বারিধারাকে গোল বন্যায় ভাসাল আবাহনী

আগের সংবাদ

হাসপাতালে ভর্তি ডেঙ্গু রোগী

পরের সংবাদ

হেডিংলিতে ভারতীয় পেসারদের ধার কমেছে

প্রকাশিত: আগস্ট ২৬, ২০২১ , ৯:৩৭ অপরাহ্ণ আপডেট: আগস্ট ২৬, ২০২১ , ৯:৪১ অপরাহ্ণ

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচ টেস্ট সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে ভারতকে জয় এনে দেন পেসাররা। তাদের বোলিং তোপে পড়ে ইংলিশ ব্যাটসম্যানরা দাঁড়াতেই পারেননি। তবে সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে দেখা যাচ্ছে অন্য চিত্র। ভারতের পেসাররা তেমনভাবে জ্বলে উঠতে পারছেন না। আর তাই তো নিজেদের প্রথম ইনিংসে ইংল্যান্ডের রানের সংখ্যা বাড়ছেই। ভারত দ্বিতীয় ম্যাচের মতো তৃতীয় ম্যাচেও চারজন পেসার নিয়ে মাঠে নেমেছে।

ম্যাচে ভারত প্রথম ইনিংসে মাত্র ৭৮ রান করে অলআউট হয়ে যায়। জবাবে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত ইংল্যান্ড তাদের প্রথম ইনিংসে ৩ উইকেট হারিয়ে ২৯৮ রান করেছে। এ মুহূর্তে ২২০ রানে এগিয়ে আছে থ্রি লায়ন্সরা।

প্রথমদিনই ভারতকে অলআউট করার পর ব্যাট করতে নামে ইংল্যান্ড। এদিন তারা ১২০ রান করে কোনো উইকেট না হারিয়ে দিন শেষ করতে সমর্থ হয়। দ্বিতীয় দিনের শুরুতে মোহাম্মদ শামি ওপেনার ররি বার্নসকে ৬১ রানে ফেরান। তখন ইংলিশদের দলীয় সংগ্রহ ১৩৫। এরপর দলীয় ১৫৯ রানের মাথায় হাসিব হামেদকে ৬৮ রানে ফেরান স্পিনার রবিন্দ্র জাদেজা। এরপর অধিনায়ক জো রুট ও ডেভিড মালান মিলে দলের রান বাড়ানোর কাজটি করতে থাকেন। এ রিপোর্ট লেখার সময় জো রুট ৮০ ও জনি বেয়ারস্টো ১ রানে অপরাজিত রয়েছেন। ডেভিড মালান ৭০ রান করে মোহাম্মদ সিরাজের বলে আউট হন।

এদিকে ম্যাচের প্রথমদিন অপ্রীতিকর ঘটনার শিকার হন ভারতীয় পেসার মোহাম্মদ সিরাজ। জানা গেছে, হেডিংলি স্টেডিয়ামের গ্যালারি থেকে সিরাজকে লক্ষ করে বল ছুড়ে মারা হয়েছে। প্রথম দিনের শেষ দিকে গোলাপি রঙের একটি বল মাঠে চলে এলে তা বের করতে দেখা যায় আম্পায়ারকে। পরে বিরক্তি প্রকাশ করতে দেখা যায় কোহলিকে।

ম্যাচের প্রথমদিন শেষে সংবাদ সম্মেলনে আসা উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান ঋসভ পন্তকে এ নিয়ে প্রশ্ন করা হলে পন্ত বলেন, ‘সিরাজের দিকে মাঠে একজন বল ছুড়ে মেরেছিল। এজন্যই কোহলি উদ্বিগ্ন ছিলেন। গ্যালারি থেকে যা খুশি চিৎকার করে বলতে পারেন। কিন্তু কোনো কিছু ছুড়ে মারা তো ঠিক নয়। ক্রিকেটের জন্য এসব ভালো নয়।’

এর আগে অস্ট্রেলিয়ায় দর্শকদের দ্বারা বর্ণবাদী আক্রমণের শিকার হন সিরাজ। পরে ওই দর্শকদের গ্যালারি থেকে বের করে দেয়া হয়। চলমান সফরে লুকেশ রাহুলের দিকে শ্যাম্পেইন কর্ক ছুড়ে মারার ঘটনাও ঘটেছিল।

এদিকে ইংল্যান্ড ও ভারতের মধ্যকার এ সিরিজের প্রথম দুটি ম্যাচে বারবার বাগড়া দিয়েছে বৃষ্টি। প্রথম ম্যাচে ভারত জয়ের খুব কাছে থাকলেও বৃষ্টির কারণে তাদের ড্র নিয়ে সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছে। তবে তৃতীয় ম্যাচে বৃষ্টি বাগড়া দেয়ার সম্ভাবনা খুবই কম। এখন পর্যন্ত ম্যাচের প্রথম দুই দিন বৃষ্টি ঝামেলা করেনি। তাছাড়া আগামী সপ্তাহে খুব বেশি বৃষ্টি হবে না, এমন তথ্য জানিয়েছে দেশটির আবহাওয়া বিভাগ। ফলে ম্যাচের পাঁচদিনের সব দিনই পাওয়া যাবে। তাপমাত্রা থাকবে ২০ ডিগ্রির কাছাকাছি।

এদিকে সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে জয় তুলে নিয়ে এখন ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে আছে ভারত। তাদের লক্ষ্য ছিল তৃতীয় ম্যাচেও জয় তুলে নিয়ে আরো এগিয়ে যাবে। কিন্তু এ ম্যাচের প্রথম দুটি দিনই খারাপ গেছে রবি শাস্ত্রীর শিষ্যদের। ফলে এখন ম্যাচে এগিয়ে আছে ইংলিশরাই। এখন ভারত যদি ম্যাচটিতে ফিরতে চায়, তাহলে বেশি রান করার আগেই ইংল্যান্ডকে দ্রুত অলআউট করে দিতে হবে। এরপর নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে রান করতে হবে অনেক। নয়তো এই ম্যাচে জয়ের সম্ভাবনা আর থাকবে না ভারতের।

ইংল্যান্ডের মাটিতে ২০০৭ সালের পর টেস্ট সিরিজে জয় পায়নি ভারত। এবার তাই ম্যান ইন ব্লুরা সিরিজ জয়ের স্বপ্ন নিয়ে ইংলিশদের বিপক্ষে খেলতে নামে। এদিক দিয়ে এগিয়ে থাকলেও তৃতীয় ম্যাচে ছন্দপতন হয়েছে তাদের। ভারত যদি ইংলিশদের বিপক্ষে এ ম্যাচে শেষ পর্যন্ত জয় তুলে নিতে পারে, তাহলে তারা সিরিজ আর হারবে না। কিন্তু তৃতীয় ম্যাচে হেরে গেলে শেষ পর্যন্ত সিরিজের শিরোপা খোয়ানোর শঙ্কাতেও থাকবে তারা।

এসআর

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়