১৫ দেশে মাংকিপক্স, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সতর্কতা

আগের সংবাদ

নেত্রকোণায় ট্রাক-বাস সংঘর্ষে নিহত ২, আহত ২৫

পরের সংবাদ

ঢাকা টেস্টে টস জিতে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ

প্রকাশিত: মে ২৩, ২০২২ , ৯:৪১ পূর্বাহ্ণ আপডেট: মে ২৩, ২০২২ , ৯:৪১ পূর্বাহ্ণ

মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে আর কিছুক্ষন পর সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টে শ্রীলঙ্কার মুখোমোখি হবে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। তবে তার আগে টস জিতে আগে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন টাইগার দলপতি মুমিনুল হক।

এছাড়া ক্রিকেটপ্রেমীরা জানেন, মিরপুরের উইকেটে ব্যাটসম্যানদের কঠিন পরীক্ষা দিতে হয়। কারণ এখানে উইকেট কিছুটা স্লো হয়। বল ধীরগতির পাশাপাশি নিচু হয়ে আসে। ফলে স্বাভাবিক ব্যাটিং করা বেশ কঠিন। তাছাড়া মিরপুর স্টেডিয়ামে এখন পর্যন্ত ২৩টি টেস্ট ম্যাচ খেলা হয়েছে। তাতে প্রতিপক্ষ দল জিতেছে ১৩ বার, বাংলাদেশ জিতেছে ৬ বার, ড্র হয়েছে ৩ বার আর ১টি ম্যাচ বাতিল হয়েছে। সবশেষ ড্র হয়েছে ২০১৫ সালে বাংলাদেশ-দক্ষিণ আফ্রিকা ম্যাচ।

তবে এই মাঠে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৩টি ম্যাচ খেলে একটিতেও জয় পায়নি বাংলাদেশ। তাই এমন পরিসংখ্যান থেকে স্পষ্ট যে, এই মাঠে ফল আসার সম্ভাবনাই বেশি। সেটি মেনেই মাঠে নামবেন মুমিনুলরা। জয়ের লক্ষ্যেই পরিকল্পনা করে আঁটঘাট বেঁধে লঙ্কাবধের আত্মবিশ্বাস টেস্ট অধিনায়কের।

এদিকে ৫ হাজার রানের মাইলফলকের সামনে দাঁড়িয়ে আছেন টাইগার ওপেনার তামিম ইকবাল। আর ১৯ রান করতে পারলেই টেস্ট ক্রিকেটে দ্বিতীয় বাংলাদেশি হিসেবে ৫ হাজার রানের ক্লাবে যোগ দেবেন তিনি। এর আগে চট্টগ্রামে সাদা পোশাকে প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে পাঁচ হাজার রানের ক্লাবে নিজের নাম তুলেছেন মুশফিক। তবে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্ট শুরুর আগে এই দুই অভিজ্ঞ ক্রিকেটার ৫ হাজার রানের মাইলফলকের সামনে দাঁড়িয়ে ছিলেন। তামিম ১৫২ রান দূরে থেকে ইনিংস শুরু করেন। কিন্ত তিনি রিটায়ার্ড হার্ট না হলে সবার আগে ৫ হাজার রান পূর্ণ করতে পারতেন। তাছাড়া চট্টগ্রামের প্রচণ্ড গরমে ১৫০ ওভারের বেশি ফিল্ডিং করার পর ৫ ঘণ্টা ৯০ মিনিট ব্যাটিং করার প্রভাব পড়ে তামিমের শরীরে। ফলে চা বিরতিতে গিয়ে আর মাঠে ফেরেননি বাংলাদেশের দুর্দান্ত ওপেনার।

চট্টগ্রাম টেস্টে চতুর্থ দিন সাদা পোশাকে প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে পাঁচ হাজার রানের ক্লাবে নিজের নাম তুলেন মিস্টার ডিপেন্ডেবল। এমনকি টেস্ট ক্যারিয়ারে অষ্টম সেঞ্চুরির স্বাদ নিয়েছেন তিনি। মুশফিক ২৮২ বলে ৪টি চারের সাহায্যে ১০৫ রান তুলে আউট হন। সম্প্রতি তার ব্যাটিং নিয়ে ক্রিকেট পাড়ায় বেশ গুঞ্জন চলছিল। অনেকে বলেছেন, মিস্টার ডিপেন্ডেবল ব্যাটিং ভুলে গেছে।

আবার অনেকে বলেছেন, তিনি ব্যাটিং ভুলে গেছে। যাইহোক গুরুত্বপূর্ন সময় নিজের জাত চেনাতে ভুল করেনি মুশফিক। তিনি সমালোচনাকারীদের জবাব আগেই দিতে পারতেন। কিন্তু তা না করে সঠিক সময়ের অপেক্ষায় ছিলেন।

এসআর

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়