আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল

মানবতাবিরোধী অপরাধ: খালেকসহ দুই জনের রায় যে কোনো দিন

আগের সংবাদ

৭২ ঘণ্টা পর ধর্ষণ মামলা না নেয়ার সুপারিশে ক্ষোভ

পরের সংবাদ

টানা ১৫ দিন ইন্টারনেট বন্ধ থাকলে বিল দিতে হবে না

প্রকাশিত: নভেম্বর ১২, ২০২১ , ১২:১০ অপরাহ্ণ আপডেট: নভেম্বর ১২, ২০২১ , ১২:১০ অপরাহ্ণ

টানা ১৫ দিন ইন্টারনেট সেবা বন্ধ থাকলে গ্রাহককে ওই মাসে সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানকে কোনো বিল দিতে হবে না। বৃহস্পতিবার (১১ নভেম্বর) এ নির্দেশনা দেয় বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)।

সংস্থাটি জানিয়েছে, গত ৬ জুন চালু করা ‘এক দেশ, এক রেট’ কর্মসূচির আওতায় ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটের সেবামূল্য ঘোষণা করা হয়। এবার আগের সেবার মানদণ্ডের ঘোষণার সংশোধিত নির্দেশনা দেওয়া হলো। টানা পাঁচ দিন ইন্টারনেট সেবা বিচ্ছিন্ন থাকলে গ্রাহকের কাছ থেকে ওই মাসে মোট বিলের ৫০ শতাংশ নেওয়া যাবে। টানা ১০ দিন ইন্টারনেট না থাকলে নেওয়া যাবে মাসিক বিলের ২৫ শতাংশ। আর ১৫ দিন ইন্টারনেট না থাকলে সে মাসে কোনো বিলই নেওয়া যাবে না।

এর আগে গত ৫ অক্টোবর বিটিআরসি তাদের নির্দেশনায় বলেছিল টানা তিন দিন ইন্টারনেট না থাকলে সে মাসে বিল দিতে হবে না। ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট সরবরাহকারীদের সংগঠন ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (আইএসপিএবি) এ সময়সীমা আরও বাড়ানোর অনুরোধ জানায়।

সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক এমদাদুল হক বলেন, বিভিন্ন এলাকায় পেশিশক্তিধারীরা ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট লাইন নিয়ন্ত্রণ করেন। এছাড়া উন্নয়ন কাজ বা কোনো কারণে লাইন কেটে গেলে তা ঠিক করতে দু তিন দিন লেগে যায়। সেক্ষেত্রে বিটিআরসির আগের নিয়ম অনুযায়ী সেবাদাতাদের জন্য ঝামেলা হয়ে যেত। নতুন নির্দেশনা ‘এক দেশ, এক রেট’ কার্যকর করতে সহায়তা করবে।

গত জুনে এ কর্মসূচির আওতায় তিনটি প্যাকেজ ঘোষণা করে বিটিআরসি। প্রথম প্যাকেজের মূল্য মাসে সর্বোচ্চ ৫০০ টাকা, গতি হবে ৫ এমবিপিএস (মেগাবিট পার সেকেন্ড)। দ্বিতীয় প্যাকেজের মূল্য মাসে সর্বোচ্চ ৮০০ টাকা, এর গতি ১০ এমবিপিএস। আর তৃতীয় প্যাকেজের গতি ২০ এমবিপিএস, দাম মাসে সর্বোচ্চ ১ হাজার ২০০ টাকা।

নির্দেশনাতে আরও বলা হয়েছে, সেবাদাতারা নতুন নতুন প্যাকেজ দিতে পারবে। তবে সেটা হতে হবে অনুমোদিত প্যাকেজের আদলে এবং গতির সর্বনিম্ন সীমা ৫ এমবিপিএস ঠিক রাখতে হবে। নতুন প্যাকেজের জন্যও অনুমোদন নিতে হবে। এর বাইরে কোনো প্যাকেজ দিলে কমিশন ব্যবস্থা নেবে। অনুমোদিত সেবামূল্য আইএসপির ওয়েবসাইটে প্রকাশ করতে হবে।

ডি-এফবি

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়