ঘুমন্ত অবস্থায় আগুনে পুড়ে মারা গেল দুই ভাই-বোন

আগের সংবাদ

কৃষি ও গ্রামীণ উন্নয়নে ৭৭ কোটি টাকা দেবে জাপান

পরের সংবাদ

মাছের ডিম দিয়ে বিলাসবহুল রূপচর্চা

প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ৮, ২০২২ , ১২:৪২ অপরাহ্ণ আপডেট: ফেব্রুয়ারি ৮, ২০২২ , ১:২৭ অপরাহ্ণ

মাছের ডিম দিয়ে রূপচর্চা! তার খরচ প্রায় ৭৫ হাজার টাকা! কিন্তু কেন? আমেরিকার জনপ্রিয় এই ফেশিয়ালের কথা শুনে চোখ কপালে তোলেন সে দেশেরও সাধারণ মানুষ। নিউ ইয়র্কে সবচেয়ে কম যারা আয় করেন, তাদের সাপ্তাহিক আয় মোটামুটি ৬০০ ডলার। আর এই ফেশিয়াল একবার করানোর খরচই ১০০০ ডলারের বেশি। বাংলাদেশী টাকায় যার মূল্য ৮৬,০৪০ টাকা।

কিন্তু কেন এত দাম এই ফেশিয়ালের? কারণ ফেশিয়াল করানোর সময় যে সে মাছের ডিম দিয়ে করানো হয় না। ব্যবহার হয় ক্যাভিয়ারের ডিএনএ। বিশ্বের সবচেয়ে দামি খাবারের মধ্যে অন্যতম ক্যাভিয়ার। বাংলাদেশী অংকে ৩০ গ্রাম ক্যাভিয়ারের দাম পড়তে পারে ৮ থেকে ১৮ হাজার টাকার কাছাকাছি (কোন ধরনের ক্যাভিয়ার কিনছেন তার উপর নির্ভর করবে দাম, কালো ক্যাভিয়ারের দাম সবচেয়ে বেশি)।

অস্কারের সন্ধ্যা কিংবা অন্য কোনো বিশেষ অনুষ্ঠানের আগে হলিউডের তারকারা দৌড়ান ক্যাভিয়ার ফেশিয়াল করাতে। কিম কারদাশিয়ানের বোন ক্লোয়ি এবং কোর্টনি কারদাশিয়ান অবশ্য মাসে দুই থেকে তিন বার এই ফেশিয়াল করিয়ে থাকেন চেহারায় তারুণ্য ধরে রাখার জন্য। ক্যাভিয়ারে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন, ভিটামিন, ওমেগা থ্রি ফ্যাটি অ্যাসিড এবং অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট।

ছবি সংগৃহীত

কেন এত জনপ্রিয় ক্যাভিয়ার ফেশিয়াল

ক্যাভিয়ারের প্রাকৃতিক পুষ্টিগুণ ত্বকের তারুণ্য ধরে রাখার জন্য ম্যাজিকের মতো কাজ করে। ত্বকের কোলাজেন উৎপাদন বাড়িয়ে দিয়ে ত্বক আরও তুলতুলে করে তোলে। দাগ-ছোপ মিলিয়ে দেয় নিয়মিত ব্যবহারে।

কত বার করাতে হয়

দুই থেকে তিন সপ্তাহ অন্তর করানোই রীতি। তবে দূষণ, মানসিক চাপ কিংবা হবু মায়েদের যদি ত্বক খুব বেশি ক্লান্ত হয়ে পড়ে এবং বাড়তি যত্নের প্রয়োজন হয়, তা হলে প্রত্যেক সপ্তাহে করানোর উপদেশ দেন বিশেষজ্ঞরা।

কী থাকে ৭৫ হাজার টাকার ফেশিয়ালে

নানা ভাবে ত্বক পরিষ্কার করার পর চার-পাঁচ রকম মাস্ক ব্যবহার করা হয়। কোলাজের মাস্কও থাকে তার মধ্যে। এক ধরনের ইনজাইম পিলও ব্যবহার হয়। এক ঘণ্টা ধরে হায়ড্রা ফেশিয়াল করানো হয়। তার পর থাকে এলইডি লাইট দিয়ে ট্রিটমেন্ট। বিলাসবহুল ফরাসি ব্র্যান্ডের নানা রকম ক্রিম-ময়শ্চারাইজার এবং অন্যান্য পণ্য ব্যবহার করা হয়। সঙ্গে থাকে চার রকম মাসাজ। তার মধ্যে অন্যতম জাপানের ৫৪০ বছর পুরনো কোবিডো পদ্ধতি। যা নিয়মিত করলে নাকি মুখের পেশি গঠন মনের মত করে ফেলা যায়।

কত ক্ষণ লাগে

প্রায় পাঁচ থেকে ছয় ঘণ্টা

কোথায় হয়

নিউ ইয়র্ক, প্যারিস, লাস ভেগাস, লাগুনা বিচ সহ অনেক শহরেই বিশেষ স্পা রিজর্টে এই ধরনের ফেশিয়াল করানো হয়। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়