বাজেটে ৬৫ হাজার কোটি টাকা ভর্তুকি চায় বিদ্যুৎ ও জ্বালানি বিভাগ

আগের সংবাদ

বাংলাদেশ ক্রিকেট দলে পরিবর্তনের আভাস ডমিঙ্গোর

পরের সংবাদ

ঢাকায় ফেনসিডিল সরবরাহ করত ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার

প্রকাশিত: মে ২৭, ২০২২ , ৯:০২ অপরাহ্ণ আপডেট: মে ২৭, ২০২২ , ৯:০২ অপরাহ্ণ

বগুড়া পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট থেকে ইঞ্জিনিয়ারিং পাশ করেন মো. ইমরুল কাওছার ওরফে শাওন। ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে পড়ার সময় আসক্ত হয়ে পড়েন ফেনসিডিলে। পড়ালেখা শেষে ফেনসিডিলের খরচ জোগাতে মাদক ব্যবসায় নেমে পড়েন। দিনাজপুরের বিভিন্ন সীমান্ত এলাকা থেকে ভারতের মাদক ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে ফেনসিডিল সংগ্রহ করে ঢাকায় সরবরাহ করে আসছিলেন শাওন।

বৃহস্পতিবার (২৭ মে) রাজধানীর গাবতলী এলাকা থেকে সহযোগী মো. সুমন হোসেন ও শাওনকে গ্রেপ্তারের পর এই চাঞ্চল্যকর তথ্য জানায় ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ।

গ্রেপ্তারের সময় তাদের কাছ থেকে ফেনসিডিল সরবরাহের কাজে ব্যবহৃত একটি প্রাইভেটকার ও ৪৭০ বোতল ফেনসিডিল জব্দ করা হয়েছে।

ডিবির পল্লবী জোনাল টিমের টিম লিডার অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার (এডিসি) মো. মোস্তফা কামাল ভোরের কাগজকে বলেন, সুমন প্রাইভেটকার চালক। দীর্ঘদিন ধরে সীমান্ত এলাকা থেকে তারা ফেনসিডিল সংগ্রহ করে রাজধানীর বিভিন্ন মাদক ব্যবসায়ীর কাছে সরবরাহ করতো।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে শাওন জানিয়েছে, সে বগুড়া পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের ছাত্র থাকাকালীন ফেনসিডিলে আসক্ত হয়ে পড়েন। পরে ফেনসিডিলের খরচ জোগাতে নিজেই মাদক ব্যবসায়ী বনে যান। দিনাজপুরের বিভিন্ন সীমান্ত এলাকা থেকে প্রতি বোতল এক হাজার টাকায় কিনে এনে রাজধানীতে দেড় থেকে দুই হাজার টাকায় বিক্রি করতেন তারা। করোনার সময় প্রতি বোতল সাড়ে চার হাজার টাকাও বিক্রি করেছে বলেও জানিয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে দারুস সালাম থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

ডি- এইচএ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়