আফগানিস্তানে সিরিজ বোমা হামলা, নিহত ১৬

আগের সংবাদ

পদ্মা সেতু থেকে টাকা লুটের জন্য গায়ে জ্বালা হচ্ছে: ফখরুল

পরের সংবাদ

চার উইকেট হারিয়ে চাপে টাইগাররা, ঢাকা টেস্টে রানশূন্য তামিম

প্রকাশিত: মে ২৬, ২০২২ , ৫:২০ অপরাহ্ণ আপডেট: মে ২৬, ২০২২ , ৫:৩১ অপরাহ্ণ

ঢাকা টেস্টে চতুর্থ দিন বৃহস্পতিবার (২৬ মে) বিব্রতকর রেকর্ডে নিজের নাম জড়ালেন তামিম ইকবাল। প্রথম ইনিংসের পর দ্বিতীয় ইনিংসেও তামিম শূন্য রানে আউট হন। তাতে অনাকাঙ্ক্ষিত ‘জুটি’ রেকর্ডের সঙ্গী হলেন তিনি। টেস্ট ক্যারিয়ারে এটি তার ১১তম ডাক। তামিমের পরেই দলীয় ১৯ রানে নাজমুল হোসেন শান্ত আউট হন। তিনি ১১ বলে ২ রান করেন। এরপর মুমিনুলও আউট হন শূন্য রানে। এর পর মাহমুদুল হাসান জয়ও বেশিক্ষণ টেকেননি। ২৩ রান তুলতেই ৪ উইকেট হারিয়ে চাপে পড়েছে টাইগাররা ঢাকা টেস্টে চতুর্থ দিন ব্যাট হাতে ভালই লড়াই করেছে লঙ্কানরা।

প্রথম ইনিংসে ১৬৫.১ ওভারে ৫০৬ রানে অলআউট হয়েছে সফরকারীরা। শ্রীলঙ্কা লিড পেয়েছে ১৪১ রানের। তবে ঢাকা টেস্টে নিজদের দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট হাতে শুরুটা ভালো করতে পারেননি তামিম ইকবাল। চতুর্থ দিন বৃহস্পতিবার রানের খাতা খুলতে পারেননি এই ওপেনার। এবার ঢাকা টেস্টে রান শূন্যই রইল তামিম। চট্টগ্রামে টেস্টে তার ব্যাট হেসেছিল। ভক্তরা তামিমমের ব্যাটিং নৈপুণ্য দেখার আশায় মাঠে এসেছিল। কিন্তু তাদের হতাশ করলেন তিনি।

আরও পড়ুন : সাকিবের পাঁচ উইকেট, শ্রীলঙ্কার লিড ১৪১

এছাড়া সাদা পোশাকে প্রায় চার বছর পর ইনিংসে পাঁচ উইকেট শিকার করলেন সাকিব আল হাসান। এর আগে ২০১৭ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ঘরের মাঠে শেষ ৫ উইকেট পেয়েছিলেন সাকিব। দুই ইনিংসেই তার ঝুলিতে গিয়েছিল পাঁচটি করে উইকেট। এরপর ৭ টেস্ট খেললেও ঘরের মাঠে ৫ উইকেট শিকার করতে পারেননি বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। অবশেষে চার বছর পর সাকিবের অপেক্ষা ফুরাল। ঢাকা টেস্টে চতুর্থ দিন জয়াবিক্রমাকে আউট করে ফাইফারের স্বাদ পেলেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। ক্যারিয়ারের এটি তার ১৯তম পাঁচ উইকেট। আর শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে তৃতীয়।

এছাড়া চতুর্থ দিন বল হাতে মধ্যাহ্ন বিরতির পরও কোনো উইকেট শিকার করতে পারেনি মুমিনুল বাহিনী। সেই সুযোগে দাপটে ব্যাট চালিয়ে রান তুলছেন অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস ও দিনেশ চান্দিমাল। তারা দুজন বড় সংগ্রহের দিকে ছুটছিলেন। কিন্তু ইবাদতের বলে এক্সট্রা কভারে তামিমের হাতে ধরা পড়েন চান্দিমাল। তার বিদায়ে ভাঙে ১৯৯ রানের জুটি। ষষ্ঠ উইকেটে ম্যাথিউজ ও চান্দিমাল ৪১৫ বলে ১৯৯ রানের জুটি গড়েছিলেন।

এদিকে চতুর্থ দিন দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে ক্যারিয়ারের ১৩তম সেঞ্চুরি তুলে নেন ম্যাথিউস। ২৭৪ বলে ৬ চার ও ২ ছক্কায় সেঞ্চুরি করেন। তিনি চট্টগ্রামের পর ঢাকাতেও শতক হাকালেন। তবে এবার সেঞ্চুরি পেতে বেশ সংগ্রাম করতে হয়েছে ম্যাথিউসকে। চট্টগ্রাম টেস্টে সেঞ্চুরি করেন ১৮৩ বলে। আর ঢাকা টেস্টে ২৭৪ বলে শতকের স্বাদ নেন তিনি।

এদিকে বাংলাদেশের পেসার-স্পিনাররা উইকেট শিকার করতে যথেষ্ট চেষ্টা করছেন। এর আগে বুধবার (২৫ মে) বৃষ্টির কারণে তৃতীয় দিন ৩৯ ওভার খেলা হয়নি। ক্ষতি পুষিয়ে নিতে শেষ দুদিন ৩০ মিনিট আগে খেলা শুরু হবে।

এর আগে তৃতীয় দিন টাইগার অলরাউন্ডার সাকিব লঙ্কানদের গুরুত্বপূর্ণ ২ উইকেট শিকার করেন। বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার দিনের শুরুতে দিমুথ করুনারত্নে ও বিকেলে ধনঞ্জয়া ডি সিলভাকে সাজঘরে ফেরান। মূলত সাকিবের কল্যাণে তৃতীয় দিন শেষে তৃপ্তির ঢেকুর তুলে মাঠ ছাড়ে মুমিনুল-মুশফিকরা।

এদিকে তৃতীয় দিন বৃষ্টির পর উইকেট কামড়ে ধরেন অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস ও ধনঞ্জয়া ডি সিলভা। তবে সাকিব পড়ন্ত বিকেলে স্বস্তি ফেরান টাইগার শিবিরে। তিনি ঘূর্ণি জালে ধনঞ্জয়া ডি সিলভাকে পরাস্ত করেন। সাকিবের বলে উইকেটের পিছনে লিটনের হাতে ক্যাচ দেন ডি সিলভা। তিনি সাজঘরে ফেরার আগে ৯৫ বলে ৫৮ রান করেন।

ডি- এইচএ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়