মির্জাগঞ্জে জমি নিয়ে বিরোধে হামলায় নিহত ১, আহত ৬

আগের সংবাদ

ভিডিও করায় আইনজীবীদের ওপর ছাত্রলীগের হামলা

পরের সংবাদ

বাংলালিংকের বিরুদ্ধে জেমস-মাইলসের মামলা প্রত্যাহার

প্রকাশিত: মে ২৬, ২০২২ , ৩:১৫ অপরাহ্ণ আপডেট: মে ২৬, ২০২২ , ৩:২৪ অপরাহ্ণ

অনুমতি না নিয়ে জেমস ও মাইলসের গান ওয়েলকাম টিউন, বিজ্ঞাপনসহ বিভিন্ন মাধ্যমে ব্যবহার করার অভিযোগে মোবাইল অপারেটর কোম্পানি বাংলালিংকের বিরুদ্ধে দায়ের করা দুই মামলা প্রত্যাহার করে নেয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৬ মে) ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কেএম ইমরুল কায়েশের আদালতে আপস মীমাংসার মাধ্যমে মামলা দুটি প্রত্যাহার করা হয়। এ সময় আদালতে বাংলালিংকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) এরিক অ্যাসসহ চার আসামিরা উপস্থিত ছিলেন। বাকিরা হলেন- চিফ কমপ্লায়েন্স অফিসার এম নুরুল আলম, চিফ করপোরেট রেগুলেটরি অফিসার তৈমুর রহমান এবং ভিএএসের প্রধান অনিক ধর। মামলাটি অভিযোগ গঠন শুনানি পর্যায়ে ছিল।

গত বছরের ১০ নভেম্বর আদালতে হাজির হয়ে বাংলালিংকের পাঁচ কর্তাব্যক্তির বিরুদ্ধে কপিরাইট আইনে বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেন ‘নগর বাউল’ ব্যান্ডের গায়ক মাহফুজ আনাম জেমস। আরেকটি মামলার করেন মাইলস ব্যান্ডের প্রধান গায়ক শাফিন আহম্মেদ ও হামিম আহমেদ। এরপর মামলা দুইটি গ্রহণ করে বিচারক বাংলালিংকের পাঁচজনের বিরুদ্ধে সমন জারির করেন।

বাংলালিংকের বিরুদ্ধে জেমস ও মাইলস অভিযোগ করেন, জেমস বাংলাদেশের একজন জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী। তার অসংখ্য জনপ্রিয় গান আছে। তার কাছ থেকে কোনো ধরনের অনুমতি না নিয়েই এই গানগুলো বাংলালিংক তাদের ওয়েলকাম টিউন, বিজ্ঞাপনসহ বিভিন্ন মাধ্যমে ব্যবহার করে আসছে। বাংলালিংকের এই কর্মকাণ্ড কপিরাইট আইন ভঙ্গের শামিল। অন্যদিকে ‘নীলা তুমি’ ও ‘ফিরিয়ে দাও’ মাইলস ব্যান্ডের এই দুটি গান কপিরাইট আইন লঙ্ঘন করে ১৪ বছর ধরে ব্যবহার করছে টেলিযোগাযোগ প্রতিষ্ঠান বাংলালিংক। গান দুইটি সরিয়ে নেওয়ার জন্য তাদের মৌখিকভাবে বলা হয়। এরপর ২০১৭ সালের ৬ আগস্ট গান দুইটি সরিয়ে নেওয়ার জন্য তাদের লিগ্যাল নোটিশ দেওয়া হয়। এছাড়া, তিনটি মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে তাদের গান সরিয়ে নেওয়ার জন্য বলা হয়। এরপরও তারা তা সরিয়ে নেয়নি। তাই মামলা দায়ের করা হয়। পরে একই বছরের ৬ ডিসেম্বর আসামিদের স্থায়ী জামিন দেন আদালত।

রি-আরএ/ইভূ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়