১১ সাংবাদিকের ব্যাংক হিসাব তলবে ফখরুলের নিন্দা

আগের সংবাদ

নিউজ ফ্ল্যাশ

পরের সংবাদ

দু’জনের প্রাণহানি ছাড়া নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে: ইসি সচিব

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২০, ২০২১ , ৭:২৪ অপরাহ্ণ আপডেট: সেপ্টেম্বর ২০, ২০২১ , ৯:০৬ অপরাহ্ণ

দু’জনের মৃত্যুসহ বিচ্ছিন্নভাবে কিছু সহিংসতা, অনিয়ম, ভোট বর্জন ও পাল্টাপাল্টি অভিযোগের মধ্যে শেষ হলো দ্বিতীয় ধাপের ১৬০ ইউপি ও ৯টি পৌরসভার ভোট। তবে মহেশখালী ও কুতুবদিয়ার দুটি কেন্দ্রে সহিংসতার ঘটনায় দুই জনের প্রাণহানি ছাড়া অন্যত্র নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে বলে দাবি করেছে নির্বাচন কমিশন।

সোমবার (২০ সেপ্টেম্বর) ভোট শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে এমন মন্তব্য করেছেন ইসি সচিব হুমায়ুন কবীর খোন্দকার।

তিনি বলেন, আমরা যেসব তথ্য পেয়েছি- আমরা মনে করি নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে। কিছু প্রার্থী ও সমর্থক খুবই আবেগ প্রবণ হয়ে যান, তাদের কারণে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। তবে সার্বিকভাবে নির্বাচনে আমরা আমরা সন্তুষ্ট। এদিকে সোমবার ভোটচলাকালীন মহেশখালীতে দুই গ্রুপের মধ্যে সহিংসতা ঘটনায় ১জন এবং কুতুবদিয়ায় দুষ্কৃতিকারীরা ব্যালট ছিনতাই করতে গেলে আইন শৃঙ্খলাবাহিনী প্রিজাইডিং অফিসারের নির্দেশে গুলি চালালে ১জন মারা যায়।

ইসি সচিব বলেন, কুতুবদিয়ায় পুলিশ বা আইনশৃঙ্খলা বাহিনী প্রিজাইডিং অফিসারের নির্দেশে গুলি করেছে। এটি তো করতেই হবে।নিহত এ দুই জন হলেন মহেশখালীর আবুল কালাম ও কুতুবদিয়ার আবদুল হালিম। মহেশখালিতে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় আবুল কালামকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নেয়ার পথে তিনি মারা যান । আর কক্সবাজারের কুতুবদিয়ায় নির্বাচনী সহিংসতায় আবদুল হালিম (৩৫) নামে আওয়ামী লীগের এক নেতা নিহত হয়েছেন। তিনি বড়ঘোপ ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।

ইসি সচিব বলেন, প্রার্থীরা খুব বেশি আবেগ প্রবণ, ভোট যে ঘটনা (নিহত-আহত) ঘটেছে, এর কারণ প্রার্থীদের জেতার জন্য অতিরিক্ত আবেগ প্রবণতা। ইসি সচিব বলেন, আপনারা জানেন এটি আমাদের জন্য খুব বেদনাদায়ক, দুঃখজনক ঘটনা, যে মহেশখালী এবং কুতুবদিয়ায় একজন করে দুজন নিহত হয়েছে। ২৪ জন লোক বিভিন্ন জায়গায় প্রার্থীদের নিজেদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ায় আহত হয়েছেন। এছাড়া মোটামুটি সব জায়গায় আমরা যতটুকু খবর পেয়েছি নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে হয়েছে। তিনি আরও বলেন, পাঁচটি ভোটকেন্দ্রে অনিয়মের কারণে ভোট বন্ধ করা হয়েছে। ইভিএমে ইউনিয়নে ৫০ শতাংশ এবং পৌরসভায় ৫০ শতাংশে বেশি ভোট পড়েছে। আর ব্যালটে ৬৫ শতাংশের হবে বলে আশা করি।

হুমায়ুন কবীর খোন্দকার বলেন, রবিবার রাতে যেটা হয়েছে, প্রার্থীদের মধ্যে দ্বন্দ্বের ফলে একজন বৃদ্ধ মহিলা কোনোভাবে ধাক্কা খেয়ে নিহত হয়েছেন বলে আমরা জেনেছি। এটি তদন্ত করে দেখার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। ইসি সচিব জানান, একটি বিষয় মনে রাখতে হবে, ইউপি নির্বাচন কিন্তু একেবারে রুট পর্যায়ে হয়। নির্বাচনী আমেজ থাকে। প্রার্থীরা এত আবেগপ্রবণ হয়ে যান যে নিজেদের মধ্যে দ্বন্দ্বে জড়িয়ে পড়েন। এসব করতে যেয়ে নিজেদের মধ্যে অকস্মাৎ তারা সহিংসতার ঘটনা ঘটিয়ে ফেলেন। এটি ঘটে এবং ঘটেছে।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, সহিংসতা তখনই বন্ধ হবে, আমাদের প্রার্থী যারা তারা তো খুব বেশি আবেগপ্রবণ হয়ে পড়ে। এটি যতদিন বন্ধ না হবে ততদিন সহিংসতা থামানো কঠিন। কেননা ভোটের ফলাফল যাই হোকে তা মেনে নেবার মত মানষিকতা তৈরি করতে হবে। তিনি বলেন, ইউপি নির্বাচনে কিন্তু দলের মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকে না। এলাকার সব মানুষ অংশ নেয়। তারা খুব বেশি আবেগপ্রবণ হয়ে যায়। তখনই এই দ্বন্দ্বগুলো হয়ে যায়। গতকাল যে ঘটনা ঘটেছে সেগুলো খতিয়ে দেখব। ভবিষ্যতে যাতে পুনরাবৃত্তি না হয়, সে বিষয়ে সজাগ থাকব।

অন্য এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, নির্বাচন ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে তা বলব না। কেউ ভোটে অংশ না নিলে, মনোনয়নপত্র দাখিলের সময় সব নিয়ম না মানলে কিংবা কেউ প্রার্থিতা তুলে নিলেও অন্য একজন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হবে। ভোট বর্জনের বিষয়ে ইসি সচিব বলেন, কেউ কারচুপির কোনো অভিযোগ রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে করে থাকলে, তাহলে তিনি ব্যবস্থা নেবে। তবে সেটা সেই সময়ই করতে হবে। আমরা যে তথ্য পেয়েছি তাতে নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে।

এদিকে সোমবার দ্বিতীয় দফায় ১৬০ টি ইউপি নির্বাচনে আগে থেকেই ৪৩ জন চেয়ারম্যান প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় বিজয়ী হন। এ নির্বাচনে বিএনপি অংশ না নেওয়ায় আওয়ামী প্রার্থীরা প্রায় অধিকাংশ ইউপিতে ও ৯টি পৌরসভায় বিজয়ী হবার পথে। তবে দু একটি ইউপি ও পৌরসভায় আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীরাও এগিয়ে আছেন এমন তথ্য জানা গেছে।

এসএইচ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়