এত ভালো, কতটা ভালো?

আগের সংবাদ

ফিফার সিদ্ধান্ত: ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা ম্যাচ আবারও হবে

পরের সংবাদ

চরম ব্যর্থ বিজেপি

পশ্চিমবঙ্গে পৌর ভোটে ২২৬ ওয়ার্ডের মধ্যে ১৯৮টিতেই জয়ী তৃণমূল

প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ১৫, ২০২২ , ৮:৪০ পূর্বাহ্ণ আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১৫, ২০২২ , ৮:৪০ পূর্বাহ্ণ

ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যে ক্ষমতাসীন তৃণমূল কংগ্রেস গড়ে ৬১ শতাংশ ভোট পেয়ে চারটি পৌরসভায় বিজয়পতাকা উড়িয়েছে। এ পৌরসভাগুলো হলো বিধাননগর, আসানসোল, চন্দননগর ও শিলিগুড়ি।

চারটি পৌরসভায় নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেয়ে ক্ষমতায় এল তৃণমূল। বিধাননগরে ৭৩ দশমিক ৯৫ শতাংশ, আসানসোলে ৬৩ দশমিক ৬১ শতাংশ, চন্দননগরে ৫৯ দশমিক ৪২ এবং শিলিগুড়িতে ৪৭ দশমিক ২৪ শতাংশ। গত বিধানসভা নির্বাচনে চারটি পৌরসভায় ভোট বাড়িয়েছে তৃণমূল। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

বিধাননগরে বাম-বিজেপির ভরাডুবি হয়েছে। ওই কেন্দ্রে তাদের কোনো প্রার্থীই জিততে পারেননি। সেখানে একটি ওয়ার্ডে একজন নির্দলীয় এবং একটিতে কংগ্রেস প্রার্থী জিতেছেন। তৃণমূল পেয়েছে ৩৯টি আসন।

ভোট পাওয়ার দিক থেকে বামফ্রন্ট দ্বিতীয় হয়েছে। বামফ্রন্টের পেয়েছে ১০ দশমিক ৯৪ শতাংশ। বিজেপি পেয়েছে ৮ দশমিক ৩৭ শতাংশ। কংগ্রেস পেয়েছে ৩ দশমিক ৪২ শতাংশ।

চন্দননগরের ১৭ নম্বর ওয়ার্ডে এবার ভোটগ্রহণ বন্ধ হয়নি। এছাড়া ওই পৌরসভার ৩২টি ওয়ার্ডে ভোট হয়েছিলো। সেখানে ভোট পাওয়ার ‍দিক থেকে দ্বিতীয় হলেও একটিমাত্র আসন পেয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছে বামেদের। বামফ্রন্ট ভোট পেয়েছে ২৭ দশমিক ৩৭ শতাংশ। আর বিজেপি তো খাতাই খুলতে পারেনি চন্দননগরে। একটিমাত্র আসনে দ্বিতীয় হয়ে তারা ভোট পেয়েছে ৯ দশমিক ৮ শতাংশ। কংগ্রেস একটিও আসন পায়নি।

আসানসোলের ১০৬টি ওয়ার্ডের মধ্যে তৃণমূল ৬৩ শতাংশের বেশি ভোট পেয়ে ৯১টি আসনে জয়ী হয়েছে। আর দ্বিতীয় স্থানে থাকা বিজেপি পেয়েছে ১৬ দশমিক ৩২ শতাংশ ভোট। সাতজন প্রার্থী জয় পেয়েছেন বিজেপির হয়ে। তৃতীয় স্থানে থেকে বামেরা মাত্র দুটি আসনে জয় পেয়েছে। প্রাপ্ত ভোটের হার ১২ দশমিক ৩৭ শতাংশ। অন্যদিকে কংগ্রেসের ঝুলিতে তিনটি আসন গেলেও প্রাপ্ত ভোটের হারে তৃতীয় স্থানে রয়েছে তারা। তাদের প্রাপ্ত ভোট ৪ দশমিক ১২ শতাংশ।

শিলিগুড়িতে ধাক্কা খেয়েছে বিজেপি। বিধানসভা যে শঙ্কর ঘোষ বড় ব্যবধানে জয়ী হয়েছিলেন, তিনিই ২৪ নম্বর ওয়ার্ড থেকে পরাজিত হয়েছেন।

বিধানসভা ভোটের তুলনায় ভোট বাড়িয়ে তৃণমূল পেয়েছে ৪৭ দশমিক ২৪ শতাংশ ভোট। দ্বিতীয় স্থানে বিজেপি পেয়েছে পাঁচটি আসন। ভোট পেয়েছে ২৩ দশমিক ২৪ শতাংশ। তৃতীয় স্থানে বামেরা পেয়েছে চারটি আসন। প্রাপ্ত ভোট ১৮ দশমিক ২৮ শতাংশ। আর কংগ্রেস মাত্র একটি আসনে জয়ী হয়েছে। তাদের প্রাপ্ত ভোটের হার ৫ দশমিক ৩২ শতাংশ।

ডি- এইচএ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়