তেল থেকে লবণ, ভারতে খাদ্যপণ্যে ১০ বছরের মধ্যে রেকর্ড মূল্যবৃদ্ধি

আগের সংবাদ

লখনৌকে হারিয়ে প্রথম দল হিসেবে প্লে-অফে গুজরাট

পরের সংবাদ

বাচ্চারাও আক্রান্ত হয় ডায়াবেটিসে, জেনে নিন লক্ষণগুলো

প্রকাশিত: মে ১১, ২০২২ , ৯:০৩ পূর্বাহ্ণ আপডেট: মে ১১, ২০২২ , ৯:০৩ পূর্বাহ্ণ

ডায়াবেটিস এমন এক দীর্ঘকালীন রোগ যেখানে শরীর খুব কম পরিমাণে ইনসুলিন তৈরি করে। কিংবা ইনসুলিন ঠিক মতো কাজ করে না। তাই রক্তে শর্করার মাত্রা অনেকটা বেড়ে যায়। আমারা যা খাই তা থেকে গ্লুকোজ তৈরি করে শরীরের বিভিন্ন কোষে স্ফূর্তি জোগানোই ইনসুলিনের মূল কাজ। কিন্তু ডায়াবেটিসে সেই প্রক্রিয়াই হ্রাস পায়। আন্তর্জাতিক ডায়াবেটিস ফেডারেশন অনুযায়ী বিশ্বজুড়ে অন্তত ১১ লক্ষ অপ্রাপ্তবয়স্ক বা ২০ বছরের কম বয়সিরা টাইপ ১ ডায়াবেটিসে আক্রান্ত। প্রত্যেক বছর নাকি নতুন করে আক্রান্ত হচ্ছে আরও ১ লক্ষ ৩০ হাজার। তাই পরিস্থিতি নিয়ে যথেষ্ট চিন্তিত বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

অনেকেই ভাবেন কম বয়সে ডায়াবেটিস হওয়ার সম্ভাবনা সে ভাবে নেই। আদপে তা একেবারেই নয়। বাচ্চাদের মধ্যে বেশ কিছু লক্ষণ দেখলে অভিভাবকদের সতর্ক হওয়া প্রয়োজন। সেগুলি কী জেনে নিন। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

ক্লান্তি

বাচ্চারা অনেক কারণেই ক্লান্ত হয়ে পড়তে পারে বা তাদের শরীর দুর্বল হয়ে পড়তে পারে মাঝেমাঝে। কিন্তু সব সময়ই যদি দেখেন আপনার সন্তান হাঁপিয়ে উঠছে, তাহলে চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যান। কারণ ক্লান্তি ডায়াবেটিসের অন্যতম উপসর্গ।

ওজনের হেরফের

যদি দেখেন বাচ্চার ওজনে হঠাৎ তুমুল পরিবর্তন হয়েছে, বিশেষ করে ওজন কমে যাওয়া, তাহলে সতর্ক হতে হবে। ইনসুলিনের কার্যকারিতা যেহেতু কমে যায়, তাই শরীর ঠিক মতো স্ফূর্তি পায় না খাবার থেকে। ফলে শরীরে জমে থাকা ফ্যাট ও পেশি থেকেই সেই স্ফূর্তি জোগাড় করার চেষ্টা করে শরীর। এতেই হঠাৎ করে ওজন কমে যায়।

খাওয়ার অনিয়ম

হঠাৎই বাচ্চার খুব খিদে বেড়ে গিয়েছে? ঘন ঘন পানি খাচ্ছে? কিংবা ঘুমের নিয়ম বদলে গিয়েছে? এগুলি সবই হতে পারে ডায়াবেটিসের উপসর্গ।

প্রস্রাবের অনিয়ম

খুব বেশি পানি তেষ্টা পেলে বেশি পানি খাওয়া হয়ে যায়। তাই ঘন ঘন প্রস্রাব করার প্রয়োজন পড়ে। ফলে সতর্ক হতে হবে এমন অনিয়ম দেখলে।

ঝাপসা দৃষ্টি

চিকিৎসকরা মনে করেন, রক্তে শর্করার মাত্রা বেড়ে গেলে চোখের মণি বড় হয়ে দৃষ্টি ঝাপসা হয়ে যেতে পারে। বাচ্চাদের হঠাৎ এমন সমস্যা হলে পরীক্ষা করিয়ে নেওয়া প্রয়োজন।

মুখে টক গন্ধ

যাদের টাইপ ১ ডায়াবেটিস থাকে, তাদের মধ্যে কিটোঅ্যাসিডিয়োসিস তৈরি হতে পারে। যাতে মুখ থেকে টক বা ফল-জাতীয় গন্ধ বেরোয়। বাচ্চাদের মুখে এমন গন্ধ পেলে সাবধান হতে হবে। তবে মনে রাখবেন, টাইপ ২ ডায়াবিটিসেও কিন্তু এই পরিস্থিতি তৈরি হতে পারে।

পেটের গোলমাল

ডায়াবেটিস থাকলে বাচ্চাদের মধ্যে বমির প্রবণতা, হজমের গোলমাল, গ্যাসের সমস্যা লেগেই থাকে। তাই এমন উপসর্গ দেখলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে পারেন।

ডি-ইভূ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়