মুক্তিযোদ্ধা ভাতা প্রক্রিয়ায় যুক্ত হলো সোনালী ব্যাংক

আগের সংবাদ

শিল্পকর্মে গ্রেনেড হামলার ভয়াবহতা

পরের সংবাদ

বিএসএমএমইউতে হাসান আজিজুল হকের চিকিৎসা শুরু

প্রকাশিত: আগস্ট ২১, ২০২১ , ৯:২৫ অপরাহ্ণ আপডেট: আগস্ট ২১, ২০২১ , ৯:২৫ অপরাহ্ণ

দেশের বিশিষ্ট কথাসাহিত্যিক ও শিক্ষাবিদ হাসান আজিজুল হককে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজধানীর জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউট ও হাসপাতাল থেকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

শনিবার (২১ আগস্ট) সন্ধ্যায় কথাসাহিত্যিক হাসান আজিজুল হকের ছেলে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণরসায়ন ও অণুপ্রাণবিজ্ঞান বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ইমতিয়াজ হাসান মৌলি ভোরের কাগজকে এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, তার বাবার প্রধান সমস্যা ইলেক্ট্রোলাইট ইমব্যালেন্স। পাশাপাশি বার্ধক্যজনিত সমস্যা ডায়াবেটিস এবং হৃদরোগে ভুগছিলেন। এছাড়াও পড়ে গিয়ে তিনি কোমরেও আঘাত পেয়েছিলেন। যে কারণে তিনি শারীরিকভাবে বেশ দুর্বল হয়ে পড়েছেন।

গত বুধবার হাসান আজিজুল হকের ছেলে ইমতিয়াজ হাসান মৌলি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে স্ট্যাটাসের মধ্য দিয়ে এ তথ্য জানান। শনিবার সকাল ১০টায় এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে রাজশাহী থেকে রাজধানী ঢাকায় নিয়ে আসা হয় এই লেখককে।

হাসান আজিজুল হক ভারতের পশ্চিমবঙ্গের বর্ধমান জেলার যবগ্রামে ১৯৩৯ সালের ২ ফেব্রুয়ারিতে জন্মগ্রহণ করেন। তার বয়স এখন ৮২ বছর। তিনি ১৯৭৩ সালে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের দর্শন বিভাগে অধ্যাপক হিসেবে যোগ দেন। ৩১ বছর শিক্ষকতা শেষে তিনি ২০০৪ সালে অবসরে যান। ষাটের দশকে তিনি কথাসাহিত্যিক হিসেবে সুনাম অর্জন করেন তার মর্মস্পর্শী বর্ণনাভঙ্গির জন্য। জীবনসংগ্রামে লিপ্ত প্রান্তিক মানুষের কথকতা তার গল্প-উপন্যাসের প্রধানতম অনুষঙ্গ।

১৯৭০ সালে তিনি বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কার পান। ১৯৯৯ সালে বাংলাদেশ সরকার তাকে একুশে পদকে ও ২০১৯ সালে স্বাধীনতা পুরস্কারে ভূষিত করে। সার্বজৈবনিক সাহিত্যচর্চার স্বীকৃতি স্বরূপ ২০১৮ সালে তাকে একটি বেসরকারি ব্যাংকের পক্ষ থেকে ‘সাহিত্যরত্ন’ উপাধি দেওয়া হয়। ২০০৬ সালে তার প্রকাশিত উপন্যাস ‘আগুনপাখি’, ২০১৩ সালে ‘সাবিত্রী উপাখ্যান’ এবং ২০১৫ সালে প্রকাশিত ‘শামুক’ তার উল্লেখযোগ্য উপন্যাস। এছাড়া নাটক, প্রবন্ধ, শিশুসাহিত্যসহ শতাধিক গ্রন্থ রয়েছে এই চিন্তকের।

এসএইচ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়