর্মুকে অভিনন্দন।’

পার্লামেন্ট হাউসে আজ বৃহস্পতিবার বেলা ১১টা থেকে ভোট গণনার প্রক্রিয়া শুরু হয়। তবে আনুষ্ঠানিকভাবে ভোট গণনা শুরু হয় বেলা দেড়টা থেকে।

বিজেপি মনোনীত রাষ্ট্রপতি প্রার্থী মুর্মু সাঁওতাল সম্প্রদায়ের নারী। এর আগে তিনি ঝাড়খন্ড রাজ্যের গভর্নর ছিলেন। রাষ্ট্রপতি প্রার্থী হিসেবে একজন আদিবাসী নারীকে মনোনয়ন দেওয়ায় বিরোধীদের মধ্যে ভাঙন ধরাতে পেরেছে বিজেপি।

দ্রৌপদী মুর্মুর প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে বিরোধীরা দাঁড় করায় ভারতের সাবেক অর্থমন্ত্রী ও বিজেপির একসময়ের শীর্ষ নেতা যশোবন্ত সিনহাকে। তাঁকে সমর্থন দেয় কংগ্রেসসহ ভারতের ৩৪টি বিরোধী দল। কিন্তু এসব দলের অনেক নেতা দলীয় নির্দেশ অমান্য করে মুর্মুকে ভোট দিয়েছেন বলে জানা যাচ্ছে।

এসআর

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়