আপত্তিকর ফোনালাপ: বঙ্গবন্ধু বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সাসপেন্ড

আগের সংবাদ

আন্দোলন চালানোর শর্তে অনশন ভাঙছেন শাবি শিক্ষার্থীরা!

পরের সংবাদ

ফের খাবার নিয়ে গেলেন শিক্ষকরা, ফিরিয়ে দিলেন শিক্ষার্থীরা

প্রকাশিত: জানুয়ারি ২৫, ২০২২ , ৬:৫০ অপরাহ্ণ আপডেট: জানুয়ারি ২৫, ২০২২ , ৬:৫০ অপরাহ্ণ

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদের জন্য আবারও খাবার নিয়ে গিয়ে শিক্ষার্থীদের বাধার মুখে পড়েন শিক্ষকরা।

মঙ্গলবার (২৫ জানুয়ারি) দুপুরে উপাচার্যের বাসভবনে প্রবেশ করতে চান শাবি শিক্ষক সমিতির নেতারা। এসময় তারা উপাচার্যের জন্য বিভিন্ন রকমের খাদ্য সামগ্রী নিয়ে আসেন। প্রতিনিধি দলের নেতৃত্বে ছিলেন শাবি শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. তুলসি কুমার দাশ, সাধারণ সম্পাদক মহিবুল আলম, সহসভাপতি ড. আশরাফুল ইসলাম।

তখন বাসভবনের সামনে অবস্থান নেওয়া শিক্ষার্থীরা তাদের বাধা দিলে, তারা উপাচার্যের সঙ্গে দেখা না করেই ফিরে আসেন। এসময় নিজেদের দাবি-দাওয়া নিয়ে আলোচনার টেবিলে বসতে শিক্ষার্থীদের আহবান জানান শিক্ষকবৃন্দ। তবে শিক্ষকদের সেই অনুরোধ আবারও প্রত্যাখ্যান করেছেন আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা।

এ সময় শিক্ষার্থীরা বলেন, আমাদের দাবি-দাওয়া স্পষ্ট। তাই যতক্ষণ পর্যন্ত আমাদের দাবি আদায় না হচ্ছে আমরা আন্দোলন থেকে সরে আসার প্রশ্নই ওঠেনা।

প্রসঙ্গত, শাবির বেগম সিরাজুন্নেসা চৌধুরী হলের প্রভোস্টের অসদাচরণের প্রতিবাদে গত ১৩ জানুয়ারি রাতে ওই হলের ছাত্রীদের মাধ্যমে সূচিত হয় আন্দোলন। ঘটনার পরিক্রমায় তা উপাচার্যের পদত্যাগের আন্দোলনে রুপ নেয়। উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে গত বুধবার থেকে আমরণ অনশন কর্মসূচী ঘোষণা করেন আন্দোলনকারীরা। প্রথমে ২৪ জন শিক্ষার্থী অনশনে বসলেও একজনের বাবার অসুস্থতাজনিত কারণে তিনি বাড়ি চলে যান। পরে শনিবার ও রবিবার আগের ২৩ জনের সঙ্গে আরও ৫ শিক্ষার্থী অনশনে যোগ দেন।

এছাড়া রাত পৌনে ৮টার দিকে শাবি উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদের বাসভবনের বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেন আন্দোলনকারীরা। তবে নানা মহলের সমালোচনার মুখে গতকাল সোমবার রাতে বিদ্যুৎ সংযোগ পুনরায় প্রদান করা হয়।

রি-জেআই/ইভূ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়