এল আর গ্লোবালের সঙ্গে যুক্ত হলেন সাকিব আল হাসান

আগের সংবাদ

পাটুরিয়ায় স্টেডিয়ামের স্থান পরিদর্শনে ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী রাসেল

পরের সংবাদ

আবারও বিয়ে করেছেন মাহিয়া মাহি!

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ১২, ২০২১ , ১২:১২ পূর্বাহ্ণ আপডেট: সেপ্টেম্বর ১২, ২০২১ , ১২:১২ পূর্বাহ্ণ

ঢালিউডের সবচেয়ে বেশি পারিশ্রমিক প্রাপ্ত চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি। ক্যারিয়ারে বেশি কিছু হিট সিনেমা উপহার দিয়েছেন তিনি। তাই ইন্ডাস্ট্রির অন্দরে তাকে নিয়ে আলোচনা বিস্তর। তেমনই আলোচনায় এই নায়িকার ব্যক্তিগত জীবনও। সম্প্রতি ফেসবুকে ঘোষণা দিয়ে তিনি তার ব্যবসায়ী স্বামী মাহমুদ পারভেজ অপুর থেকে আলাদা হয়ে গেছেন। তাদের ডিভোর্সের ব্যাপারটি এখন প্রক্রিয়াধীন।

এরই মাঝে গুঞ্জন, আবারও বিয়ে করেছেন মাহিয়া মাহি। ঢালিউডের অন্দরে এমন গুঞ্জনই চলছে। গত ১১ জুন রাতে বিয়ের কাতান শাড়ি পরে তোলা একটি ছবি ফেসবুকে শেয়ার করেন নায়িকা। ক্যাপশনে লেখেন, ‘আলহামদুলিল্লাহ’। তারই সূত্র ধরে গতকাল (শনিবার) ছড়িয়ে পড়ে তার বিয়ের গুঞ্জন। আসলেই কি নায়িকা মাহি বিয়ে করেছেন? এমন প্রশ্নই ঘুরছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

জানা গেছে, রাকির সরকার নামে এক যুবককে বিয়ে করেছেন মাহিয়া মাহি। রাকিব গাজীপুরের রাজনীতিতে প্রভাবশালী পরিবারের সদস্য। তার আরেক পরিচয় তিনি একজন ব্যবসায়ী। যদিও আনুষ্ঠানিকভাবে মাহি বা রাকিব কেউই তাদের বিয়ের বিষয়টি প্রকাশ করেননি। যদিও মাহির ফেসবুক লাইভে পাওয়া গেছে রাকিবকে।

তবে মাহিয়া মাহি দাবি করেছেন, বিয়ে নিয়ে যে খবর প্রচার হচ্ছে তা সম্পূর্ণ গুজব। খবরটি একদমই সত্য নয়। রাকিবের সঙ্গে আমার পরিচয় আছে কিন্তু বিয়ের খবর একেবারে ভুয়া। সে পরিচিত একজন ছাড়া আর কিছু না।’ বিয়ের এমন মিথ্যা খবর ছড়ানো থেকে বিরত থাকতে ভক্তদের অনুরোধও জানিয়েছেন ‘পোড়ামন’ খ্যাত এই তারকা।

এর আগে ২০১৬ সালের মাঝামাঝি শাহরিয়ার ইসলাম শাওন নামে এক যুবক মাহিকে তার স্ত্রী বলে দাবি করেন। জানান, তাদের বিয়ে হয়েছে। তারা নাকি এক মাস সংসারও করেছেন। ওই সময় শাওনের সঙ্গে তোলা মাহির বেশ কিছু ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে। এ নিয়ে পাল্টাপাল্টি মামলা মকদ্দমা হয়। তারই মাঝে সিলেটের ব্যবসায়ী অপুকে বিয়ে করেন মাহি।

সে সময় মাহির করা মামলায় গ্রেপ্তার হয়েছিলেন নায়িকার সঘোষিত স্বামী শাওন। ২০১৬ সালের ১৬ জুন আদালতে এক লাখ মুচলেকায় তিনি জামিনও পান। এর পরের বছর শাওনকে ওই মামলা থেকে অব্যাহতি দিতে আদালতে প্রতিবেদন দাখিল করে পুলিশ। তিনি অব্যাহতি পানও। এরপর আর স্বামীর দাবি নিয়ে মাহির সামনে দাঁড়াননি শাওন।

এসএইচ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়