নিউজ ফ্ল্যাশ

আগের সংবাদ

মাধবপুরে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে নির্মাণ শ্রমিকের মৃত্যু

পরের সংবাদ

৩২ জেলেসহ ২ ট্রলার ৬ দিন ধরে নিখোঁজ

প্রকাশিত: অক্টোবর ১, ২০২১ , ৯:০৫ অপরাহ্ণ আপডেট: অক্টোবর ১, ২০২১ , ৯:০৬ অপরাহ্ণ

বরগুনার পাথরঘাটা উপজেলায় আব্দুর রহমানের মালিকানাধীন এফবি মায়ের দোয়া ট্রলারের ১২ জেলে ও মো. লিটন মাহমুদের মালিকানাধীন এফবি আব্দুল্লাহ ট্রালারের ২০ জেলে নিয়ে ৬ দিন ধরে নিখোঁজ রয়েছে। বরগুনা জেলা মৎস্যজীবি ট্রলার মালিক সমিতির সভাপতি গোলাম মোস্তফা চৌধুরী বিষটি নিশ্চিত করেছেন।

নিখোঁজ জেলেরা হলেন, এফবি মায়ের দোয়া ট্রালারের পাথরঘাটা উপজেলার মঠেরখাল এলাকার নুর মোহাম্মাদ মিস্ত্রির ছেলে শাহ জাহান, ছত্তার মোল্লার ছেলে আব্দুর রশিদ, খালেক মিস্ত্রির ছেলে মাসুদ, আব্দুল কুদ্দুসের ছেলে আমির হোসেন, আব্দুর রহমানের ছেলে মিরাজ, নুরু মিয়ার ছেলে ছগির, তাফালবাড়ি এলাকার খলিল গোলদারের ছেলে ফারুক, আব্দুর রহমানের ছেলে আব্দুস ছত্তার, আব্দুল লতিফের ছেলে নাসির, জ্ঞানপাড়া এলাকার আব্দুল গনির ছেলে খলিল, কুদ্দুসের ছেলে আবুল কালাম, বড় টেংরা এলাকার আবুল হাসেমের ছেলে ফুল মিয়া, এবং এফবি আব্দুল্লাহ ট্রলারের খোকন মাঝি, হুমায়ুন, শাহজাহান ও রাসেল। এফবি আব্দুল্লাহ ট্রালারের অন্য জেলেদের নাম জানা যায়নি, তাদের সকলের বাড়ি নোয়াখালী জেলার আলেকজান্ডার উপজেলার বিভিন্ন এলাকায়।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, লিটন মাহমুদের এফবি আব্দুল্লাহ ট্রালারটি গত ২৫ সেপ্টেম্বর সন্ধার দিকে এবং গত ২৪ সেপ্টেম্বর আব্দুর রহমানের এফবি মায়ের দোয়া ট্রলারটি দেশের বৃহত্তম মৎস্য অবতরনকেন্দ্র থেকে মাছ শিকারের উদ্যেশ্য বঙ্গোপসাগরে ছেড়ে যায়। এর পরে এফবি মায়ের দোয়া ট্রলারের মাঝি শাহজাহানের সাথে গত ২৮ সেপ্টেম্বর সাক্ষাতের হলেও তার পর থেকে আর কোন যোগাযোগ করতে পারেননি ট্রলার মালিক। এছারা আব্দুল্লাহ ট্রালারের মালিক লিটন মাহমুদ তার মাঝির সঙ্গে সাগরে যাওয়ার পর থেকে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত কোন যোগাযোগ করেও পাননি তিনি। ট্রলার মালিকরা তাদের জেলে ও ট্রলারের জন্য দুশ্চিন্তায় রয়েছেন বলেও জানা গেছে।

গোলাম মোস্তফা চৌধুরী ট্রলার মালিকদের বরাত দিয়ে জানান, এফবি মায়ের দোয়া ও এফবি আব্দুল্লাহ ট্রলার গত ৬দিন ধরে নিখোঁজের খবর ট্রলার মালিকজদের মাধ্যমে পেয়েছি। খবর জানার সাথে সাথেই ওই ট্ররার উদ্ধারের জন্য জেলা ট্রলার মালিম সমিটির পক্ষথেকে ৩টি ট্রলার উদ্ধার অভিযানে সাগরে পাঠানো হয়েছে। ২ দিন ধরে তারা উদ্ধার করার জন্য অভিযানে আছে, এখন পর্যন্ত জেলে ও ট্রলারের কোন সন্ধান পাওয়া যায়নি।

এবিষয়ে কোস্টগার্ডের পাথরঘাটা স্টেশনের কমান্ডার লেফটেন্যান্ট ফাহিম শাহরিয়ার সাংবাদিকদের জানান, কোস্টগার্ডের দক্ষিন জোন ও পশ্চিম জোনসহ সবাইকে জানানো হয়েছে। নিখোঁজ ট্রলার ও জেলেদোর উদ্ধারের জন্য অভিযান চলছে।

এসএইচ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়