বিএফইউজে নির্বাচন হাইকোর্টে স্থগিত

আগের সংবাদ

প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে দেশব্যাপী চলছে গণটিকার বিশেষ কর্মসূচি

পরের সংবাদ

জব্দ গাড়ি-ফোনসহ ১৬ জিনিস পরী মনিকে দেওয়ার নির্দেশ

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২৮, ২০২১ , ২:১৬ অপরাহ্ণ আপডেট: সেপ্টেম্বর ২৮, ২০২১ , ৬:৫৭ অপরাহ্ণ

রাজধানীর বনানী থানায় দায়ের করা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের মামলায় আলোচিত চিত্রনায়িকা পরী মনির জব্দ হওয়া সাদা গাড়ি, মোবাইল, ল্যাপটপসহ ১৬টি জিনিস (আলামত) ফেরত দিতে আদেশ দিয়েছেন আদালত। মঙ্গলবার (২৮ সেপ্টেম্বর) ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট সত্যব্রত শিকদার শুনানি শেষে এ আদেশ দেন।

এর আগে দুপুর ১টা ২৫ মিনিটে জব্দ জিনিস ফেরত পেতে আদালতে উপস্থিত হন পরী মনি। এরপর আসামিপক্ষের আইনজীবী নীলাঞ্জনা রিফাত সৌরভী তদন্ত কর্মকর্তার প্রতিবেদনের উপর ভিত্তি করে আলামত ফেরত পেতে আদালতে শুনানি করেন। এরপর রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী তাপস কুমার পাল প্রতিবেদনের উপর আপত্তি নেই বলে জানান। এরপর শুনানি শেষে বিচারক গাড়িসহ বাকি ১৬ আলামত আসামির জিম্মায় দিতে আদেশ দেন।

এর আগে গত ২৬ সেপ্টেম্বর পরী মনির জব্দ হওয়া ১৬টি আলামত ফেরত দেওয়ার জন্য আদালতে প্রতিবেদন জমা দেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সিআইডির পরিদর্শক কাজী মোস্তফা কামাল। পরী মনিকে তার জব্দকৃত এসকল আলামত ফেরত দেওয়া হলে মামলার তদন্ত কাজে কোনো বিঘ্ন ঘটবে না বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়।

এছাড়া গত ১৫ সেপ্টেম্বর হাজিরা দিতে এসে ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট সত্যব্রত সিকদারের আদালতে জব্দ হওয়া গাড়ি, ফোন, ল্যাপটপ, প্রসাধনী বক্সসহ ১৬টি আলামত ফেরত পেতে অনুরোধ করেন পরী মনি ও তার আইনজীবী। পরী মনি সেদিন আদালতে বলেন, সাদা গাড়িটি আমার। গাড়িটি না থাকায় আমি অনেক সমস্যায় পড়েছি। এছাড়া ফোন, ল্যাপটপ ও অন্যান্য জিনিসপত্রও ফেরত চাই। পরে শুনানি শেষে আদালত বিআরটিএকে গাড়ির কাগজপত্রসহ সকল আলামতের ভিত্তিতে মালিকানা নির্ধারণের জন্য নির্দেশ দেন। এরপর আদালত মামলার পরবর্তী হাজিরার জন্য আগামী ১০ অক্টোবর দিন ধার্য করেন।

গত ৪ আগস্ট বিকেলে বনানীর বাসায় প্রায় চার ঘণ্টা অভিযান শেষে পরী মনিসহ তিনজনকে দেশি বিদেশি মদের বোলত ও এলএসডি মাদকসহ আটক করা হয়। পরে বনানী থানায় র‍্যাব বাদী হয়ে পরী মনি ও তার সহযোগী আশরাফুল ইসলাম দীপুর বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে একটি মামলা দায়ের করে। এ মামলায় প্রথম দফায় চারদিন এবং দ্বিতীয় দফায় দুইদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। এরপর গ্রেপ্তারের ২৬ দিন পর গত ৩১ আগস্ট পরীমণিকে ৫০ হাজার টাকা মুচলেকায় মামলার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করা না পর্যন্ত জামিন দেন আদালত।

ডি-এফবি

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়