মায়ের অভাবে যেন প্রেমিক কষ্ট না পায়, তাই প্রেমিকের বাবাকে বিয়ে!

আগের সংবাদ

১২-১৭ বছর বয়সীদের ফাইজারের টিকা দেবে সরকার

পরের সংবাদ

আপন জুয়েলার্সের মালিক গুলজার-আজাদের বিরুদ্ধে চার্জশিট গ্রহণ

প্রকাশিত: অক্টোবর ১০, ২০২১ , ৯:৩৫ অপরাহ্ণ আপডেট: অক্টোবর ১০, ২০২১ , ৯:৪৪ অপরাহ্ণ

শুল্ক এবং কর ফাঁকি দিয়ে চোরাচালানের মাধ্যমে স্বর্ণালঙ্কার মজুতের অভিযোগে আপন জুয়েলার্সের মালিক গুলজার আহমেদ ও আজাদ আহমেদের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলায় দাখিল করা পৃথক দুই চার্জশিট (অভিযোগপত্র) গ্রহণ করেছেন আদালত।

রবিবার (১০ অক্টোবর) আসামিদের আদালতে হাজির করা হয়। এরপর ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালতের বিচারক কেএম ইমরুল কায়েশ তাদের উপস্থিতিতে চার্জশিট দুইটি গ্রহণ করেন। এছাড়া মামলাটি বিচারের জন্য বিশেষ জজ আদালত-৭ এ প্রেরণের নির্দেশ দেন তিনি।

এরআগে গত ২৮ ফেব্রুয়ারি রাজধানীর গুলশান থানায় মানি লন্ডারিং আইনের পৃথক দুই মামলায় তদন্ত কর্মকর্তা সহকারী রাজস্ব কর্মকর্তা আরিফ হোসেন তাদের বিরুদ্ধে দুইটি চার্জশিট দাখিল করেন। তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ থেকে জানা যায়, আপন জুয়েলার্স বিভিন্ন সময় সাড়ে ১৩ মণ সোনা ও পৌনে আট হাজার পিস ডায়মন্ড কিনতে গিয়ে ১৯০ কোটি ৭৮ লাখ টাকা পাচার করেছে। এতে কর ফাঁকির পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ২৭ কোটি ৫২ লাখ টাকা। রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে এসব অর্থপাচার করা হয়।

উল্লেখ্য, ২০১৭ সালে রাজধানীর রেইনট্রি হোটেলে দুই শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ করে আপন জুয়েলার্সের মালিকের ছেলে সাফাত আহমেদ ও তার বন্ধু নাঈম আশরাফ। এরপর সেবছরই শুল্ক গোয়েন্দা আপন জুয়েলার্সে অবৈধ অলংকার জব্দ করতে অভিযানে নামে। অভিযানে আপন জুয়েলার্সের পাঁচটি শাখা থেকে ৫৩৭ কেজি ৫০০ গ্রাম সোনা ও সাত হাজার ৭৪৩ পিস ডায়মন্ড জব্দ করা হয়। ওই বছরের ১২ আগস্ট আপন জুয়েলার্সের বিরুদ্ধে গুলশান থানায় দুটি, ধানমন্ডি থানায় একটি, রমনা থানায় একটি ও উত্তরা পূর্ব থানায় একটি মামলা করে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদফতর।

রি-আরএ/ইভূ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়